ঢাকা, সোমবার, ৪ আষাঢ় ১৪২৫, ১৮ জুন ২০১৮
Risingbd
ঈদ মোরারক
সর্বশেষ:

গাঙ ভাসায়, গাঙ বাঁচায়!

রফিকুল ইসলাম মন্টু: গাঙ ভাসায়, গাঙ বাঁচায়! গাঙের তীরেই বসতি। ক্রমাগত বাঁক বদলানো গাঙ নিঃস্ব করে বহু মানুষকে।

মেঘনায় ইলিশ নেই, ঈদও নেই

জুনাইদ আল হাবিব : ‘৩ লাখ ৮ হাজার টিয়া চালান খাটিয়ে নতুন নাও বানাইছি। নতুন করে গাঙ্গে যামু, বড় বড় ইলিশ ধরমু, কপাল ফিরব, পোলাপাইন নিয়া ঈদ করমু।

‘পুরোনো কাপড়েই এবার ঈদ করতে হবে’

আমিনুর রহমান হৃদয় : সাপের খেলা দেখিয়ে মানুষকে তারা আনন্দ দেয়। তাদের নেই কোনো স্থায়ী জমি, নেই স্থায়ী থাকার মতো ঘর।

রক্তের প্রয়োজনে নিঝুম ব্লাড ফাউন্ডেশন

ছাইফুল ইসলাম মাছুম : যেখানেই রক্তের প্রয়োজন, সেখানেই ছুটে যান তারা। স্বেচ্ছাশ্রমে মুমূর্ষু রোগীদের রক্ত সংগ্রহ করে দিয়ে বাঁচিয়ে তোলেন প্রাণ।

প্রতিকূলে পাতিলা, বৈরিতায় বসবাস!

রফিকুল ইসলাম মন্টু : আকাশজুড়ে কালো মেঘ। ঝড়ের আশঙ্কা। হঠাৎ বেড়ে গেল বাতাস। ঘরমুখো মানুষের ছোটাছুটি। অবশেষে বৃষ্টি নামলো প্রবল বেগে।

ছেলেকে নিয়ে মায়ের গর্ব

ডেস্ক রিপোর্ট : লিমনচন্দ্র পাল (অফিস আইডি-২০৮১৩)।তিনি ওয়ালটন সার্ভিস ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম বিভাগে কর্মরত।

‘ওয়ালটন কর্মীর পরিবারের খোঁজখবরও রাখে’

ডেস্ক রিপোর্ট: মো. আব্দুল রাজ্জাক (অফিস আইডি-১৭১৯১)। তিনি ওয়ালটন সার্ভিস ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম বিভাগে কর্মরত।

পথে বিনামূল্যে ইফতার

ছাইফুল ইসলাম মাছুম: দীর্ঘ রিকশার সারি। বিভিন্ন বয়সী মানুষ- নারী, পুরুষ। সবার মুখে ক্লান্তির ছাপ। অপেক্ষমাণ তারা।

সামাজিক সচেতনতায় সানজিদা

বেনজির আবরার : আমাদের চারপাশে রয়েছেন এমন অনেক নারী যাদের কাজের কথা ভাবলেই মনে হয়- এ যেন অন্যরকম এক আবহ, অনেক দু:খকে না করে দেবার গল্প।

অনিশ্চিত ইফতারের অপেক্ষায়

ছাইফুল ইসলাম মাছুম : কেউ আছে একা, কেউ পরিবার নিয়ে। রাস্তার ধারে, ঝুপড়িতে, খোলা আকাশের নিচে বসবাস তাদের।

‘সম্মাননা আমার ভারাক্রান্ত মনকে আনন্দে ভাসিয়েছে’

ডেস্ক রিপোর্ট : মো. হৃদয় হোসেন (অফিস আইডি-৮৯৬৪)। তিনি ওয়ালটন সার্ভিস ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম বিভাগে কর্মরত।

‘মাতৃত্ব অন্যরকম এক অনুভূতির ব্যাপার’

ডেস্ক রিপোর্ট : মো. ইমরান হোসেন (অফিস আইডি-৪৪৮৯)। তিনি ওয়ালটন সার্ভিস ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম বিভাগে কর্মরত।

এশিয়ান প্যারাডাইজ ফ্লাই কেচার

খোকন থৌনাউজাম : বৃহস্পতিবার, দুপুরের কড়া রোদের দিকে তাকিয়ে ভাবছিলাম আজকেও আরেকবার ঢুঁ মেরে আসব কি না ফরেস্টে।

প্রিয়জনের কাছে ফিরলেই সব কষ্ট ম্লান

হাসান ওয়ালী : ‘সকাল থেকে লাইনে দাঁড়ায়ে আছি, এখনো টিকেট হাতে পেলাম না। জানি না আজকে আর পাবো কিনা।

ভয়াবহ সব অগ্ন্যুৎপাত

আহমেদ শরীফ : গুয়াতেমালায় ফুইগো আগ্নেয়গিরি থেকে চলতি বছর ফেব্রুয়ারিতে অগ্ন্যুৎপাতের পর দ্বিতীয়বারের মতো আবারো ভয়াবহ অগ্ন্যুৎপাত হয়েছে।