ঢাকা     শনিবার   ২১ মে ২০২২ ||  জ্যৈষ্ঠ ৭ ১৪২৯ ||  ১৯ শাওয়াল ১৪৪৩

জামানত হারাচ্ছেন ৪০ চেয়ারম্যান প্রার্থী, ২ জন আ.লীগের

হবিগঞ্জ প্রতিনিধি || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৬:৩৩, ৬ জানুয়ারি ২০২২  
জামানত হারাচ্ছেন ৪০ চেয়ারম্যান প্রার্থী, ২ জন আ.লীগের

পঞ্চম ধাপে বুধবার (৫ জানুয়ারি) হবিগঞ্জের মাধবপুর ও চুনারুঘাট উপজেলার ২১টি ইউনিয়নে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে। এতে আওয়ামী লীগ মনোনীত দুইজনসহ ৪০ চেয়ারম্যান প্রার্থী তাদের জামানত হারাচ্ছেন।

নির্বাচনের নিয়ম অনুযায়ী, মোট প্রদত্ত ভোটের আট ভাগের এক ভাগ না পাওয়ায় এসব প্রার্থীদের জামানত বাজেয়াপ্ত করা হচ্ছে।

বৃহস্পতিবার (৬ জানুয়ারি) দুপুরে হবিগঞ্জ জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মোহাম্মদ সাদেকুল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

জানা গেছে, চুনারুঘাট উপজেলায় ৪৮ চেয়ারম্যান প্রার্থীর মধ্যে ১৭ জন এবং মাধবপুরে ৫৬ জনের মধ্যে ২৩ জনই জামানত হারাচ্ছেন।

জামানত হারানো চেয়ারম্যান প্রার্থীরা হলেন- মাধবপুর উপজেলার ধর্মঘর ইউপিতে স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. সাইফুর রহমান, চৌমুহনীতে স্বতন্ত্র প্রার্থী শাহ সৈয়দ আমান উল্লাহ, বহরায় স্বতন্ত্র প্রার্থী শাহ মো. আল আমিন, আন্দিউড়ায় জাতীয় পার্টির কায়সার আহমেদ, স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. এখলাছুর রহমান ও মো. আলফাজ মিয়া, শাহজাহানপুরে স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. আবুল কালাম আজাদ, জগদীশপুরে স্বতন্ত্র প্রার্থী নাছির উদ্দিন খান ও শেখ আব্দুল জলিল, বুল্লায় স্বতন্ত্র প্রার্থী শামীম রহমান, নোয়াপাড়ায় আওয়ামী লীগ প্রার্থী মুজাহিদ বিন ইসলাম, স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. আজিজুর রহমান ও সৈয়দ আদেল আহমেদ, ছাতিয়াইনে স্বতন্ত্র প্রার্থী কেএম বায়েজিদ বুস্তামী, জিয়াউর রহমান, মো. মহিবুল ইসলাম, রুকন মিয়া ও জাতীয় পার্টির মো. সানিউর রহমান এবং বাঘাসুরা ইউপিতে আওয়ামী লীগ মনোনিত প্রার্থী মো. এখলাছ মিয়া ও জাতীয় পার্টির কামরুজ্জামান।

চুনারুঘাট উপজেলার গাজিপুর ইউপিতে স্বতন্ত্র প্রার্থী মোহাম্মদ আলী, আহাম্মদাবাদে স্বতন্ত্র প্রার্থী বেলায়েত আলী, মো. সামছুল আলম, যুবরাজ ঝড়া ও হাজী মোহাম্মদ আব্দুল লতিফ, দেওরগাছে স্বতন্ত্র প্রার্থী ইব্রাহিম কবির ও ইসলামি আন্দোলন বাংলাদেশের কদ্দুছ আলী, পাইকপাড়ায় স্বতন্ত্র প্রার্থী শামীম মিয়া ও সোহেল মিয়া, শানখলায় স্বতন্ত্র প্রার্থী আবুল কালাম চৌধুরী, চুনারুঘাট সদরে স্বতন্ত্র প্রার্থী আব্দুর রউফ ও ফারুক আহমদ, উবাহাটায় স্বতন্ত্র প্রার্থী মীর মো. ফজলুর রহমান ও রিপন চন্দ্র চন্দ, রানীগাঁওয়ে ইসলামি আন্দোলন বাংলাদেশের প্রার্থী মুর্শেদ আহম্মদ চৌধুরী ও স্বতন্ত্র প্রার্থী মোশাহিদুর রহমান এবং মিরাশীতে স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. আব্দুল মনাফ।

মামুন/ মাসুদ

সম্পর্কিত বিষয়:

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়