ঢাকা, সোমবার, ৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৪, ২০ নভেম্বর ২০১৭
Risingbd
সর্বশেষ:

জাহাঙ্গীর হত্যা মামলার রায়ের তারিখ

মামুন খান : রাইজিংবিডি ডট কম
 
   
প্রকাশ: ২০১৭-১০-১৯ ৮:৩০:২৪ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৭-১০-১৯ ৮:৩০:২৪ পিএম

নিজস্ব প্রতিবেদক : রাজধানীর বিমানবন্দরের কাওলার সিভিল অ্যাভিয়েশনের স্টাফ কোয়ার্টারে নিজ বাসায় খুন হওয়া ড্রাইভার জাহাঙ্গীর হোসেন হত্যা মামলায় রায় ঘোষণার তারিখ ১ নভেম্বর ধার্য করেছেন আদালত।

বৃহস্পতিবার মামলার যুক্তিতর্কের শুনানি শেষে ঢাকার বিশেষ জজ আদালত-৭ এর বিচারক মুন্সি রাফিউল আলম রায়ের জন্য এদিন ধার্য করেন।

এদিন জামিনে থাকা তিন আসামি নিহতের স্ত্রী মুক্তা জাহান, তার কথিত প্রেমিক জসিম উদ্দিন ও জসিমের সহযোগী মাহবুব রহমানের জামিন বাতিল করে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

রায় ঘোষণা আগে অভিযোগপত্রে ২৪ জন সাক্ষীর মধ্যে ১৯ জনের সাক্ষ্যগ্রহণ করেছেন আদালত। সাক্ষীর তালিকায় রয়েছেন নিহত জাহাঙ্গীর এবং প্রধান আসামি মুক্তা জাহানের ৯ম শ্রেণিতে পড়ুয়া মেয়ে এমি, ৭ম শ্রেণি পড়ুয়া ছেলে মাশরাফি রাব্বানি, ঢাকা মেডিক্যাল কলেজের ফরেনসিক বিভাগের তৎকালীন প্রধান ডা. কাজী গোলাম মোখলেছুর রহমান প্রমুখ।

২০১৪ সালের ১৮ নভেম্বর নিহতের কিশোরী মেয়ে এ্যামি জাহান (১৬) ও একমাত্র ছেলে মাশরাফি রাব্বানী (১২) তার মায়ের বিরুদ্ধে আদালতে সাক্ষ্য দেন।

প্রসঙ্গত, ২০১১ সালের ১৩ আগস্ট বিমানবন্দর থানাধীন কাওলা সিভিল অ্যাভিয়েশনের স্টাফ কোয়ার্টারের নিজ বাসায় খুন হন ড্রাইভার জাহাঙ্গীর হোসেন। পরের দিন ওই ঘটনায় নিহতের খালাতো ভাই মো. আবদুল লতিফ বাদী হয়ে বিমানবন্দর থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। মামলা দায়েরের পর পরই গ্রেপ্তার হন নিহতের স্ত্রী মুক্তা জাহান। গ্রেপ্তার করে ওইদিন তাকে আদালতে হাজির করা হলে সে ঢাকার হাকিম আদালতে ফৌজদারি কার্যবিধির ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেন। জবানবন্দিতে মুক্তা পরকীয়া প্রেমের জের ধরে স্বামীকে খুন হওয়ার কথা জানান। মামলার তদন্ত শেষে ২০১৩ সালের ২৬ জানুয়ারি নিহতের স্ত্রী মুক্তা জাহান, তার কথিত প্রেমিক জসিম উদ্দিন ও জসিমের সহযোগী মাহবুবকে আসামি করে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করে পুলিশ।

অভিযোগপত্রেও পরকীয়া প্রেমের জেরে হত্যাকাণ্ডের কথা উল্লেখ করা হয়। এরপর আদালত ওই তিন আসামির বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করেন।




রাইজিংবিডি/ঢাক/১৯ অক্টোবর ২০১৭/মামুন খান/সাইফ

Walton
 
   
Marcel