ঢাকা, মঙ্গলবার, ৪ মাঘ ১৪২৩, ১৭ জানুয়ারি ২০১৭
Risingbd
 
সর্বশেষ:

বয়সের ছাপ কমাবে যেসব খাবার

ফিরোজ : রাইজিংবিডি ডট কম
 
   
প্রকাশ: ২০১৭-০১-০৫ ১:৩৮:১৪ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৭-০১-০৮ ৯:৩৩:১১ পিএম

মৃন্ময়ী হাসান : বয়সের কাটা থমকে থাকার নয়। বয়স বাড়বেই। কিন্তু সেই বয়সের ছাপ কি চোখে-মুখে থাকা দরকার? কারো কারো বয়সের ছাপ মুখে পড়ে আবার কেউবা নিজেকে রাখতে পারেন চিরতরুণ।

 

এই চিরতরুণ যারা রাখতে পারেন কী তাদের গোপন রহস্য? রহস্যের ঘনঘটা আছে অনেক। তবে কিছু কিছু খাবার আপনার বয়সকে বাড়তে একটু লাগাম টেনে ধরবে। সেই খাবারগুলো যদি নিয়মিত খাওয়া হয় তাহলে শরীরে অকালে বয়সের লাগাম কিছুটা হলেও নিয়ন্ত্রণে থাকবে আপনার।

 

পানি : শরীরের সঠিক তারুণ্য ধরে রাখতে প্রচুর পানি পান করতে হবে। এই পানির মাধ্যমেই শরীরের অভ্যন্তরীণ সমস্ত অস্বস্থিকর অবস্থা দূর করা সম্ভব। এটি শরীরের অতিরিক্ত ওজন কমাতে এবং শরীরের স্বাস্থ্যকর অবস্থা বজায় রাখতে সাহায্য করে।

 

সবুজ চা : তারুণ্য ধরে রাখতে বহুল প্রশংসিত একটি পানীয় হচ্ছে, ভেষজ সবুজ চা। সবুজ চায়ে রয়েছে একাধিক পুষ্টি উপাদান ও খনিজ পদার্থ যেমন অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট, যা ভাঁজহীন ত্বক এবং অভ্যন্তরীণ অবস্থা ভালো রাখতে সাহায্য করে।

 

বার্লি ও শস্য জাতীয় খাবার : এসব শস্য জাতীয় খাবার খাদ্য আঁশের জন্য বিখ্যাত। এছাড়াও এতে থাকে ভিটামিন ও খনিজ পদার্থ যার ফলে এরা ওজন বেড়ে যাওয়ার বিরুদ্ধে কাজ করে, হৃদরোগ এবং অন্যান্য বার্ধক্যজনিত রোগের বিরুদ্ধেও কাজ করে।

 

গাঢ় রঙের সবুজ শাকসবজি : গাঢ় রঙের সবুজ শাকসবজি খাদ্য আঁশ, ভিটামিন ও খনিজ পদার্থের শক্তির আধার। এসব খাবার হার্টকে সুস্থ রাখার পাশাপাশি ওজন কমাতেও সাহায্য করে।

 

বাদাম : চেহারায় তারুণ্য ধরে রাখতে বাদামের জুড়ি নেই। বাদাম বিশেষ করে আখরোটে ওমেগা-৩ ফ্যাটি অ্যাসিড আছে, যা ত্বককে মসৃণ করে ভেতর থেকে উজ্জ্বল করে থাকে। আখরোটে কোলেস্টেরলের মাত্রা খুব কম থাকে। প্রতিদিনকার খাদ্য তালিকায় আপনি রাখতে পারেন যেকোনো বাদাম। সেটি আপনাকে কাজ করার এনার্জি দেওয়ার সঙ্গে সঙ্গে ত্বকের বলিরেখা পড়া রোধ করে।

 

টমেটো : টমেটোতে অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট উপাদান লাইকোপেন আছে যা বিভিন্ন স্কিন রোগ প্রতিরোধ করে থাকে। এটি ত্বককে সূর্যের ক্ষতিকর রশ্মি থেকে রক্ষা করে থাকে।

 

অলিভ অয়েল : অলিভ অয়েল প্রতিদিনকার রান্নায় ব্যবহার করুন। এছাড়া এক টেবিল চামচ অলিভ অয়েল নিয়ে প্রতিদিন দুইবার করে ত্বকে ম্যাসাজ করুন। এটি ত্বকের শুষ্কতা দূর করে যেকোনো দাগ দূর করতে সাহায্য করে থাকে।

 

ব্রকোলি : ডিটক্সিফিকেশন খুবই গুরুত্বপূর্ণ উপাদান তারুণ্য উজ্জ্বল ত্বকের জন্য। ব্রকোলিতে প্রচুর পরিমাণে ডিটক্সিফিকেশন আছে, যা দেহ থেকে ক্ষতিকর উপাদান বের করে দিয়ে কোষকে সতেজ রাখে। সপ্তাহে দুই বা তিন দিন খাদ্য তালিকায় ব্রকোলি রাখুন।

 

ডালিম : দিনটা শুরু করুন এক গ্লাস ডালিমের রস খেয়ে। এটি আপনার ত্বকে বলিরেখা পড়া রোধ করবে। ডালিমে অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট রয়েছে, যা ত্বকের নমনীয়তা বজায় রেখে টানটান রাখতে সাহায্য করে।

 

 

রাইজিংবিডি/ঢাকা/৫ জানুয়ারি ২০১৭/ফিরোজ