ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৪ আষাঢ় ১৪২৭, ০৯ জুলাই ২০২০
Risingbd
সর্বশেষ:

টাঙ্গাইল সদর উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান সাময়িক বরখাস্ত

নিজস্ব প্রতিবেদক : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০২০-০৫-২৯ ৪:২৯:৩৬ এএম     ||     আপডেট: ২০২০-০৫-২৯ ৪:২৯:৩৬ এএম

টাঙ্গাইল সদর উপজেলার উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তাকে (পিআইও) অফিস কক্ষে ঢুকে মারধরের ঘটনায় সদর উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান ও শহর আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক নাজমুল হুদা নবীনকে বরখাস্ত করেছে স্থানীয় সরকার বিভাগ।

বৃহস্পতিবার (২৮ মে) বিকেলে স্থানীয় সরকার বিভাগের ওয়েব সাইটে এ প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়।

স্থানীয় সরকার বিভাগের উপজেলা-২ শাখার উপ-সচিব মোহাম্মদ জরিরুল ইসলাম স্বাক্ষরিত ওই প্রজ্ঞাপনে সাময়িক বরখাস্তের বিস্তারিত কারণ তুলে ধরে এ আদেশ জনস্বার্থে জারি করা হলো এবং অবিলম্বে তা কার্যকর হবে বলে উল্লেখ করা হয়।

গত ২১ মে নাজমুল হুদা নবীনের বিরুদ্ধে উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা (পিআইও) একেএম মমিনুল হককে তার অফিস কক্ষে ঢুকে মারধর করার অভিযোগ উঠে। এ ব্যাপারে পিআইও মমিনুল নিজে বাদী হয়ে ২২ মে টাঙ্গাইল সদর থানায় নবীনসহ অজ্ঞাত আরও ৮ জনকে আসামি করে মামলা দায়ের করেন।

মামলায় পিআইও অভিযোগ করেন, ঘটনার দিন বিকেল ৫টার দিকে সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কার্যালয়ে তার অফিস কক্ষে অবস্থানকালে ভাইস চেয়ারম্যান নাজমুল হুদা ও তপু নামে তার অপর এক সহযোগীসহ আরও ৪/৫ জন ওই কক্ষে প্রবেশ করেন। তারা সরকারি কাজে বাধাদান করে অবৈধভাবে ত্রাণের কিছু স্লিপ তাকে (পিআইও) দেন। তখন পিআইও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার অনুমতি ছাড়া অবৈধভাবে ত্রাণ দিতে অস্বীকার করেন। এতে তারা ক্ষিপ্ত হয়ে অফিসের দরজা বন্ধ করে দিয়ে অশ্লীল ভাষায় গালিগালাজ শুরু করেন। এক পর্যায়ে তারা পিআইওকে শরীরের বিভিন্ন স্থানে এলোপাথাড়ি কিল ঘুষি দেন। এসময় তার চিৎকারে আশে পাশের লোকজন এগিয়ে এলে তারা ভয়ভীতি দেখিয়ে ও হুমকি দিয়ে চলে যান। পরে পিআইও মমিনুল হক টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে গিয়ে চিকিৎসা গ্রহণ করেন।

নাজমুল হুদা নবীন টাঙ্গাইল শহর আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক। এর আগে তিনি জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি ছিলেন। বিগত উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে তিনি ভাইস চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন।

 

শাহরিয়ার/এসএম

       
 

আরো খবর জানতে ক্লিক করুন : টাঙ্গাইল, ঢাকা বিভাগ