ঢাকা, বুধবার, ৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬, ২২ মে ২০১৯
Risingbd
সর্বশেষ:

চার নম্বরে ব্যাট করতে চেয়েছিলেন রাসেল

শামীম হোসেন পাটোয়ারি : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০১৯-০৪-২০ ১:১৩:৫১ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৯-০৪-২০ ৫:০৪:৪৪ পিএম

ক্রীড়া ডেস্ক: বিরাট কোহলির সেঞ্চুরিতে ইডেন গার্ডেনে গতকাল ২১৩ রানের বিশাল পুঁজি পেয়েছিল রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরু। সেই লক্ষ্য তাড়ায় আন্দ্রে রাসেলের টর্নেডো ইনিংসে দলীয় দুইশ পার করলেও জয় পায়নি কালকাতা নাইট রাইডার্স।

২১৪ রানের লক্ষ্যে খেলতে নেমে দলের হয়ে চার নম্বরে ব্যাট করতে চেয়েছিলেন রাসেল। তা হলে বেঙ্গালুরুর বিপক্ষে ভিন্ন পরিস্থিতি হতে পারত বলে মনে করেন উইন্ডিজ এ ব্যাটিং দানব।

রান তাড়ায় খেলতে নেমে শুরু থেকেই স্লো ইনিংস খেলতে থাকেন কলকাতার ব্যাটসম্যানরা। শেষ পর্যন্ত তাই নীতিশ রানা ও আন্দ্রে রাসেলের লড়াইও কাজে লাগল না। ছয়ে ব্যাট করতে রাসেল ঝড় তুললেও ম্যাচটা ১০ রানে হারতে হল কলকাতাকে।

ম্যাচ শেষে তাই ক্ষোভের কথা জানাতে গিয়ে রাসেল বলেন, ‘পরিস্থিতি বুঝে অনেক সময় ব্যাটিং অর্ডারে পরিবর্তন আনা উচিত। চার নম্বরে আমি নামলে পরিস্থিতি অন্যরকম হতে পারত। আমি যখন নামলাম তখন জেতার জন্য প্রতি ওভারে ১৫-১৬ রান করে প্রয়োজন ছিল। এমন চাপ নিয়ে ব্যাটিং করাটা সহজ নয়। মাঝের ওভারগুলোতে আমাদের ব্যাটসম্যানরা স্লো ইনিংস খেলল। আমি চার নম্বরে ব্যাট করতে নামলে ওরা আমাকে আগে আউট করতে চাইত। যার জন্য বিরাট কোহলি ওর সেরা বোলিং অস্ত্রদের দিয়ে বোলিং করাত। এর ফলে স্টেইন বা অন্য ভাল বোলারদের নির্ধারিত ওভার শেষ হয়ে যেত। আমরা শেষের দিকে সুবিধা পেতে পারতাম।’

১০ রানের হারের আফসোস নিয়ে রাসেল বলেন, ‘টি-টোয়েন্টি ক্রিকেট এক ওভারে ম্যাচের মোড় ঘুরে যেতে পারে। এই ম্যাচের পর আত্মবিশ্বাস আরও বেড়ে গেল। আমরা যে কোন পরিস্থিতি থেকে ম্যাচ ঘোরাতে পারি। এটা বোধ হয় অনেকে বুঝেছে। আউট হওয়ার ভয় আমি পাই না। তাই হাত খুলে খেলতে পারি। দলের প্রয়োজনে আমি সব সময় সেরাটা দিতে পারি।’

কলকাতার হয়ে গতকাল ব্যাট করতে নেমে ২৫ বলে ২ চারও ৯ ছক্কায় ৬৫ রানের ঝড়ো ইনিংস খেলে রানআউট হয়েছেন রাসেল। তার সঙ্গে নীতিশ রানা ৪৬ বলে ৮৫ রানের ইনিংস খেললেও জয় পায়নি নাইটরা।




রাইজিংবিডি/ঢাকা/২০ এপ্রিল ২০১৯/শামীম

Walton Laptop
     
Walton AC
Marcel Fridge