ঢাকা, শনিবার, ৮ মাঘ ১৪২৩, ২১ জানুয়ারি ২০১৭
Risingbd
 
সর্বশেষ:

সাহিত্যে বছরজুড়ে যারা পুরস্কৃত হলেন

সাইফ বরকতুল্লাহ : রাইজিংবিডি ডট কম
 
   
প্রকাশ: ২০১৬-১২-২৩ ৯:২৪:১৫ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৬-১২-২৩ ৯:২৪:১৫ পিএম

সাইফ বরকতুল্লাহ : স্মৃতি হয়ে গেল আরেকটি বছর। বছরজুড়ে ছিল ঘটনার ঘনঘটা। কখনও প্রাপ্তির আনন্দ, কখনও অপ্রাপ্তির বেদনা, সাফল্য-ব্যর্থতা, কখনও আবার অপার বিস্ময়, কখনও কৌতূহলের জন্ম দিয়েছে যে সংবাদ- সেসব পাঠকদের আরেকবার স্মরণ করিয়ে দিতেই আমাদের এ আয়োজন। প্রথম পর্বে থাকছে সাহিত্যাঙ্গনে দেশে-বিদেশে যারা পদক পেয়েছেন তাদের নিয়ে প্রতিবেদন।

 

নোবেল সাহিত্য পুরস্কার : এ বছর সাহিত্যে নোবেল পুরস্কার পেয়েছেন প্রখ্যাত মার্কিন গায়ক ও গীতিকার বব ডিলান। ১৩ অক্টোবর রয়্যাল সুইডিশ অ্যাকাডেমির স্থায়ী সচিব সারা দানিউস সাহিত্যে নোবেল বিজয়ী হিসেবে ডিলানের নাম ঘোষণা করেন। আমেরিকার ঐতিহ্যবাহী গানের মধ্যে নতুন কাব্যিক ভাবধারা সৃষ্টির জন্য তাকে এ সম্মাননা দেওয়া হয়েছে। বব ডিলান একাধারে গায়ক, গীতিকার, লেখক, সুরকার ও কবি। তার প্রকৃত নাম রবার্ট অ্যালেন জিমারম্যান। পাঁচ দশকেরও বেশি সময় ধরে তিনি জনপ্রিয় ধারার সংগীতের অন্যতম প্রধান ব্যক্তি হিসেবে সুপরিচিত। ১৯৬১ সালে ডিলানের পেশাদার সংগীত জীবনে প্রবেশ ঘটে। সুদীর্ঘ ক্যারিয়ারে গায়ক হিসেবেই তিনি বেশি পরিচিতি পেয়েছেন এবং সফল হয়েছেন। তবে গীতিকার হিসেবেই তার অবদান মূল্যায়িত হয়। অনন্য কাজের স্বীকৃতিস্বরূপ ডিলান গ্রামি অ্যাওয়ার্ড, গোল্ডেন গ্লোব ও অ্যাকাডেমি পুরস্কার জিতেছেন। বব ডিলানের জন্ম ১৯৪১ সালের ২৪ মে মিনেসোটা অঙ্গরাজ্যের ডুলুথে।

 

ম্যানবুকার পুরস্কার : দ্য ভেজিটেরিয়ান বইয়ের জন্য এ বছর সাহিত্যে ম্যানবুকার পুরস্কার পান দক্ষিণ কোরিয়ার লেখক হান কাং। তিনিই প্রথম কোরিয়ার নারী- যিনি এই পুরস্কার জিতেছেন। এ বছর হানের প্রতিদ্বন্দ্বী ছিলেন ইতালির প্রখ্যাত লেখক এলেনা ফেরান্তে এবং তুরস্কের ওরহান পামুক। লন্ডনে তার হাতে বুকার পুরস্কারের ৭২ হাজার মার্কিন ডলার তুলে দেওয়া হয়। দ্য ভেজিটেরিয়ান একটি ফিকশনধর্মী বই। এর মূল চরিত্র একজন নারী। যিনি ভয়াবহ পরিণতির কারণে মাংস না খাওয়ার সিদ্ধান্ত নেন। হান লেখালেখি শুরু করেন ২০০৫ সালে। তার বইটি ইংরেজি ভাষায় রূপান্তরিত করেন ডেবরাহ স্মিথ। তিনি মাত্র সাত বছর আগে থেকে কোরিয়ান ভাষা শিখছেন।

