Risingbd Online Bangla News Portal

ঢাকা     সোমবার   ১৯ এপ্রিল ২০২১ ||  বৈশাখ ৬ ১৪২৮ ||  ০৬ রমজান ১৪৪২

পঞ্চগড়ে অব্যাহত সর্বনিম্ন তাপমাত্রায় বিপর্যস্ত জনজীবন

পঞ্চগড় সংবাদদাতা || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১০:৩৯, ১৭ ডিসেম্বর ২০২০   আপডেট: ১৫:৩৪, ১৭ ডিসেম্বর ২০২০
পঞ্চগড়ে অব্যাহত সর্বনিম্ন তাপমাত্রায় বিপর্যস্ত জনজীবন

গত তিন দিন ধরে পঞ্চগড়ে দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা বিরাজ করছে। অব্যাহত সর্বনিম্ন তাপমাত্রায় বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে এ জেলার জনজীবন।

বৃহস্পতিবার (১৭ ডিসেম্বর) সকাল ৯টায় পঞ্চগড়ের তেঁতুলিয়া ১০ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে। যা সারা দেশের মধ্যে সর্বনিম্ন বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অফিস। এর আগে, গতকলা বুধবার সকাল ৯টায় এখানে দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১২ দশমিক ৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড হয়। 

প্রায় দিনই বেলা ১১টা বাজলেও দেখা মেলে না সূর্যের। দুপুরের দিকে দেখা মিললেও থাকে না উত্তাপ। এতে করে দিনভর গরমকাপড় পড়ে থাকতে হচ্ছে সর্বসাধারণকে।

পর্যাপ্ত শীতবস্ত্র না থাকায় দিশেহারা হয়ে পড়েছে নিম্মআয়ের মানুষ। শীতবস্ত্র না থাকায় দরিদ্র অসহায় ছিন্নমূল দিনমুজুর মানুষ কাজে যেতে পারছে না। হাঁড় কাঁপানো শীতের প্রকোপ থেকে বাঁচতে খড়খুটো জ্বালিয়ে অনেকে শীত নির্বারণের চেষ্টা করছে। ছিন্নমূল মানুষ শীতের কাপড়ের অভাবে মারাত্মক দুর্ভোগে পড়েছেন। যানবাহনগুলোও হেডলাইট জ্বালিয়ে সাবধানে যাতায়াত করছে।

তেঁতুলিয়া আবহাওয়া পর্যবেক্ষণাগারের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা রাসেল শাহ্ জানান, টানা তিন দিন ধরে তেঁতুলিয়ায় দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হচ্ছে। গত এক সপ্তাহ ধরে আকাশে মেঘ জমে থাকায় এবং কুয়াশা বৃদ্ধি পাওয়ায় দিনের বেলা সূর্য উত্তাপ ছড়াতে পারছে না। যে কারণে তাপমাত্রা ওঠানামা করলেও শীত বেশি অনুভূত হচ্ছে।

পঞ্চগড় জেলা প্রশাসক সূত্রে জানা গেছে, পঞ্চগড়ে শীতার্ত মানুষের জন্য সরকারিভাবে ২১ হাজার ২০০টি কম্বল বরাদ্দ পাওয়া গেছে। পাঁচটি উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা ও জনপ্রতিনিধিদের মাধ্যমে এগুলো বিতরণ করা হয়েছে।

আবু নাঈম/ইভা

সম্পর্কিত বিষয়:

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়