RisingBD Online Bangla News Portal

ঢাকা     রোববার   ২৫ অক্টোবর ২০২০ ||  কার্তিক ১০ ১৪২৭ ||  ০৮ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

সিলেটের গোয়াইনঘাটে নিম্নাঞ্চল প্লাবিত

নিজস্ব প্রতিবেদক, সিলেট || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ২২:১৫, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২০   আপডেট: ২২:২০, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২০
সিলেটের গোয়াইনঘাটে নিম্নাঞ্চল প্লাবিত

টানা বর্ষণ ও উজানের ঢলে সিলেটের সীমান্তবর্তী উপজেলা গোয়াইনঘাটের নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হয়েছে। এ কারণে পঞ্চম বারের মতো বন্যার কবলে পড়ার আতঙ্কে রয়েছেন স্থানীয়রা।

শুক্রবার (২৫ সেপ্টেম্বর) বিকেল ৩টায় সুরমার কানাইঘাট পয়েন্টে পানি বিপৎসীমার ১২৩ সেন্টিমিটার নিচ দিয়ে পানি প্রবাহিত হচ্ছিল। সিলেট পানি উন্নয়ন বোর্ড থেকে এ তথ‌্য জানানো হয়েছে।

এর আগে ভোর ৬টায় এ পয়েন্টে পানি ১৪২ সেন্টিমিটার নিচ দিয়ে প্রবাহিত হয়। সেই হিসেবে নয় ঘণ্টায় এ পয়েন্টে ১৯ সেন্টিমিটার পানি বেড়েছে।

একই সময়ে সারি নদীর সারিঘাট পয়েন্টেও পানি বেড়েছে ৩৭ সেন্টিমিটার। তবে তা এখনও বিপৎসীমার ৩৮ সেন্টিমিটার নিচে রয়েছে। পানি বেড়েছে সুরমার সিলেট, কুশিয়ারার অমলশীদ, শেওয়া, ধলাইর ইসলামপুর পয়েন্টেও। 

এদিকে সুরমা, কুশিয়ারা, সারিসহ প্রধান নদ-নদীর পানি বৃদ্ধি পেয়েছে। তবে পানি বাড়লেও সবকয়টি পয়েন্টে তা বিপৎসীমা থেকে প্রায় ১০০ থেকে ২০০ সেন্টিমিটার নিচে রয়েছে বলে পানি উন্নয়ন বোর্ডের বন্যা সতর্কীকরণ কেন্দ্র থেকে জানানো হয়েছে।

গোয়াইনঘাট প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি মনজুর আহমদ বলেন, ‘সারি আর পিয়াইনের পানি বাড়তে থাকায় গত বুধবার (২৩ সেপ্টম্বর) থেকে উপজেলার সবকটি ইউনিয়নের নিম্নাঞ্চলে পানি বাড়তে থাকে। শুক্রবার বিকেল পর্যন্ত দুদিনে অধিকাংশ এলাকাই প্লাবিত হয়েছে। এ কারণে ফের বন্যা কবলিত হওয়ার আশঙ্কায় আছেন এসব এলাকার মানুষ।’

এদিকে শুক্রবার বিকেল ৩টা পর্যন্ত সিলেটে ১১ এবং শেওলায় ৪২ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে। তবে কানাইঘাটে এ সময় পর্যন্ত কোনো বৃষ্টিপাত রেকর্ড হয়নি।

পানি উন্নয়ন বোর্ড (পাউবো) সিলেটের নির্বাহী প্রকৌশলী মো. শহিদুজ্জামান সরকার জানান, উজানে অতিবৃষ্টির কারণে নদ-নদীর পানি কিছুটা বেড়েছে। তবে তা বিপৎসীমার অনেক নিচে রয়েছে। যদি বৃষ্টি না বাড়ে তাহলে আগামী দুয়েকদিনের মধ্যে পানি কমবে বলেও জানান তিনি।

নোমান/সনি

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়