 

জ্ঞানপীঠ পুরস্কার : সাহিত্যে অবদানের জন্য জ্ঞানপীঠ-২০১৬ পুরস্কার পেয়েছন কবি শঙ্খ ঘোষ। ২০ বছর পর কোনো বাঙালি লেখক এই সম্মানে ভূষিত হলেন। ১৯৯৬ সালে মহাশ্বেতা দেবী এ পুরস্কার পান। এর আগে ১৯৬৬ সালে জ্ঞানপীঠ পুরস্কার পান তারাশঙ্কর বন্দ্যোপাধ্যায়, ১৯৭১ সালে পান বিষ্ণু দে। ১৯৭৬ সালে এই সম্মান পান আশাপূর্ণা দেবী। তারপর ১৯৯১ সালে সুভাষ মুখোপাধ্যায় পান এ সম্মান।

 

আকুতাগাওয়া পুরস্কার : তিনি একজন দোকানের নারীকর্মী। ভিন্ন ধারার লেখিকা। নাম সায়াকা মুরাতা (৩৬)। এবারের জাপানের বিখ্যাত সাহিত্য পুরস্কার আকুতাগাওয়া পুরস্কার (১৫৫তম) বিজয়ী হয়েছেন। দোকানের নারীকর্মী হলেও তার সাহিত্যিক অভিজ্ঞতা অনেক। সায়াকা তার প্রথম বই ব্রেস্ট ফিডিং (জাপানি নাম জুনিউ) এর জন্য এর আগে গুনজো পুরষ্কার পেয়েছিলেন। এবার আকুতাগাওয়া পুরস্কার পেলেন। তার গ্রন্থটি হলো ‘কনভিনিয়েন্স স্টোর ওমেন’। গ্রন্থটির জাপানি নাম কোনবিনি নিনজেন। বিখ্যাত জাপানি লেখক রাইয়ুনুসুকি আকুতাগাওয়ার স্মরণে ১৯৩৫ সাল থেকে এ সাহিত্য পুরস্কার দেওয়া হয়। এর অর্থমূল্য ১০ লাখ ইয়েন।

 

ডাবলিন সাহিত্য পুরস্কার: এ বছর ডাবলিন সাহিত্য পুরস্কার পেলেন অখিল শর্মা। ‘ফ্যামিলি লাইফ’- উপন্যাসের জন্য তিনি এ পুরস্কার পেয়েছেন। পুরস্কার মূল্য ৭৮ হাজার পাউন্ড। নিউ জার্সির রাটগার্স ইউনিভার্সিটির ইংরেজি বিভাগের সহকারি অধ্যাপক অখিল শর্মা। এর আগে তার প্রথম উপন্যাসের জন্য পেন-হেমিংওয়ে পুরস্কার অর্জন করেছিলেন।

 

