Risingbd Online Bangla News Portal

ঢাকা     রোববার   ১৭ অক্টোবর ২০২১ ||  কার্তিক ২ ১৪২৮ ||  ০৮ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

বৃদ্ধকে বেঁধে পেটালেন ইউপি চেয়ারম্যান

ময়মনসিংহ প্রতিনিধি || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ২২:৩৫, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২১   আপডেট: ২২:৪০, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২১
বৃদ্ধকে বেঁধে পেটালেন ইউপি চেয়ারম্যান

ময়মনসিংহের হালুয়াঘাট উপজেলায় দুলাল মিয়া (৭১) নামে এক কৃষককে রশি দিয়ে বেঁধে পেটানোর অভিযোগ উঠেছে ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে।

সোমবার (২৭ সেপ্টেম্বর) বিকেলে উপজেলার গাজীর ভিটা ইউনিয়ন পরিষদের সামনে বেঁধে মারধর করেন চেয়ারম্যান মো. দেলোয়ার হোসেন। নির্যাতনের শিকার দুলাল মিয়ার বাড়ি তেঁতুলিয়া গ্রামে।

এ বিষয়ে রাতেই দুলাল মিয়া বাদী হয়ে হালুয়াঘাট থানায় অভিযোগ দায়ের করেন। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন হালুয়াঘাট থানার উপপরিদর্শক দেলোয়ার হোসেন।

উপপরিদর্শক দেলোয়ার হোসেন বলেন, দুলাল মিয়ার ফসলি জমি থেকে মাটি নিয়ে রাস্তা সংস্কারের কাজ করাচ্ছিলেন ইউপি চেয়ারম্যান দেলোয়ার। এ সময় দুলাল মিয়া জমি থেকে মাটি নিতে শ্রমিকদের নিষেধ করলে চেয়ারম্যানের সঙ্গে কাটাকাটি হয়। পরে চেয়ারম্যান দুলালকে নিজ গাড়িতে উঠিয়ে ইউনিয়ন পরিষদে নিয়ে আসেন। গ্রাম পুলিশের সহায়তায় তাকে রশি দিয়ে বেঁধে লাঠি দিয়ে পিটিয়ে আহত করেন। পরে দুলালকে হালুয়াঘাট স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে পরিবারের লোকজন।

এ বিষয়ে চেয়ারম্যান দেলোয়ার হোসেন বলেন, ‘বালিচান্দা গ্রামের রাস্তায় কাজ করতে গেলে মাটি উত্তোলনকে কেন্দ্র করে দুলালের সঙ্গে কথা কাটাকাটি হয়। এক পর্যায়ে তিনি সরকারি কাজে বাধা দেন। প্রতিবাদ করলে আমার গায়ে হাত তোলেন। পরে গ্রাম পুলিশ তাকে ধরে আমার গাড়িতে তুলে ইউনিয়ন পরিষদে নিয়ে রশি দিয়ে বেঁধে রাখে। এরপর ভয় দেখানোর জন্য লাঠি দিয়ে কয়েকটা আঘাত করেছি।’ 

এ বিষয়ে হালুয়াঘাট থানার ওসি শাহিনুজ্জামান খান বলেন, দুলাল মিয়াকে নির্যাতনের ঘটনায় মামলা হয়েছে। আসামিদের গ্রেপ্তারে অভিযান চলছে। ওই কৃষক স্থানীয় উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন আছেন বলেও জানান তিনি।

মিলন/বকুল

সম্পর্কিত বিষয়:

সর্বশেষ