ঢাকা, রবিবার, ৬ শ্রাবণ ১৪২৬, ২১ জুলাই ২০১৯
Risingbd
সর্বশেষ:

ব্যাংক ও অর্থনৈতিক সম্পৃক্ততায় কাঙ্ক্ষিত লক্ষ্যে পৌঁছেনি বাংলাদেশ

নাসির উদ্দিন : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০১৮-০৯-০৯ ৯:৩৪:৪৩ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৮-০৯-০৯ ৯:৩৪:৪৩ পিএম
ব্যাংক ও অর্থনৈতিক সম্পৃক্ততায় কাঙ্ক্ষিত লক্ষ্যে পৌঁছেনি বাংলাদেশ
Voice Control HD Smart LED

অর্থনৈতিক প্রতিবেদন : বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ব্যাংক ম্যানেজমেন্টের (বিআইবিএম) এক গবেষণা প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ব্যাংক ও অর্থনৈতিক সম্পৃক্ততায় কাঙ্ক্ষিত লক্ষ্যে পৌঁছেনি বাংলাদেশ।

রোববার রাজধানীর মিরপুরে বিআইবিএম অডিটোরিয়ামে ‘বাংলাদেশের এসডিজি অর্জন : ব্যাংকিং খাতের ভূমিকা’ শীর্ষক জাতীয় সেমিনারে উপস্থাপিত এক গবেষণা প্রতিবেদনে এ কথা বলা হয়।

প্রতিবেদনে আরো বলা হয়, দক্ষিণ এশিয়ার দেশ শ্রীলঙ্কার ৮০ শতাংশের বেশি মানুষের ব্যাংক হিসাব আছে, সেখানে বাংলাদেশের মাত্র এক তৃতীয়াংশের একটু বেশি। বাংলাদেশের সবচেয়ে কাছের দেশ ভারতে এর পরিমাণ ৫৩ শতাংশ। আবার মালয়েশিয়ার প্রায় ৩১ শতাংশের বেতন হয় ব্যাংকে, বাংলাদেশের ২ শতাংশের কম। শ্রীলঙ্কার ৭ শতাংশের বেশি সরকারি-বেসরকারি কর্মীর বেতন পায় ব্যাংকের মাধ্যমে।

একইভাবে ডেবিট কার্ড ব্যবহার, সঞ্চয়, আর্থিক অন্যান্য কার্যক্রমে ব্যাংকের সঙ্গে সম্পৃক্ততা কম। এসডিজি লক্ষ্য অর্জনে ব্যাংকিং খাতের সঙ্গে আরো অর্থনৈতিক সম্পৃক্ততা বাড়াতে হবে।

সেমিনারে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন বিআইবিএমের পরিচালক (ডিএসবিএম) অধ্যাপক অধ্যাপক মো. মহিউদ্দিন সিদ্দিকী। গবেষণা দলে আরো ছিলেন- বাংলাদেশ ব্যাংকের মহাব্যবস্থাপক এবং বিআইবিএমের অনুষদ সদস্য আব্দুল কাইউম, বিআইবিএমের সহকারী অধ্যাপক তানবীর মেহদী, বিআইবিএমের সহকারী অধ্যাপক তাহমিনা রহমান ও অন্তরা জেরিন।

বাংলাদেশ ব্যাংকের প্রাক্তন ডেপুটি গভর্নর এবং বাংলাদেশ ব্যাংকের ব্যাংকিং রিফর্মস অ্যাডভাইজার সিতাংশু কুমার সুর চৌধুরী সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তব্যে বলেন, এসডিজি তথা আর্থিক অন্তর্ভুক্তির বিষয়টি বিবেচনায় স্কুল ব্যাংকিং, কৃষকের ১০ টাকার হিসাব এবং এজেন্ট ব্যাংকিং চালু করেছে বাংলাদেশ ব্যাংক। যা ব্যাংকিং খাতের সঙ্গে মানুষের সম্পৃক্ততা বাড়িয়েছে। এ সম্পৃক্ততা এসডিজি অর্জনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে। ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্প যাতে পর্যাপ্ত ঋণ সেদিকেও নজর দিচ্ছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক।

বিআইবিএমের চেয়ার প্রফেসর এবং ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থনীতি বিভাগের প্রাক্তন অধ্যাপক ড. বরকত-এ-খোদা বলেন, অর্থনীতিতে দুর্নীতির কারণে জিডিপির ২ শতাংশ ক্ষতি হয়। আর যানজটের কারণে ক্ষতি আরো ২ শতাংশ। এ দুটি বন্ধ হলে জিডিপি ৪ শতাংশ বেড়ে দাঁড়াবে ১১ শতাংশের বেশি। এদিক বিবেচনায় এসডিজি লক্ষ্য অর্জনে দুর্নীতি এবং যানজট কমিয়ে আনতে হবে।



রাইজিংবিডি/ঢাকা/৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮/নাসির/রফিক

Walton AC
ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন
       

Walton AC
Marcel Fridge