ঢাকা, সোমবার, ১১ বৈশাখ ১৪২৪, ২৪ এপ্রিল ২০১৭
Risingbd
সর্বশেষ:

বোয়িং বিমানই তার বাড়ি!

আহমেদ শরীফ : রাইজিংবিডি ডট কম
 
   
প্রকাশ: ২০১৭-০৪-০৭ ১০:৪২:২৫ এএম     ||     আপডেট: ২০১৭-০৪-০৭ ২:০৯:০০ পিএম

আহমেদ শরীফ : নিজের একটি প্রাসাদের মতো বিশাল বাড়ি থাকবে, এ স্বপ্ন প্রায় সব মানুষ দেখেন। তবে একটি পুরো বোয়িং বিমানকেই নিজের বাসা বানিয়ে ফেলার স্বপ্ন সবাই দেখেন না।

ব্রুস ক্যাম্পবেল সেই স্বপ্ন দেখেছেন। তাই একটি পরিত্যক্ত বোয়িং সেভেন টু সেভেন বিমানকেই নিজের স্বপ্নের বাড়ি হিসেবে গড়ে তুলেছেন।

 



তিনটি ইঞ্জিনের বিশাল এই বিমানটি কংক্রিটের পিলারের ওপর দাঁড় করানো হয়েছে। আমেরিকার ওরেগন প্রদেশের পোর্টল্যান্ডে একটি বন জঙ্গলে ঘেরা এলাকায় আছে ব্রুসের এই বোয়িং বিমান বাড়িটি। দূর থেকে এটি একটি বিমান বলেই ভুল করবেন যে কেউ।

আগে একজন ইলেকট্রিক্যাল ইঞ্জিনিয়ার ছিলেন ব্রুস। তার ওই বিমানের ভেতর একটি শাওয়ার আছে। তবে পরিপূর্ণ একটি টয়লেট তৈরির কাজ চলছে।

 



এ ছাড়া সিট ও লাইটসহ বিমানের আসল কিছু অংশ আবারো সংযুক্ত করার কাজ করছেন তিনি। বিমানের সব যন্ত্রাংশ ঠিক রেখেই বাড়ির আবহ তৈরির চেষ্টা করছেন ব্রুস।

এ ধরনের অদ্ভুত ইচ্ছের ব্যাপারে জানাতে গিয়ে ব্রুস বলেন, ‘এটা একটা বিশাল খেলনার মতো। এর দরজা, ইন্টেরিয়র, ভেতর ও বাইরের লাইট, সব কিছু মিলে মনে হয় স্টার ট্রেক ছবির শুটিং স্পটে আছি আমি। বিমানটির ভেতরে থাকা সব সময়ের জন্য একটা অ্যাডভেঞ্চার মনে হয় আমার কাছে।’

 



বছরের ছয় মাস সময় ব্রুস তার এই বিমান বাড়িতে থাকেন। আর ছয় মাস তিনি জাপানে কাটান। সেখানে আরেকটি পরিত্যক্ত বোয়িং সেভেন ফোর সেভেন বিমান কেনার চেষ্টায় আছেন তিনি। একইভাবে সেটিকেও নিজের বাড়ি বানানোর ইচ্ছে আছে তার।

 



ওরেগনের ১০ একর এলাকার জায়গায় যেখানে বর্তমানে বোয়িং বিমানটি আছে, সেটি কিনতে ব্রুসের ১৯৯৯ সালে  ১ লাখ ডলার খরচ হয়েছিল। পরে একে পোর্টল্যান্ডে নিয়ে গিয়ে সেখানে রাখতে ও সংস্কার কাজ করতে আরো ১ লাখ ২০ হাজার ডলার খরচ হয় তার।



রাইজিংবিডি/ঢাকা/৭ এপ্রিল ২০১৭/আহমেদ শরীফ/উজ্জল/সাইফুল

Walton Laptop