ঢাকা, রবিবার, ৪ ভাদ্র ১৪২৫, ১৯ আগস্ট ২০১৮
Risingbd
শোকাবহ অগাস্ট
সর্বশেষ:

মুশফিককে জাপা থেকে বহিষ্কার

মোহাম্মদ নঈমুদ্দীন : রাইজিংবিডি ডট কম
 
     
প্রকাশ: ২০১৮-০৫-১৭ ১০:১৭:৩৭ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৮-০৬-০৪ ৯:৫৫:২০ এএম

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক : খুলনা সিটি করপোরেশন নির্বাচনে অংশ নেওয়া জাতীয় পার্টির মেয়র পদপ্রার্থী এস এম মুশফিকুর রহমানকে দল থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে।

নির্বাচনে অল্প ভোট পেয়ে দলের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন করায় ক্ষুব্ধ হয়ে জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ বৃহস্পতিবার এ সিদ্ধান্ত নেন। বহিষ্কারের চিঠি তার বরাবরে ডাকযোগে পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে।

পার্টির চেয়ারম্যানের স্বাক্ষরিত চিঠিতে বলা হয়, জাতীয় পার্টির গঠনতন্ত্র প্রদত্ত ক্ষমতাবলে মুশফিকুর রহমানকে দলের প্রাথমিক সদস্য পদসহ সকল পদ ও দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে।

নির্বাচনের ফলাফল দেখে ক্ষুব্ধ হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ এর আগে খুলনা মহানগর জাপার কমিটি ভেঙে দেন। ওই কমিটির সভাপতি ছিলেন জাতীয় পার্টির প্রভাবশালী প্রেসিডিয়াম সদস্য ও চেয়ারম্যানের প্রেস অ্যান্ড পলিটিক্যাল সেক্রেটারি সুনীল শুভরায়।

স্বেচ্ছাসেবক পার্টি থেকে জাতীয় পার্টিতে যোগ দেওয়া মুশফিকু রহমান খুলনা অঞ্চলে বিতর্কিত ব্যক্তি হিসেবে পরিচিত। তার বিরুদ্ধে হত্যা, খুনসহ বিভিন্ন মামলা রয়েছে। এমন একজন বিতর্কিত ব্যক্তিকে মেয়র পদপ্রার্থী করায় প্রতিবাদে ক্ষোভে অভিমানে দলের অনেক ত্যাগী নেতাকর্মী সংবাদ সম্মেলন করে জাতীয় পার্টি থেকে গণপদত্যাগ করেন। পার্টির চেয়ারম্যানের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে কথা না বললেও এ বিষয়টি পার্টির ওই অঞ্চলের নেতাকর্মী-সমর্থকরাও ভালো চোখে দেখেননি। ফলে যা হবার তাই হয়েছে। নির্বাচনে নেতাকর্মী-সমর্থকরা জাপার মেয়র পদপ্রার্থীর জন্য কাজ তো করেননি, এমনকি অনেকেই ভোটও দেননি। নির্বাচন শেষে জাতীয় পার্টির প্রার্থীর ফলাফল দেখে দলের চেয়ারম্যানসহ শীর্ষ নেতারা হতবাক হয়ে যান। বিতর্কিত মুশফিকুর রহমানকে যিনি মেয়র প্রার্থী করাতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখেন তার ওপর ক্ষুব্ধ হন হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ। ক্ষোভে এক পর্যায়ে তিনি খুলনা মহানগর কমিটি বাতিল করে মুশফিকুর রহমানকেও দল থেকে বহিষ্কার করেন।



রাইজিংবিডি/ঢাকা/১৭ মে ২০১৮/নঈমুদ্দীন/রফিক

Walton Laptop
 
     
Walton