একুশে পদক : এ বছর ১৬ বিশিষ্ট ব্যক্তিকে বিভিন্ন ক্ষেত্রে ‍গৌরবোজ্জ্বল ও প্রশংসনীয় অবদান রাখায় একুশে পদক দিয়েছে সরকার। একুশে প্রদকপ্রাপ্তরা হলেন- ভাষা আন্দোলনে  অবসরপ্রাপ্ত বিচারপতি কাজী এবাদুল হক, ডা. সাইদ হায়দার ও ড. জসীম উদ্দিন আহমেদ। ভাষা সংগ্রামী সৈয়দ গোলাম কিবরিয়া (মরণোত্তর) একুশে পদক পেয়েছেন। শিল্পকলায় অভিনেত্রী জাহানারা আহমেদ, শাস্ত্রীয় সংগীতগুরু পণ্ডিত অমরেশ রায় চৌধুরী, সংগীতশিল্পী শাহীন সামাদ, নৃত্যশিল্পী আমানুল হক ও চিত্রশিল্পী কাজী আনোয়ার হোসেন (মরণোত্তর)। মুক্তিযুদ্ধে মুক্তিযুদ্ধ জাদুঘরের প্রতিষ্ঠাতা ট্রাস্টি মফিদুল হক, সাংবাদিকতায় প্রবীণ সাংবাদিক তোয়াব খান, গবেষণায় বিশেষ অবদান রাখায় এ পদক পেয়েছেন অধ্যাপক ডা. এ বি এম আব্দুল্লাহ এবং মংছেন চীং মংছিন। আর ভাষা ও সাহিত্যে জ্যোতিপ্রকাশ দত্ত, অধ্যাপক হায়াৎ মামুদ ও হাবীবুল্লাহ সিরাজী।

 

বাংলা একাডেমি সাহিত্য পুরস্কার : পুরস্কারপ্রাপ্তরা হলেন- কবিতায় আলতাফ হোসেন, কথাসাহিত্যে শাহীন আকতার, প্রবন্ধে যৌথভাবে আবুল মোমেন ও ড. আতিউর রহমান, গবেষণায় মনিরুজ্জামান, অনুবাদে আব্দুস সেলিম, মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক সাহিত্যে তাজুল মোহম্মদ, আত্মজীবনী, স্মৃতিকথা ও ভ্রমণকাহিনী ক্যাটাগরিতে ফারুক চৌধুরী, নাটকে মাসুম রেজা, বিজ্ঞান, প্রযুক্তি ও পরিবেশে শরীফ খান ও শিশুসাহিত্যে সুজন বড়ুয়া।

 

 

জেমকন সাহিত্য পুরস্কার : ২০১৬ সালের জেমকন সাহিত্য পুরস্কার পেয়েছেন কথাসাহিত্যিক মঈনুল আহসান সাবের। জেমকন তরুণ কথাসাহিত্য পুরস্কার পেয়েছেন মোস্তাফিজ কারিগর। মঈনুল আহসান সাবেরকে তার ‘আব্দুল জলিল যে কারণে মারা গেল' উপন্যাসের জন্য নগদ আট লাখ টাকা এবং ক্রেস্ট ও সম্মাননাপত্র দেওয়া হয়। সেই সঙ্গে তরুণ কথা সাহিত্য পুরস্কারপ্রাপ্ত মোস্তাফিজ কারিগরকে 'বস্তুবর্গ' উপন্যাসের জন্য দুই লাখ টাকা ও সম্মাননাপত্র দেওয়া হয়। জেমকন গ্রুপের ভাইস চেয়ারম্যান কাজী নাবিল আহমেদ পুরস্কারপ্রাপ্তদের হাতে পুরস্কার তুলে দেন।

 

পেন পুরস্কারে ভূষিত আহমেদুর রশীদ : পেন ইন্টারন্যাশনাল রাইটার অব কারেজ পুরস্কারে ভূষিত হয়েছেন বাংলাদেশের প্রকাশনা প্রতিষ্ঠান শুদ্ধস্বরের প্রকাশক ও লেখক আহমেদুর রশীদ টুটুল। ১৩ অক্টোবর কানাডার জনপ্রিয় লেখিকা মার্গারেট অ্যাটউড পেন ইন্টারন্যাশনাল রাইটার অব কারেজ পুরস্কারের জন্য আহমেদুর রশীদের নাম ঘোষণা করেন। সাহিত্যে নোবেলজয়ী প্রয়াত হ্যারল্ড পিন্টারের সম্মানে ২০০৯ সাল থেকে পেন ইন্টারন্যাশনাল রাইটার অব কারেজ পুরস্কার দেওয়া হয়।

 

