Risingbd Online Bangla News Portal

ঢাকা     মঙ্গলবার   ০২ মার্চ ২০২১ ||  ফাল্গুন ১৭ ১৪২৭ ||  ১৭ রজব ১৪৪২

করোনা আতঙ্কে স্বস্তিতে নেই লেবানন প্রবাসীরা

জসিম উদ্দীন সরকার, লেবানন || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৬:১২, ১৭ জানুয়ারি ২০২১   আপডেট: ১৬:২১, ১৭ জানুয়ারি ২০২১
করোনা আতঙ্কে স্বস্তিতে নেই লেবানন প্রবাসীরা

দীর্ঘদিন ধরে রাজনৈতিক অস্থিরতা, অর্থনৈতিক মন্দা, ডলার সংকটসহ নানা সমস্যায় লেবানন। বৈরুত বন্দরে বিস্ফোরণের ফলে জিনিসপত্রের মূল্য বৃদ্ধি হয়েছে সাত থেকে আট গুণ। এর মধ্যে আবার করোনার প্রকোপ। এই মহামারি রোধে দফায় দফায় লকডাউন ও কারফিউ ঘোষণায়  সবমিলিয়ে দিশেহারা লেবাননে অবস্থানরত প্রবাসী বাংলাদেশিরা।

গত দুই সপ্তাহে লেবাননে প্রতিদিন ৫ হাজারের বেশি মানুষ করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। দিন দিন বাড়ছে মৃত্যুর সংখ্যা। সঠিক তথ্য না পাওয়া গেলেও প্রতিনিয়ত আক্রান্ত হচ্ছে প্রবাসীরাও। স্বস্তিতে নেই তারা।

করোনা থেকে সুস্থ হওয়া নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক বাংলাদেশি প্রবাসী বলেন, ‘পিসিআর টেস্টে করোনা পটিটিভ আসার পর চিকিৎসক পরামর্শ দেন হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকার। ১৪ দিন হোম কোয়ারেন্টাইনে থেকেছি, দুশ্চিন্তায় প্রতিটা দিন হাজার দিনের মতো মনে হতো। প্রবাসে নেই আত্মীয় স্বজন, কে খোঁজ খবর নিবে?’ শুনেছি বাংলাদেশি কয়েক ভাই করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছে। তাদের লাশটা পর্যন্ত দেশে পাঠানো হয়নি। ভাবতাম আমারও কি এমন অবস্থা হবে? কিন্তু আল্লাহর দয়ায় সুস্থ হয়েছি।’

জহুরুল ইসলাম নামে এক প্রবাসী জানান, তিনি এখন দেশে চলে গেছেন। করোনায় আক্রান্ত হবার পর মালিকের সহযোগিতায় বাসায় থেকেই প্রাথমিক চিকিৎসা নেন। এরপর সুস্থ হলে তিনি লেবানন ছেড়ে দেশে ফিরে যান। তিনি বলেন, ‘করোনায় আক্রান্ত হয়ে দেখেছি কেউ কারো আপন নয়। করোনায় আক্রান্ত হয়েছি শুনে বন্ধু বান্ধব কেউ খোঁজ খবর নেয়নি। তাই সিদ্ধান্ত নিয়েছি করোনা যেহেতু শেষ হচ্ছে না, দেশে ফিরে যাওয়াই ভালো। দেশে স্ত্রী-সন্তান তো পাশে পাব।’

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে লেবানন প্রবাসী বাংলাদেশিদের প্রধান আলোচনার বিষয় এখন করোনা। কমিউনিটির নেতৃবৃন্দ সবাইকে সতর্ক করছেন। যাদের চাকরি রয়েছে লকডাউনের কারণে তারাও অসহায় জীবনযাপন করছেন। পাশাপাশি কষ্ট বাড়িয়ে তুলছে কর্মহীনদের।

ঢাকা/মারুফ

সম্পর্কিত বিষয়:

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়