ঢাকা, মঙ্গলবার, ৬ ভাদ্র ১৪২৫, ২১ আগস্ট ২০১৮
Risingbd
শোকাবহ অগাস্ট
সর্বশেষ:

বিজয় দিবসে রেজাইনায় বর্ণাঢ্য উৎসব

রাশেদ শাওন : রাইজিংবিডি ডট কম
 
     
প্রকাশ: ২০১৭-১২-১৮ ৫:০৬:২৫ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৮-০৪-২১ ৮:৪৫:৫৪ পিএম

রাশেদ শাওন: বাংলাদেশ থেকে সহস্র মাইল দূরে থেকেও মহান বিজয় দিবস বর্ণাঢ্য উৎসব পালন করেছে কানাডার প্রবাসী বাংলাদেশিরা। কানাডার পেইরি অঞ্চল হিসেবে খ্যাত সাস্কেচওয়ান প্রদেশের রাজধানী রেজাইনায় ১৬ ডিসেম্বরের সন্ধ্যাটি হয়ে ওঠেছিল এক টুকরো বাংলাদেশ। কবিতা আবৃত্তি-নাচে-গানে-কথায় বিজয় উদযাপনের ক্ষণটি ছিল উৎসব-উল্লাসে মুখরিত।

বাংলাদেশ-কানাডা অ্যাসোসিয়েশন অব রেজাইনা বাংলাদেশের ৪৬তম বিজয় দিবস উদযাপনের এই আয়োজন করে। অনুষ্ঠান শুরুর আগেই অনুষ্ঠানস্থল ক্যাম্পবেল কলেজ মিলনায়তন ভরে ওঠে স্থানীয় প্রবাসী বাংলাদেশিদের সরব উপস্থিতিতে।

বাংলাদেশ-কানাডা অ্যাসোসিয়েশন অব রেজিইনার প্রশাসনিক পরিচালক সাঈদ মুন্সির শুভেচ্ছা বক্তব্যের মধ্য দিয়ে অনুষ্ঠান শুরু হয় সন্ধ্যায়। অনুষ্ঠানে বিজয় দিবস উপলক্ষে প্রকাশিত স্মরণিকা ‘বিজয়ের প্রতিফলন’-এর মোড়ক উন্মোচন করা হয়।

বিজয়ের প্রতিফলন-এর সম্পাদনা করেছেন চয়ন মল্লিক, ফাতমা সুমাইয়া খান বিদুর, রাজিয়া রহমান, সাজেদুর রহমান মজুমদার, সাঈদ মুন্সি, সৈয়দ হাসান আবু তালহা, রাশেদ শাওন ও তামান্না ইসলাম। এর প্রচ্ছদ এঁকেছেন ও গ্রহ্নণা করেছেন সাজেদুর রহমান মজুমদার।



সাদিয়া, সৃজনী, মাহিমা, রোদসি, লামিসা, আনিকা, ত্রয়ী, মুনতাহা, বিদুর-এর পরিবেশনা ‘বাংলাদেশের স্বাধীনতা লক্ষ প্রাণের দান’ গানটি দিয়ে শুরু হয় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। এরপর শিশুশিল্পীদের পরিবেশনায় ছিল একটি দলীয় নৃত্য। এছাড়া আয়োজনে কবিতা আবৃত্তি করেন মানতাকা, ওয়াসিকা চৌধুরী, ওয়াসিকা চৌধুরী, রুবেল আহমেদ, দ্বীপা নেওয়াজ, ফারহান সাদিক; নৃত্য পরিবেশন করেন ত্রয়ী, মুনতাহা, সাদিয়া, মাহিমা ও আঁখি। অনুষ্ঠানে সংগীত পরিবেশন করেন অরূণ শর্মা ও ইভা শর্মা, সৈয়দ মোহাম্মদ রেজা ইস্পাহানি, ফাতমা বিদুর, ইনানি খিসা, ফারহানা বেগম হ্যাপি, কিরণ, রাজিয়া রহমান শিউলি, সৃজনী। হৃদয়ে আমার বাংলাদেশ গানটির সঙ্গে রোদসি, মাহিমা, সাদিয়া, সৃজনির দলীয় নাচের মধ্য দিয়ে আয়োজন শেষ হয়।

সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন ইভা পিটারসন ও রাশেদ শাওন। মঞ্চসজ্জায় ছিলেন সাজেদুর রহমান মজুমদার। শিল্পীদের সঙ্গে বাদ্যযন্ত্রে সঙ্গত করেন শিউলি এবং সৈয়দ মোসাদ্দেকুর মাশরুর। অনুষ্ঠানটি গ্রন্থণা করেন রাশেদ শাওন। সমন্বয়কের দায়িত্ব পালন করেন রাজিয়া সুলতানা শিউলি। আয়োজনটি পরিচালনা করেন সাঈদ মুন্সি।

অনুষ্ঠান শেষে বিজয় দিবস উপলক্ষে আয়োজিত শিশুদের চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগীতায় বিজয়ীদের পুরস্কার ও সনদপত্র বিতরণ করা হয়। দুটি বিভাগে বিভক্ত এই প্রতিযোগীতায় এক থেকে নয় বছর বয়সিদের নিয়ে ক বিভাগে প্রথম হয়েছেন আফরীন আহমেদ, দ্বিতীয়- তাহরাত বাকার এবং তৃতীয় হয়েছে লামিসা রহমান। খ-বিভাগে প্রথম হয়েছে মানতাকা চৌধুরী, দ্বিতীয় ফারহান সাবিক ও তৃতীয় হয় ফারহান সাদিক। বিজয়ীদের হাতে সনদপত্র ও পুরস্কার তুলে দেন ডা. বি. আর. দত্ত এবং ডা. আশীষ পাল। চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতায় বিচারকের দায়িত্ব পালন করেন সিনথিয়া, স্বর্ণা খান ও তাহসিন শাওন।



রাইজিংবিডি/ঢাকা/১৮ ডিসেম্বর ২০১৭/ফিরোজ

Walton Laptop
 
     
Walton