RisingBD Online Bangla News Portal

ঢাকা     বুধবার   ২৫ নভেম্বর ২০২০ ||  অগ্রাহায়ণ ১১ ১৪২৭ ||  ০৮ রবিউস সানি ১৪৪২

ফেনীতে বেড়াতে এসে ধর্ষণের শিকার উপজাতি নারী, আটক-২

ফেনী প্রতিনিধি || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ০৬:১৯, ২০ অক্টোবর ২০২০   আপডেট: ০৮:১৬, ২০ অক্টোবর ২০২০
ফেনীতে বেড়াতে এসে ধর্ষণের শিকার উপজাতি নারী, আটক-২

ফেনীতে বেড়াতে আসা এক চাকমা (১৮) নারীকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে দুজনের বিরুদ্ধে। তাদের আটকও করেছে পুলিশ। তাদের মধ্যে একজন রিকশাচালক মো. রিয়াজ (২৬), অপরজন সেলুন কর্মচারী ছোটন চন্দ্র শীল (২২)। ধর্ষণ ও তাদের আটকের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন ফেনী মডেল থানার পুলিশ পরিদর্শক মোহাম্মদ ওমর হায়দার। তাদের বিরুদ্ধে মামলাও হয়েছে।

ধর্ষিতার বক্তব্যের সূত্র ধরে ফেনী মডেল থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মোহাম্মদ ওমর হায়দার জানান, রোববার দিবাগত রাত আড়াইটায় রিকশাযোগে বিসিক যাওয়ার পথে পৌর ময়লা ডাম্পিং এলাকায় মোক্তার বাড়ির সামনে রিকশা চালক তাকে ধর্ষণ করে। পরে অপর ধর্ষক মেয়েটিকে রিকশায় একা দেখতে পেয়ে দেওয়ানগঞ্জ মূল সড়কের পাশে নিয়ে ধর্ষণ করে।

পরিদর্শক জানান, ভোর সাড়ে ৪টার দিকে টহলরত পুলিশের সন্দেহ হলে তাদের ধরে থানায় আনে। পরে মেয়েটির বক্তব্যের প্রেক্ষিতে ধর্ষকদের আটক করা হয়। এ ঘটনায় সোমবার (১৯ অক্টোবর) সকালে মেয়েটি বাদী হয়ে দুজনকে আসামী করে থানায় মামলা দায়ের করে। রাত সাড়ে ৭টার দিকে ফেনী জেনারেল হাসপাতালে মেয়েটির শারীরিক পরীক্ষা সম্পন্ন হয়েছে।

খাগড়াছড়ি হতে বান্ধবীর বাসায় যাওয়ার উদ্দেশ্যে ফেনীতে এসেছে বলে মেয়েটি পুলিশকে জানিয়েছে। তার বান্ধবী আবুল খায়ের ম্যাচ ফ্যাক্টরিতে চাকরি করে।

পুলিশ সূত্র জানায়, সেলুন কর্মচারী ছোটন চন্দ্র শীলের বাড়ি চট্টগ্রাম জেলার সীতাকুন্ডের ধর্মপুরে। তার পিতার নাম সমীর চন্দ্র শীল। রিকশাচালক রিয়াজ লক্ষীপুর জেলার কমলনগর থানার জগবন্ধু গ্রামের মো. ছাদেকের ছেলে।

সৌরভ/আমিনুল

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়