ঢাকা, শনিবার, ১১ ফাল্গুন ১৪২৫, ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৯
Risingbd
সর্বশেষ:

উর্বরতা সম্পর্কে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য (শেষ পর্ব)

এস এম গল্প ইকবাল : রাইজিংবিডি ডট কম
 
     
প্রকাশ: ২০১৯-০২-০৫ ৮:৩৯:১০ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৯-০২-০৫ ৮:৪০:৫৪ পিএম
প্রতীকী ছবি

এস এম গল্প ইকবাল : আপনি কি গর্ভধারণের চেষ্টা চালাচ্ছেন? অথবা আগামী কয়েক বছরের মধ্যে বাচ্চা নেওয়ার কথা ভাবছেন? এটা স্বাভাবিক যে সন্তান নিতে ইচ্ছুক প্রত্যেক নারীরই উর্বরতা বা গর্ভধারণ সম্পর্কে জানতে আগ্রহ থাকে। উর্বরতা সম্পর্কে ১১টি বিস্ময়কর তথ্য নিয়ে দুই পর্বের প্রতিবেদনের আজ থাকছে শেষ পর্ব।

* বন্ধ্যাত্বের অনেক কারণ দমনযোগ্য
যদি আপনি স্ত্রীরোগ বিশেষজ্ঞের অফিসে আপনার উর্বরতার সমস্যা শুনেন, তাহলে ভেঙ্গে পড়বেন না- শান্ত থাকুন। ফার্টিলিটি ক্লিনিক সিসিআরএম-নিউ ইয়র্কের ফাউন্ডিং পার্টনার এবং প্র্যাকটিস ডিরেক্টর ব্রায়ান লেভিন বলেন, শুনতে ভীতিকর হলেও অনুর্বরতার অনেক কারণকে সহজে রিভার্স বা দমন করা যায় এবং সাধারণ সার্জারির মাধ্যমে এসব সমস্যার সমাধান করা যায়। বন্ধ্যাত্বের কিছু কারণ হচ্ছে- ফ্যালোপিয়ান টিউবে ব্লক, জরায়ুতে ফাইব্রোয়েড (একপ্রকার বিনাইন টিউমার), ডিম্বাশয়ে সিস্ট ও থাইরয়েড অস্বাভাবিকতা। প্রসিডিউরের পর অধিকাংশ নারী নিজে নিজে গর্ভবতী হতে পারে অথবা আইভিএফ ট্রিটমেন্টের সহায়তায়, ডা. লেভিন বলেন।

* ডিম্বাণু হিমায়িতকরণ একটি ভালো অপশন, কিন্তু এটি অব্যর্থ নয়
আপনার উর্বরতা সংরক্ষণের একটি ভালো অপশন হচ্ছে ডিম্বাণু হিমায়িতকরণ। ফার্টিলিটি ক্লিনিকের ওপর ভিত্তি করে খরচ ভিন্ন হতে পারে। অধিকাংশ সময় রোগীরা যত বেশি সম্ভব ডিম্বাণু সংরক্ষণ করতে চান। ডা. লেভিন বলেন, আপনি যত কম বয়সে ডিম্বাণু হিমায়িত করবেন, আপনার সফলতার সম্ভাবনা তত বেড়ে যাবে। যে নারী ৩০ বছর বয়সে ডিম্বাণু হিমায়িত করেন, তিনি ১০ থেকে ২০টি ফ্রোজেন ওসাইট পেতে পারেন। অল্প বয়সে ডিম্বাণু সংরক্ষণ, জীবনে পরবর্তীতে মাল্টিপল চক্রের সময় ডিম্বাণু হিমায়িতকরণের তুলনায় সুলভ। তবে এটাও উল্লেখ করা গুরুত্বপূর্ণ যে, এসব হিমায়িত ডিম্বাণুকে বরফমুক্ত করে ব্যবহার করে সফল হওয়া যাবে এমন কোনো গ্যারান্টি নেই। কিন্তু অনেক নারীর জন্য এ পদ্ধতি শুধু শারীরিক নয়, মানসিক ভরসাও হতে পারে যে একদিন তাদের পরিবার হবে।

* গর্ভধারণ পরিকল্পনা বাস্তবায়নের জন্য প্রতিদিন সহবাসের প্রয়োজন নেই
যদিও এটি সাংঘর্ষিক মনে হতে পারে যে গর্ভধারণের জন্য প্রতিদিন সঙ্গীর সঙ্গে যৌনমিলনের প্রয়োজন নেই। আসলেই তাই। দম্পতিদের সেই সংক্ষিপ্ত সময়ের সর্বোত্তম ব্যবহার করা উচিৎ, যখন ফার্টিলিটি উইন্ডো বা উর্বরতার দরজা খুব বিস্তৃতভাবে খোলা থাকে।  অরিগন হেলথ অ্যান্ড সায়েন্স ইউনিভার্সিটির অবস্টেট্রিকস অ্যান্ড গাইনিকোলজির অ্যাসোসিয়েট প্রফেসর পাউলা আমাটো বলেন, ফার্টিলিটি উইন্ডোর এই সময়টা হচ্ছে সাধারণত ওভিউলেশন বা ডিম্বস্ফোটনের ৫ দিন পূর্বে থেকে ডিম্বস্ফোটনের কাছাকাছি সময়। ডিম্বস্ফোটন সাধারণ মাসিক শুরু হওয়ার প্রায় ১৪ দিন পূর্বে হয়ে থাকে। দম্পতিদের ফার্টিলিটি উইন্ডোর সময় প্রতি ১-২ দিনে সহবাস করা উচিৎ।’

