Risingbd Online Bangla News Portal

ঢাকা     শুক্রবার   ০৫ মার্চ ২০২১ ||  ফাল্গুন ২০ ১৪২৭ ||  ২০ রজব ১৪৪২

বগুড়ার সেই তুফান স‌রকা‌রের জা‌মিন

বগুড়া প্রতি‌নি‌ধি || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ২১:৪৮, ১৭ জানুয়ারি ২০২১   আপডেট: ২২:৩৩, ১৭ জানুয়ারি ২০২১
বগুড়ার সেই তুফান স‌রকা‌রের জা‌মিন

বগুড়ায় ধর্ষণের পর ওই ছাত্রী ও তার মাকে লোহার রড দি‌য়ে পি‌টি‌য়ে নির্যাত‌ন করে মাথা ন‌্যাড়া ক‌রে দেওয়ার প্রধান অভিযুক্ত তুফান সরকার জামিন পেয়েছেন। তুফান সরকার বগুড়া শহর শ্রমিক লী‌গের ব‌হিষ্কৃত আহ্বায়ক।

রোববার (১৭ জানুয়ারি) বিকেলে বগুড়ার নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক এ কে এম ফজলুল হক শুনানি শেষে তার জামিন আবেদন মঞ্জুর করেন। এর আগে দুপুর ১২টায় আসামিপক্ষের আইনজীবী আদালতে তুফান সরকারের জামিনের জন্য আবেদন করেন।

বগুড়া নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের স্পেশাল পিপি নরেশ মুখার্জী জামিনের বিষয়টি নিশ্চিত করে‌ছেন।

২০১৭ সালের ১৭ জুলাই ক‌লে‌জে ভ‌র্তিচ্ছু ওই ছাত্রী ও তার মাকে নির্যাতন করে তুফান সরকার ও তার সহ‌যো‌গীরা। এ ঘটনায় থানায় মামলার পর বিষয়‌টি গণমাধ্যমে প্রকাশ হলে ব‌্যাপক সমা‌লোচনা হয়। সেই সময় থে‌কে তুফান সরকার জে‌লে আছেন। একাধিকবার আবেদন করা হলেও তার জা‌মিন মে‌লেনি।

স্পেশাল পিপি নরেশ মুখার্জী বলেন, এই মামলা নিষ্পত্তিতে হাইকোর্ট ছয় মাসের সময় দিয়েছিলেন। কিন্তু, তিন বছর অতিক্রান্ত হলেও নিষ্পত্তি হয়নি। আদাল‌তে বাদী ও সাক্ষী‌দের হা‌জির করা হয়। মামলার প্রধান সাক্ষী বাদী নিজেই। এছাড়াও ভিকটিম মেয়েটিও মামলার অন্যতম সাক্ষী। প্রধান আসামির জামিন শুনানির আগে মামলার গুরুত্বপূর্ণ এই দুই সাক্ষীর সাক্ষ্য নেওয়া হয়। পরে শুনানি শেষে আদালত তাকে জামিন দিয়েছেন।

২০১৭ সালের ১৭ জুলাই তুফান সরকার ও তার সহযোগীদের বিরুদ্ধে এক শিক্ষার্থীকে বাড়ি থেকে তুলে নিয়ে গিয়ে ধর্ষণের অভিযোগ ওঠে। পরে ধর্ষণের শিকার ওই শিক্ষার্থী ও তার মাকে মাথা ন্যাড়া করে দেওয়া হয় এবং লোহার রড দিয়ে নির্যাতন করা হয়।

২৯ জুলাই শিক্ষার্থীর মা বগুড়া সদর থানায় তুফান, আশা, রুমকি, রুমি, রুনু, শিমুল, আতিক, রূপম, জিতু, দিপু এবং অজ্ঞাত কয়েকজনের বিরুদ্ধে ধর্ষণ ও নির্যাতনের অভিযোগ এনে দুটি মামলা ক‌রেন। মামলার অন‌্যান‌্য আসামিরা জা‌মিন পে‌লেও তুফান সরকার কারাগারে ছিলেন।
 

এনাম/বকুল 

সম্পর্কিত বিষয়:

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়