ঢাকা, মঙ্গলবার, ৭ মাঘ ১৪২৬, ২১ জানুয়ারি ২০২০
Risingbd
সর্বশেষ:

দিগন্ত বিস্তৃত হলুদ হাসি

শেখ মোহাম্মদ রতন : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০১৯-১২-১০ ৭:৪৭:২০ এএম     ||     আপডেট: ২০১৯-১২-১০ ১০:১৯:২৫ এএম

ছয় ঋতুর এই দেশে ঋতু পরিবর্তনের সাথে সাথে বদলে যায় ফসলের মাঠের চিত্র। এর ধারাবাহিকতায় একসময়ের সবুজ মাঠ হয়ে যায় হলুদ।

এবার শীতে সরিষা ফুলের নয়নাভিরাম দৃশ্য পাল্টে দিয়েছে মুন্সীগঞ্জের সিরাজদিখান উপজেলার বিভিন্ন গ্রামের ফসলের মাঠের দৃশ্য। উপজেলার বিস্তীর্ণ এলাকায় এ মৌসুমে সরিষার চাষ করা হয়েছে। চারিদিকে এখন শুধু হলুদ সরিষা ফুলের বর্ণিল সমারোহ।

মাঠজুড়ে সরিষা ফুলের মৌ মৌ গন্ধ। মৌমাছির গুন গুন শব্দে ফুলের রেণু থেকে মধু সংগ্রহ আর প্রজাপতির এক ফুল থেকে আরেক ফুলে ধেয়ে চলার অপরূপ প্রাকৃতিক দৃশ্য মনোমুগ্ধকর। সকালের মিষ্টি রোদ আর বিন্দু বিন্দু শিশির ছুঁয়ে যায় ফুলগুলোকে। সরিষা ফুলের হলুদ হাসিতে রঙিন এখন সিরাজদিখান উপজেলার বিভিন্ন ফসলের মাঠ। সরিষার ফুল যেন দিক-দিগন্ত রাঙিয়ে দিয়েছে। প্রকৃতি যেন হলদে শাড়ি পরা তরুণীর সাজে সজ্জিত হয়ে নতুন রূপে আবির্ভূত হয়েছে।

সরিষা চাষে খরচ কম, কিন্তু লাভ বেশি। ফলে কৃষকরা সরিষা চাষে আগ্রহী। এ মৌসুমে অনেক কৃষক সরিষা শাক উৎপাদন করে আর্থিকভাবে লাভবান হয়েছেন। সরিষার তেলের চাহিদা থাকে সারা বছর। তাই সারা বছরই থাকে সরিষার চাহিদা। দামও পাওয়া যায় ভালো। অনেক এলাকাতেই ধানসহ অন‌্যান‌্য ফসল চাষে খরচ বেড়ে যাওয়া এবং ন‌্যায‌্য দাম না পাওয়ায় সরিষা চাষের দিকে ঝুঁকছেন চাষীরা।

প্রতিবছর সরিষার ফলন ভালো হওয়ায় বাড়ছে সরিষার চাষাবাদ। তাই চলতি মৌসুমে পাল্টে গেছে উপজেলার দিগন্তজোড়া মাঠের চিত্রও।

সিরাজদিখান উপজেলার চিত্রকোট ইউনিয়নের কৃষক হাবিব মিয়ার সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, বর্ষার পানি নেমে যাওয়ার সাথে সাথেই তারা সরিষার বীজ বুনে থাকেন। কম সময়ে এ ফসল ঘরে তোলা যায়। যে জমিতে কৃষক সরিষা বুনেছেন, এগুলোতে একসময় প্রচুর আলু আবাদ করা হতো। কিন্ত আলুতে তেমন লাভ হচ্ছে না। তাই এখন বেশিরভাগ জমিতে সরিষা বুনেছেন তারা।

তিনি বলেন, সরিষাসহ বিভিন্ন কৃষিপণ্যের ক্ষেত্রে সরকারি পৃষ্ঠপোষকতা অব্যাহত থাকলে কৃষকরা আরো বেশি উপকৃত হতো।

এ ব্যাপারে সিরাজদিখান উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা সুবোধ চন্দ্র রায় জানান, গত বছর সিরাজদিখান উপজেলায় ১ হাজার ৯৫০ হেক্টর জমিতে সরিষার আবাদ করা হয়েছে। কম খরচে অধিক মুনাফা হওয়ায় প্রতি বছরই সরিষা চাষে কৃষকদের আগ্রহ বাড়ছে। বর্তমান মৌসুমে গত বছরের তুলনায় কিছুটা আবাদ কম হবে। তবে আমরা কৃষি অফিস থেকে কৃষকদের উচ্চ ফলনশীল সরিষা আবাদের জন্য সব সময়ই উৎসাহ দেই। উপযুক্ত বীজ নির্বাচন, সার ও কীটনাশক প্রয়োগে আমরা প্রয়োজনীয় পরামর্শ দিয়ে থাকি। এবছর আবহাওয়া অনুকূলে থাকায় সরিষার বাম্পার ফলনের সম্ভাবনা আছে।



মুন্সীগঞ্জ/ শেখ মোহাম্মদ রতন/রফিক

     
 

আরো খবর জানতে ক্লিক করুন : সিরাজগঞ্জ, রাজশাহী বিভাগ