ঢাকা, শনিবার, ৭ বৈশাখ ১৪২৬, ২০ এপ্রিল ২০১৯
Risingbd
সর্বশেষ:

নাব্য হারানো নদী খননের উদ্যোগ

আসাদ আল মাহমুদ : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০১৮-০১-১৬ ৭:৪৯:৩৮ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৮-০১-১৬ ৭:৪৯:৩৮ পিএম

নিজস্ব প্রতিবেদক, সংসদ থেকে : পানি সম্পদমন্ত্রী আনোয়ার হোসেন বলেছেন, উজানের দেশ সমূহ হতে বাংলাদেশে মোট ৫৭ টি নদী প্রবাহিত হয়েছে। এর মধ্যে ৫৪টি ভারত থেকে এবং ৩টি নদী মিয়ানমার থেকে এ দেশে প্রবেশ করেছে। এসব নদীর অধিকাংশই নাব্য হারিয়েছে, যা খননের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।

মঙ্গলবার জাতীয় সংসদের দশম অধিবেশনে  প্রশ্নোত্তর পর্বে সংসদ সদস্য ইসরাফিল আলমের এক প্রশ্নের জবাবে এ তথ্য দেন তিনি। (নওগাঁ-৬) তারকা চিহ্নিত প্রশ্নের জবাবে তিনি একথা বলেন। 

তিনি বলেন, ‘ভারত থেকে এ দেশে প্রবাহিত নদী গুলো- রায়মঙ্গল নদী, ইছামতি কালিন্দী নদী, বেতনা কোদালিয়া নদী, ভৈরব কপোতাক্ষ নদী, মাথাভাঙা নদী, গঙ্গা, পাগলা, আত্রাই, পুনর্ভবা, তেঁতুলিয়া, ট্যাংগন, কুলীক, নাগর, মহানন্দা, ডাহুক, করতোয়া, তালমা, ঘোড়ামারা, দেওনাই-যমুনেশ্বরী, বুড়ি-তিস্তা, তিস্তা, ধরলা, দুধকুমার, ব্রহ্মপুত্র নদ, জিঞ্জিরাম, চিলাখালি, ভোগাই, নিতাই, জালুখালি- দামালিয়া, নয়াগাং, উমিয়াম, ধলা, পিয়াইন, সারি গোয়াইন, সুরমা, কুশিয়ারা, সোনাই বরদল, জুরী, মনু, ধলাই, লংলা, খোয়াই, সুতাং, সোনাই, হাওরা, বিজনী, সালদা, গোমতী কাকরী-ডাকাতিয়া সেলোনিয়া, মুহুরী, সুমেশ্বরী, যাদুকাটা এবং ফেনী নদী।

এছাড়া মিয়ানমার থেকে যে ৩টি নদী প্রবাহিত হয়েছে সেগুলো হলো- সাঙ্গু, মাতামুহুরী এবং নাফ নদী।’

তিনি আরো বলেন, ‘এসব নদীর অনেকগুলোর নাব্য ফিরিয়ে আনার লক্ষ্যে কাজ করছে সরকার। ক্যাপিটাল ড্রেজিং অব রিভার সিস্টেম ইন বাংলাদেশ শীর্ষক প্রকল্পের আওতায় যমুনা নদীর ২২ কিলোমিটার ড্রেজিং করতে ৯ শত ৯৩ কোটি ৩৮ লাখ টাকা ব্যয় করা হয়েছে। এছাড়া দেশের ১২টি জেলার ২২টি উপজেলায় ৪৪৬ কোটি ৫৯ লাখ টাকা ব্যয়ে এ কাজটি শিগগিরই শুরু হবে।



রাইজিংবিডি/ঢাকা/১৬ জানুয়ারি ২০১৮/আসাদ/শাহনেওয়াজ

Walton Laptop
     
Walton AC
Marcel Fridge