ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৬ আষাঢ় ১৪২৬, ২০ জুন ২০১৯
Risingbd
সর্বশেষ:

‘গোপন’ চুক্তি ফাঁস করলেন ট্রাম্প নিজেই

শাহেদ হোসেন : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০১৯-০৬-১২ ১:০০:৩৮ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৯-০৬-১২ ৭:৩৭:৩৯ পিএম
Walton AC 10% Discount

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : মেক্সিকোর সঙ্গে করা ‘গোপন’ অভিবাসী চুক্তির কিছু অংশ অসাবধানতাবশত প্রকাশ করে ফেলেছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। মঙ্গলবার সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে চুক্তির তথ্য থাকা একটি কাগজ তুলে ধরলে সাংবাদিকরা সেটির ছবি তোলেন। এতেই প্রকাশ হয়ে পড়ে ওই চুক্তির কিছু অংশ।

অবৈধ অভিবাসী যুক্তরাষ্ট্রে প্রবেশ করার জন্য মেক্সিকোকে দায়ী করে আসছেন ডোনাল্ড ট্রাম্প। সম্প্রতি মেক্সিকো সীমান্ত দিয়ে অভিবাসীদের যুক্তরাষ্ট্রে অনুপ্রবেশ বেড়ে যাওয়ায় ট্রাম্প মেক্সিকোর পণ্যের ওপর অতিরিক্ত শুল্ক আরোপের হুমকি দেন এবং গত মাসে প্রথম ধাপে এটি কার্যকরও হয়। এর পরিপ্রেক্ষিতে গত সপ্তাহে অভিবাসী ঠেকাতে মেক্সিকো ও যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যে একটি চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়। চুক্তির শর্ত না জানালেও প্রাথমিকভাবে জানানো হয়, অনিয়মিত অভিবাসী ও মানবপাচার ঠেকাতে মেক্সিকো ‘নজিরবিহীন’ পদক্ষেপ নেবে। চুক্তির আওতায় মেক্সিকো সরকার তাদের ন্যাশনাল গার্ড বাহিনীর ছয় হাজার সদস্যকে সোমবার থেকে যুক্তরাষ্ট্রের সীমান্তে মোতায়েন শুরু করবে।

মঙ্গলবার সাংবাদিকরা ট্রাম্পের কাছে চুক্তির শর্ত এবং এ বিষয়ে বিস্তারিত জানতে চাইলে তিনি একে ‘গোপন’ দাবি করে বিস্তারিত আলোচনায় অস্বীকৃতি জানান। তবে এ সময় তিনি তার হাতে থাকা একটি কাগজ নাড়ছিলেন। বার্তা সংস্থা রয়টার্সের তোলা ছবিতে দেখা গেছে, ওই কাগজটিতে চু্ক্তির শর্ত লেখা রয়েছে।

ছবিটি বিশ্লেষণ করে দেখা গেছে, চুক্তিতে মেক্সিকোকে ‘নিরাপদ তৃতীয় দেশ’ হিসেবে উল্লেখ করা হয়েছে। অবশ্য এ বিষয়টি এর আগেই সোমবার মেক্সিকোর পররাষ্ট্রমন্ত্রী প্রকাশ করেছেন।

বিবিসি জানিয়েছে, মেক্সিকোকে তৃতীয় দেশ হিসেবে নির্ধারণ করা হলে অভিবাসীদের আবেদন প্রক্রিয়া আর যুক্তরাষ্ট্রে প্রবেশ করার পর করা হবে না। বরং মেক্সিকো দিয়ে প্রবেশকারী অভিবাসীদের মেক্সিকোতেই আবেদন প্রক্রিয়া শেষ করতে হবে।

ট্রাম্পের হাতে থাকা ওই নথিতে আরো বলা হয়েছে, নিরাপদ তৃতীয় দেশ হওয়ার জন্য মেক্সিকো দ্রুত তাদের আইন পর্যালোচনা ও পরীক্ষা করার প্রতিশ্রুতি দিয়েছে।



রাইজিংবিডি/ঢাকা/১২ জুন ২০১৯/শাহেদ/শাহনেওয়াজ

Walton AC
     
Walton AC
Marcel Fridge