ঢাকা, শুক্রবার, ২১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭, ০৫ জুন ২০২০
Risingbd
সর্বশেষ:

পালিয়ে এসেও শেষরক্ষা হয়নি, এলাকা লকডাউন

নোয়াখালী প্রতিনিধি : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০২০-০৪-১০ ৭:০৫:১৮ পিএম     ||     আপডেট: ২০২০-০৪-১০ ৭:০৫:১৮ পিএম

মোশাররফ হোসেন কাঞ্চন রাজধানীতে ব্যবসা ও বসবাস করতেন। তার বাসভবনের একটি ফ্ল্যাটে করোনা রোগী ধরা পড়ায় বৃহস্পতিবার ভোরে ঢাকা থেকে গোপনে পরিবার নিয়ে নোয়াখালীতে আসেন তিনি। খবর পেয়ে পুলিশ তার বাড়িসহ ওই এলাকা লকডাউন করেছে।

সুধারাম মডেল থানার পুলিশ বৃহস্পতিবার রাতে নোয়াখালী পৌরসভাধীন ওই এলাকা লকডাউন করে।

স্থানীয় ওয়ার্ড কাউন্সিলর আহসান হাবীব হাসান জানিয়েছেন, ঢাকার মগবাজারে একটি বহুতল ভবনে বাস করতেন ব্যবসায়ী কাঞ্চন। বুধবার বিকেলে ওই ভবনে এক ব্যক্তির শরীরে করোনাভাইরাস পড়ে। এ খবর পেয়ে একটি আ্যম্বুলেন্স ভাড়া করে নিজে অসুস্থ রোগী সেজে পরিবার নিয়ে নোয়াখালীর বাড়িতে আসেন কাঞ্চন। বিষয়টি স্থানীয় লোকজন তাকে অবহিত করলে তিনি সুধারাম মডেল থানা পুলিশকে জানান। পুলিশ ওই বাড়িসহ পুরো এলাকা লকডাউন করেছে।

তিনি আরো জানান, নোয়াখালী জেলা এখনো করোনাভাইরাস থেকে মুক্ত। জেলা প্রশাসক গতকাল নির্দেশ দিয়েছেন, এ জেলা থেকে কেউ বাইরে যেতে পারবেন না এবং বাইরে থেকে কেউ আসতেও পারবেন না। কিন্তু, দুঃখজনক হলেও সত্যি, এটি না মেনে অনেকে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে ফাঁকি দিয়ে যাতায়াত করছেন।

সুধারাম মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নবির উদ্দিন বলেন, ঢাকা থেকে গোপনে পরিবার নিয়ে পালিয়ে আসা ওই ব্যক্তির বাড়িসহ পুরো এলাকা লকডাউন করে লাল পতাকা উড়িয়ে দেওয়া হয়েছে। সেখানে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে, যাতে কেউ ওই বাড়িতে যেতে না পারে এবং বাড়ি থেকে কেউ বের হতে না পারে।


নোয়াখালী/সুজন/রফিক

       
 

আরো খবর জানতে ক্লিক করুন : নোয়াখালী, চট্টগ্রাম বিভাগ
ট্যাগ :