ঢাকা, বুধবার, ১৩ বৈশাখ ১৪২৪, ২৬ এপ্রিল ২০১৭
Risingbd
Risingbd
সর্বশেষ:

প্যানিক অ্যাটাক নাকি হার্ট অ্যাটাক?

মনিরুল হক ফিরোজ : রাইজিংবিডি ডট কম
 
   
প্রকাশ: ২০১৭-০৪-২১ ১:৫৯:৪৯ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৭-০৪-২১ ৬:৩২:৪৭ পিএম
প্রতীকী ছবি

দেহঘড়ি ডেস্ক : প্যানিক অ্যাটাক এবং হার্ট অ্যাটাকের লক্ষণগুলো প্রায় একই। তাই প্যানিক অ্যাটাককে অনেকে হার্ট অ্যাটাক হিসেবে গ্রহণ করে।

এর প্রধান কারণ- উভয় ক্ষেত্রে, ব্যক্তি বুকের ব্যথা অনুভব করে। তবে প্যানিক অ্যাটাক, হৃৎপিণ্ডের অসুখের মতো মারাত্মক নয়। তাই দুই অ্যাটাকের মধ্যে পার্থক্যটা জানাটা জরুরি।

হার্ট অ্যাটাকের লক্ষণ:

* বুকে ব্যথা বাড়তেই থাকে, কয়েক মিনিটের মধ্যে তীব্রতায় রূপ নেয়।

* বুক ভার হয়ে আসে এবং পুরো বুকে ছড়িয়ে পড়ে।

* বুক থেকে ব্যথা শরীরের অন্যান্য অংশে- হাত, পেট, পিঠ, কাঁধ, ঘাড় এবং চোয়ালে ছড়িয়ে পড়ে।   

* শারীরিক পরিশ্রমের সময় বুকে ব্যথা হয়।

* শ্বাসকষ্ট

প্যানিক অ্যাটাকের লক্ষণ:

* বুক ধড়ফড়

* বুকে ব্যথা অনুভব, যা ৫-১০ সেকেন্ডের জন্য থাকে।

* ব্যথা এক জায়গায় স্থায়ী হয়েছে বলে মনে হয়।

* ব্যথা সাধারণত আরো বাকি রয়েছে বলে অনুভূত হয়।

* ব্যথা উদ্বেগ দ্বারা অনুষঙ্গী হয়।

* পজিশনের পরিবর্তনে ব্যথা দুর্বল হয়।

* ব্যথা স্থানে চাপ দিলে ব্যথা বৃদ্ধি বা পুনরাবৃত্তি অনুভব হয়।

এছাড়া আরো কিছু লক্ষণ রয়েছে প্যানিক এবং হার্ট অ্যাটাকের মধ্যে। উভয় ক্ষেত্রে লক্ষণ কাছাকাছি হলেও, হার্ট অ্যাটাক হচ্ছে শারীরিক রোগ আর প্যানিক অ্যাটাক মানসিক রোগ। হার্টের সমস্যার ভয় থেকেই প্যানিক অ্যাটাকে ভোগে অনেকে। এছাড়া এ রোগে আক্রান্তরা হয়তো কোনো কারণ ছাড়া উদ্বিগ্ন হয়ে যায় এবং নিদির্ষ্ট কোনো পরিস্থিতিতে পড়লে প্রচণ্ড আতঙ্কগ্রস্ত হয়ে পড়ে। হৃদরোগ বিশেষজ্ঞরা প্যানিক অ্যাটাকের রোগীদের তাই মানসিক বিশেষজ্ঞের কাছে চিকিৎসার সেবার জন্য পরামর্শ দিয়ে থাকেন।


তথ্যসূত্র : লিফটার



রাইজিংবিডি/ঢাকা/২১ এপ্রিল ২০১৭/ফিরোজ

Walton Laptop