ওয়ালীউল্লাহ সাহিত্য পুরস্কার : বাংলা একাডেমি প্রবর্তিত ‘সৈয়দ ওয়ালীউল্লাহ সাহিত্য পুরস্কার-২০১৬ এর জন্য মনোনীত হয়েছেন যুক্তরাজ্যপ্রবাসী কবি শামীম আজাদ এবং জার্মানপ্রবাসী লেখক ও গবেষক নাজমুন নেসা পিয়ারি।

 

এক্সিম ব্যাংক-অন্যদিন হ‌ুমায়ূন আহমেদ সাহিত্য পুরস্কার : এক্সিম ব্যাংক-অন্যদিন হ‌ুমায়ূন আহমেদ সাহিত্য পুরস্কার-২০১৬ পেয়েছেন হাসান আজিজুল হক ও স্বকৃত নোমান।

 

ব্র্যাক ব্যাংক-সমকাল সাহিত্য পুরস্কার : ব্র্যাক ব্যাংক-সমকাল সাহিত্য পুরস্কার জিতে নিয়েছেন কবি নির্মলেন্দু গুণ, রাজকুমার সিংহ ও স্বকৃত নোমান। নির্মলেন্দু গুণ তার ‘রক্ষা করো হে ভৈরব’গ্রন্থের জন্য কবিতা ও কথাসাহিত্য শ্রেণিতে, রাজকুমার সিংহ তার ‘মৈত্রেয়ী নেই, মৈত্রেয়ী আছে’গ্রন্থের জন্য প্রবন্ধ, আত্মজীবনী, ভ্রমণ ও অনুবাদ শ্রেণিতে এবং স্বকৃত নোমান ‘কালকেউটের সুখ’ গ্রন্থের জন্য ‘হুমায়ূন আহমেদ তরুণ সাহিত্যিক পুরস্কার’ পেয়েছেন।

 

সিটি আনন্দ আলো সাহিত্য পুরস্কার : ২০১৬ সালে পুরষ্কার পেয়েছেন ‘ক’ শাখায়: প্রবন্ধ, আত্মজীবনী ও স্মৃতিকথা শাখায় যৌথভাবে চন্দ্রাবতী থেকে প্রকাশিত আবুল মাল আবদুল মুহিতের ‘সোনালি দিনগুলি’ এবং জার্নিম্যান থেকে মুনতাসীর মামুনের ‘ঢাকায় খাল পোল ও নদীর চিত্রকর’, উপন্যাসে কথাপ্রকাশ থেকে প্রকাশিত সেলিনা হোসেন এর ‘নিঃসঙ্গতার মুখর সময়’, শিশুসাহিত্যে অন্যপ্রকাশ থেকে প্রকাশিত আসলাম সানীর ‘নির্বাচিত ১০০ ছড়া’, কবিতায় যৌথভাবে সময় থেকে প্রকাশিত পিয়াস মজিদের ‘কবিকে নিয়ে কবিতা’ ও চৈতন্য থেকে প্রকাশিত মুজিব ইরম এর ‘শ্রীহট্টকীর্তন’ পুরস্কার পেয়েছে। ‘খ’ শাখায় (জীবনের প্রথম বই ক্যাটাগরিতে): জনান্তিক থেকে  প্রকাশিত এহসান হাফিজ এর ‘এ ও সে ও’ পুরস্কার পেয়েছে।

 

নজরুল পুরস্কার : নজরুল পুরস্কার পেয়েছেন নজরুল সংগীত শিল্পী সাদিয়া আফরিন মল্লিক ও গবেষণায় অধ্যাপক আবু হেনা আব্দুল আউয়াল।

 

দাগ সাহিত্য পুরস্কার : এ বছর দাগ সাহিত্য পুরস্কার পান- কবিতায় কবি খালেদ হোসাইন, ছোটগল্পে সালাম সালেহ উদদীন, শিশুসাহিত্যে আনজীর লিটন, তরুণ কবিতায় জব্বার আল নাঈম, গ্রাম উন্নয়ন, সংগঠন ও সমাজসেবায় আবু হেনা মোস্তফা কামাল।

 

 

রাইজিংবিডি/ঢাকা/২৩ ডিসেম্বর ২০১৬/সাইফ