ঢাকা, মঙ্গলবার, ১২ চৈত্র ১৪২৫, ২৬ মার্চ ২০১৯
Risingbd
সর্বশেষ:

জয়ে বছর শেষ করতে চান মাশরাফি

ইয়াসিন : রাইজিংবিডি ডট কম
 
     
প্রকাশ: ২০১৮-১২-১৩ ৬:৪৩:২০ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৮-১২-১৯ ৬:৫৭:১৭ পিএম

ক্রীড়া প্রতিবেদক, সিলেট থেকে : ওয়ানডেতে আরেকটি দারুণ বছরের সমাপ্তি টানার অপেক্ষায় বাংলাদেশ ক্রিকেট দল।

চলতি বছর ওয়ানডেতে বাংলাদেশের পারফরম্যান্স নজরকাড়া। ১৯ ওয়ানডের মধ্যে জিতেছে ১২টি। ইংল্যান্ড, ভারত ও আফগানিস্তানের পর বাংলাদেশের অবস্থান। আফগানিস্তান ২০ ম্যাচে জিতেছে ১২টিতে। বাংলাদেশ এক ম্যাচ কম খেলে আফগানিস্তানের পাশে।

আফগানিস্তানের বেশিরভাগ জয় জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে। জয় আছে আয়ারল্যান্ড, ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও শ্রীলঙ্কার বিপক্ষেও। আবার হারের তিক্ত স্বাদ পেয়েছে হংকং এবং স্কটল্যান্ডের কাছে। সেখানে বাংলাদেশের বেশিরভাগ জয়ই বড় দলের বিপক্ষে। নিঃসন্দেহে বাংলাদেশই এগিয়ে। নিজেদের এ পারফরম্যান্স আরো একধাপ ‍ওপরে নিয়ে যাওয়ার সুযোগ টাইগারদের সামনে।

ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে বাংলাদেশের শেষ ওয়ানডে শুক্রবার। যেকোনো মূল্যে জয় দিয়ে বছর শেষ করতে চান বাংলাদেশ অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা, ‘জয় দিয়ে শেষ করতে পারলে ভালো হবে। প্রথম ম্যাচের পর বলেছিলাম, এ বছরের জয়ের হার বেশ ভালো। তাই জয় দিয়ে শেষ করতে পারলে খুব ভালো হবে। সব মিলিয়ে আমার কাছে মনে হয় আমাদের ওয়ানডে ফরম্যাট বেশ ভালো গিয়েছে। শেষটাও জয়ী দল হিসেবে থাকতে পারলে ভালো হবে।’

২০১৫ সালকে বলা হয় বাংলাদেশ ক্রিকেটের সোনালি অধ্যায়। সেবার ১৮ ওয়ানডের ১৩টিই জিতেছিল বাংলাদেশ। ঘরের মাঠে জিতেছিল চার সিরিজ। পাকিস্তান, ভারত, দক্ষিণ আফ্রিকা ও জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে সিরিজ জেতে বাংলাদেশ। চলতি বছর বাংলাদেশ এরই মধ্যে জিতেছে দুই সিরিজ। ওয়েস্ট ইন্ডিজকে তাদের মাটিতে ২-১ ব্যবধানে হারানোর পর বাংলাদেশ ঘরের মাঠে জিম্বাবুয়েকে হোয়াইটওয়াশ করে। এবার বছরের শেষে আরেকটি সিরিজ জয়ের হাতছানি।

সিরিজ জিততে মরিয়া মাশরাফি, ‘সিরিজ জিততে আমাদের সেরা ক্রিকেটটা খেলতে হবে। যদিও ম্যাচটি ডু অর ডাই পজিশন। এরকম ম্যাচ আমরা আগেও জিতেছি। সেই আত্মবিশ্বাস আমাদের কাজে লাগবে।’

সিলেটে শেষ ম্যাচটি জিতে বাংলাদেশ বছরটা রাঙাতে চায়। জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে জয় দিয়েই বছর শুরু করেছিল। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে এটাই শেষ ম্যাচ। শেষ ম্যাচটি জিততে পারলে ভালো আত্মবিশ্বাস নিয়ে পরের বছর শুরু করতে পারবে টিম বাংলাদেশ।

‘এ ম্যাচটা জিততে পারলে পরবর্তী সিরিজে আমাদের আত্মবিশ্বাস ভালো থাকবে। টি-টোয়েন্টি যে সিরিজটি হবে, সেটাতে অনেক সাহায্য করবে। পরবর্তীতে নিউজিল্যান্ড সফর আছে। যদিও ফরম্যাট আলাদা থাকবে। স্পোর্টসে যেটা হয় আসলে, আত্মবিশ্বাস তৈরি হয় আপনি উইনিং বা লুসিং সাইড আছেন সেটার ওপর। তাই আত্মবিশ্বাস খুব গুরুত্বপূর্ণ।’’




রাইজিংবিডি/সিলেট/১৩ ডিসেম্বর ২০১৮/ইয়াসিন/পরাগ

Walton Laptop
 
     
Walton AC