ঢাকা     বৃহস্পতিবার   ১৩ আগস্ট ২০২০ ||  শ্রাবণ ২৯ ১৪২৭ ||  ২২ জ্বিলহজ্জ ১৪৪১

রানিশংকৈলে বৃষ্টিতে সড়কে গর্ত: প্রায় বিচ্ছিন্ন ৫০০ পরিবার

|| রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১২:৩৭, ১৩ জুলাই ২০২০  
রানিশংকৈলে বৃষ্টিতে সড়কে গর্ত: প্রায় বিচ্ছিন্ন ৫০০ পরিবার

ঠাকুরগাঁওয়ের রানিশংকৈল উপজেলার আরডিআরএস মোড় থেকে হাজীপাড়া পর্যন্ত সড়কটির বেহাল দশায় জনদুর্ভোগ চরমে পৌঁছেছে। চলতি বর্ষা মৌসুমের শুরুতেই ভারী বর্ষণ হওয়ায় এবং পানি নিষ্কাশনের সুব্যাবস্থা না থাকায় সড়কটিতে সৃষ্টি হয়েছে বড় দুটি গর্তের। এতে চরম ভোগান্তিতে পড়েছেন দুপাশের প্রায় ৫০০ পরিবার, অনেকটা যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছেন তারা।

গতকাল সোমবার সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, দক্ষিণ সন্ধ্যারই ও হাজিপাড়া শেখ রাসেল স্টেডিয়ামসহ হোসেনগাঁও ইউনিয়ন ভূমি অফিসে যাতায়াতের একমাত্র এ সড়কটি একমাস যাবত এভাবেই বিচ্ছিন্ন অবস্থায় পড়ে রয়েছে।

স্থানীয়রা জানান, এক মাস আগে প্রচণ্ড বৃষ্টিপাতের কারণে পানির স্রোতে পাকা সড়কটি ভেঙে গিয়ে দুটি স্থানে বড় বড় গর্ত হয়েছে এবং দুটিতেই সড়কটি একেবারে বিচ্ছিন্ন হয়ে গিয়েছে। এতে পথচারীদের যেমন সমস্যা হচ্ছে, অপরদিকে দুট গ্রামের প্রায় পাঁচ শতাধিক পরিবারও বিচ্ছিন্ন জীবন যাপন করছে। মেয়র বা স্থানীয় কাউন্সিলরদের কেউ কোন পদক্ষেপ নিচ্ছেনা এটি মেরামতের।

মোবারক নামের এক সবজি ব্যাবসায়ী বলেন, ‘গত একমাস ধরে রাস্তাটি দিয়ে চলাচল করা যায় না। বিকল্প পথে অনেক দূর দিয়ে ঘুরে বাজারে যেতে হয়। করোনা পরিস্থিতির মধ্যে এমনিতেই বাজারে বসার সময় পাই খুবই কম, তার ওপর আবার যাতায়াতের এ অবস্থা। তবুও আমাকে সময় অপচয় করে অনেকটা রাস্তা ঘুরে যেতে হয় সবজি বিক্রি করতে। রাস্তাটির মেরামতের দ্রুত কোন পদক্ষেপ নিলে আমার মত অন্যান্য ব্যাবসায়ী ও দুই গ্রামের মানুষ স্বাভাবিক জীবনে ফিরে আসবে।’

পৌর কাউন্সিলর সাদেকুল জানান, সড়কটিতে আপাতত মেরামত করতে প্রচুর পরিমাণে রাবিস মাটি ও খোয়া লাগবে। বিষয়টি আমাদের মেয়রকে জানিয়েছি। তবে আমার করার কিছুই নাই।

এ বিষয়ে পৌর মেয়র আলমগীর সরকারের মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তাকে পাওয়া যায়নি।


মইনুদ্দিন তালুকদার হিমেল/সাজেদ

রাইজিংবিডি.কম

সম্পর্কিত বিষয়:

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়