* ওভিউলেশন প্রেডিক্টর কিট সহায়ক হতে পারে
ছয়মাস ধরে গর্ভধারণের চেষ্টা করছেন এবং আপনার অবস্থা জানতে আগ্রহী? ডাক্তারের কাছে গেলেও তিনি শুধু আপনাকে আরো কয়েক মাস চেষ্টা করার জন্য পরামর্শ দেবেন। তাই আপনি ঘরে ওভিউলেশন প্রেডিক্টর টেস্ট করতে পারেন, বলেন ইয়েল মেডিক্যাল স্কুলের অবস্টেট্রিকস, গাইনিকোলজি অ্যান্ড রিপ্রোডাক্টিভ সায়েন্সের ক্লিনিক্যাল প্রফেসর মেরি জ্যান মিনকিন। তিনি যোগ করেন, ‘আমি সাধারণত ফার্স্ট রেসপন্স প্রোডাক্ট ব্যবহার করি- এসব ব্যবহার করতে সহজ এবং সম্পূর্ণ নির্ভুল। যদি আপনার ওভিউলেশন প্রেডিক্টর কিট বলে যে আপনার ডিম্বস্ফোটন হচ্ছে না, তাহলে গাইনিকোলজিস্টের সঙ্গে দেখা করুন। যদি আপনার ডিম্বস্ফোটন হয়, তাহলে গর্ভধারণ করতে উর্বর সময়ের সর্বোত্তম ব্যবহার করুন।’

* এসটিআই স্থায়ী প্রভাব ফেলতে পারে
সেক্সুয়ালি ট্রান্সমিটেড ইনফেকশন (এসটিআই) বা যৌনবাহিত সংক্রমণ থেকে রক্ষা পেতে নিরাপদ যৌনচর্চার পরামর্শ দেওয়া হয়। এসটিআই (যেমন- গনোরিয়া বা ক্ল্যামাইডিয়া) ফ্যালোপিয়ান টিউবে (যা জরায়ুতে ডিম্বাণু নিয়ে আসে) স্থায়ী ড্যামেজ সৃষ্টি করতে পারে। একারণে আপনি যখন গর্ভধারণ প্রচেষ্টার প্রক্রিয়া শুরু করবেন, আপনার গাইনিকোলজিস্টকে আপনার মেডিক্যাল ইতিহাস সম্পর্কে জানান, যাতে তিনি যথাসম্ভব আপনাকে সেবা দিতে পারেন।

* ওজন নিয়ন্ত্রণে রাখুন ও ভিটামিন গ্রহণ করুন
যদি আপনার নিয়মিত এক্সারসাইজ করতে ভালো না লাগে এবং স্বাস্থ্যকর খাবারের তুলনায় প্রক্রিয়াজাত খাবার খাওয়ার প্রবণতা থাকে, তাহলে স্মরণ করুন যে আপনার লাইফস্টাইল একদিন আপনার গর্ভধারণ ক্ষমতার ওপর বড় প্রভাব ফেলবে। যেসব নারীর ওজন অত্যধিক কিংবা অত্যল্প তাদের উভয়েরই গর্ভধারণ করতে সমস্যা হতে পারে, তাই উচ্চতা অনুসারে ভারসাম্যপূর্ণ ওজন বজায় রাখতে হবে, বলেন ইয়েল মেডিক্যাল স্কুলের অবস্টেট্রিকস, গাইনোকোলজি এবং রিপ্রোডাক্টিভ সায়েন্সের ক্লিনিক্যাল প্রফেসর মেরি জেন মিনকিন। ডা. আমাটো বলেন, ‘গর্ভধারণ প্রচেষ্টার পূর্বে কোনো নারীকে নিশ্চিত হতে হবে যে তিনি সুস্থ, প্রয়োজনীয় টিকা নেওয়া হয়েছে এবং এবং প্রিনাটাল ভিটামিন খাওয়া হচ্ছে। ধূমপান, অত্যধিক অ্যালকোহল পান, অত্যধিক কফি পান এবং রিক্রিয়েশনাল ড্রাগের (যেমন- মারিজুয়ানা) ব্যবহারের সঙ্গে উর্বরতা কমে যাওয়ার সম্পর্ক রয়েছে।’

তথ্যসূত্র : রিডার্স ডাইজেস্ট

আরো পড়ুন :
* উর্বরতা সম্পর্কে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য (প্রথম পর্ব)
* যেসব বিষয় আপনার উর্বরতাকে ক্ষতিগ্রস্ত করে
* গর্ভধারণে ব্যর্থতার ১০ বিস্ময়কর কারণ
* বারবার মিসক্যারেজের জন্য পুরুষও দায়ী!
বাবা হতে মেনে চলুন ১৩ বিষয়​
জন্মনিয়ন্ত্রণের কোন পদ্ধতি কেমন সফল​
স্পার্ম কাউন্ট বাড়ানোর ৬ উপায়​




রাইজিংবিডি/ঢাকা/৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৯/ফিরোজ

Walton Laptop