ঢাকা     বৃহস্পতিবার   ০৬ আগস্ট ২০২০ ||  শ্রাবণ ২২ ১৪২৭ ||  ১৬ জ্বিলহজ্জ ১৪৪১

গাজীপুরে অপহৃত শিশু উদ্ধার শিবচরে, গ্রেপ্তার ২

নিজস্ব প্রতিবেদক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১১:১৮, ১১ জুলাই ২০২০  

ভাড়াটিয়া সেজে গাজীপুর হতে শিশু আব্দুল্লাকে (৫) অপহরণের মূল পরিকল্পনাকারীসহ দুই জনকে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব।

শনিবার দুপুরে র‌্যাব-১ এর গাজীপুরের পোড়াবাড়ী ক্যাম্প এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানায়।

অপহরণের মূল পরিকল্পনাকারী নড়াইল লোহাগড়া থানার উল্লা এলাকার মৃত সামসুর রহমানের ছেলে আমির হোসেন সাগর (৩৯) এবং সহযোগী একই জেলা ও থানার পাটগাতী এলাকার আজম শেখ (৩০)। আমির হোসেন সাগর গাজীপুর সিটি করপোরেশনের গাছা মধ্যপাড়া এলাকায় বসবাস করে।

র‌্যাব জানায়, অপহৃত শিশু সন্তানকে উদ্ধারের জন্য ভিকটিমের পরিবার র‌্যাব-১ এর কাছে আইনগত সাহায্য কামনা করেন। পরে র‌্যাব-১ ছায়া তদন্ত শুরু করে এবং গোয়েন্দা নজরদারি বৃদ্ধি করে। এরই ধারাবাহিকতায় শুক্রবার (১০ জুলাই) রাত সাড়ে ১১টার দিকে র‌্যাব-১ এর একটি দল গাজীপুর সিটি করপোরেশনের সাইনবোর্ড এলাকায় হতে অপহরণকারী চক্রের মূল পরিকল্পনাকারী আমির হোসেন সাগরকে গ্রেপ্তার করে। পরে তার দেওয়া তথ্য মতে র‌্যাব ঢাকার আশুলিয়া থানা এলাকায় অভিযান চালিয়ে অপহরণের সঙ্গে জড়িত অপর আসামি আজম শেখকে গ্রেপ্তার করা হয়। পাশাপাশি ভিকটিম উদ্ধার এবং অপহরণের অপর সহযোগী অজ্ঞাতনামা মহিলাকে গ্রেপ্তারে কেরানীগঞ্জ এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে। গাজীপুর ও ঢাকার বিভিন্ন স্থানে ভিকটিমকে উদ্ধার এবং অপহরণকারীদের গ্রেপ্তারে র‌্যাবের সাঁড়াশি অভিযানে ওই মহিলা আব্দুল্লাহকে নিয়ে পালিয়ে যাওয়ার সময় ধরা পড়ার ভয়ে মাদারীপুরের শিবচর থানার কাঁঠালবাড়ী ফেরীঘাট এলাকায় আব্দুল্লাহকে রেখে পালিয়ে যায়। পরবর্তীতে স্থানীয়রা ভিকটিমকে শিবচর থানায় সোর্পদ করে।

র‌্যাব আরও জানায়, গ্রেপ্তার আসামিরা পেশায় গার্মেন্টস কর্মী। তাদের দীর্ঘদিনের স্বপ্ন ছিল যেকোন উপায়ে বিপুল টাকা উপার্জন করে গাজীপুর শহরে একটি ফ্ল্যাট বাসা কিনে সুন্দরভাবে জীবন-যাপন করবে। তাদের এই স্বপ্ন পূরণ করার জন্য তারা আমির হোসেন সাগরের ৫ম স্ত্রীকে দিয়ে শিশু আব্দুল্লাহকে অপহরণ করেছিল বলে জিজ্ঞাসাবাদে তারা স্বীকার করেছে।

গ্রেপ্তার ব‌্যক্তিরা একটি সংঘবদ্ধ অপহরণকারী চক্রের সদস্য। তারা দীর্ঘদিন ধরে গাজীপুরের বিভিন্ন এলাকায় অপহরণ, অজ্ঞান করে লুটবাজসহ নানাবিধ অপরাধমূলক কাজের সঙ্গে জড়িত। এসব কাজে সহায়তার জন্য তাদের একাধিক স্ত্রী রয়েছে। তারা ধনী পরিবারগুলোকে টার্গেট করে বিভিন্ন বাসায় এসব স্ত্রীদের দিয়ে বাসা ভাড়া নেয়। এরপর বাসার মালিকদের সঙ্গে সুসম্পর্ক হওয়ার পর সুযোগ বুঝে বাচ্চা অপহরণ, নেশা জাতীয় দ্রব্য খাইয়ে অজ্ঞান করে বাসা লুট, নগ্ন ছবি তুলে বাড়ির মালিকদের জিম্মিসহ নানা অপরাধ করে আসছিল বলে তার স্বীকার করেছে র‌্যাব জানায় ।

প্রসঙ্গত, অপহৃত আব্দুল্লার বাবা আব্দুল কাদের গ্রিস প্রবাসী। তাদের বাড়ি সিটি করপোরেশনের গাছা মধ্যপাড়া এলাকায়। গত ৭ জুলাই অজ্ঞাত এক মহিলা আব্দুল্লার মা সাজেদা আক্তারের নিকট থেকে মাসিক দুই হাজার টাকা ভাড়ায় বাসা ভাড়া নেয়। পর দিন ৮ জুলাই আব্দুল্লাকে কোলে নিয়ে মজা কিনে দেওয়ার কথা বলে বাস থেকে বের হয় ওই মহিলা। পরে ওই মহিলা মোবাইর ফোনে আব্দুল্লাকে অপহরণ এবং ৭ লক্ষ টাকা মুক্তিপণ দাবি করে। অন্যথায় শিশুকে হত্যার হুমকি দেয়।

 

গাজীপুর/হাসমত আলী/সাজেদ

রাইজিংবিডি.কম

সম্পর্কিত বিষয়:

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়