ঢাকা     সোমবার   ২৩ মে ২০২২ ||  জ্যৈষ্ঠ ৯ ১৪২৯ ||  ২১ শাওয়াল ১৪৪৩

শাবিপ্রবি উপাচার্যের বাসভবনের বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন

সিলেট সংবাদদাতা  || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ২০:২৭, ২৩ জানুয়ারি ২০২২   আপডেট: ২১:০০, ২৩ জানুয়ারি ২০২২
শাবিপ্রবি উপাচার্যের বাসভবনের বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন

ফাইল ফটো

শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (শাবিপ্রবি) উপাচার্য অধ্যাপক ফরিদ উদ্দিন আহমদের বাসভবনের বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে দিয়েছেন আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা।

রোববার (২৩ জানুয়ারি) সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেওয়া হয়। আন্দোলনকারী শিক্ষার্থী ওমর ফারুক রাইজিংবিডিকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

এর আগে বিকেলে শিক্ষামন্ত্রীর সঙ্গে ভার্চুয়াল বৈঠক নিয়ে সংবাদ সম্মেলন করেন শিক্ষার্থীরা। তখন জানানো হয়, নতুন করে ভিসির বাসভবনে যে কারো অবাধে প্রবেশের সুযোগ বন্ধ করে দেওয়া হবে।

আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীদের প্রতিনিধি ইয়াসির সরকার বলেন, ‘আমাদের সহপাঠীরা ৫ দিন ধরে অনশন করে মৃত্যুর দিকে ধাবিত হচ্ছে। আর ভিসি বাসভবনে আরাম-আয়েশ করবেন। আমরা আর তা হতে দিবো না। যে কেউ চাইলেই আর ভিসির বাসভবনে ঢুকতে পারবে না।’

তিনি আরও বলেন, ‘গণ-অনশন কার্যক্রম অব্যাহত রয়েছে। শনিবার রাতে আরও ৪ জন নতুন করে অনশনে বসেছেন। শিক্ষামন্ত্রীর সাথে আলোচনার অপেক্ষায় ছিলাম। যেহেতু আলোচনা গতি পাচ্ছে না, আমরা আমাদের অনশন কার্যক্রম চালিয়ে যাবো। আমরাও দেখতে চাই কে বেশি গুরুত্বপূর্ণ ভিসি না আমাদের জীবন।’

উল্লেখ্য, গত বুধবার (১৯ জানুয়ারি) দুপুর থেকে উপাচার্যের পদত্যাগ না করা পর্যন্ত আমরণ অনশনে নামেন শাবিপ্রবির ২৪ শিক্ষার্থী।

এর আগে গত ১৩ জানুয়ারি রাতে বেগম সিরাজুন্নেছা চৌধুরী হলের প্রভোস্ট প্রত্যাহারসহ তিন দফা দাবিতে আন্দোলনে নামেন ওই হলের ছাত্রীরা। পরে দাবি মেনে নেওয়া হবে বলে দেওয়া উপাচার্যের আশ্বাসে হলে ফেরেন তারা।

আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের দাবি, উপাচার্য তাদের দাবি না মেনে সময়ক্ষেপণের চেষ্টা করেন। পরে সেই আন্দোলনে সাধারণ শিক্ষার্থীরাও যোগ দেন। উপাচার্যকে অবরুদ্ধ করে রাখার ঘটনাও ঘটে।

এক পর্যায়ে পুলিশ গুলি ও সাউন্ড গ্রেনেড নিক্ষেপ করলে আহত হন শিক্ষার্থীরা। যদিও পুলিশ ৩০০ জনকে অজ্ঞাত দেখিয়ে শিক্ষার্থীদের বিরুদ্ধে মামলা করেন। পরে উপাচার্যকে অপসারণের দাবিতে আমরণ অনশনে নামেন শিক্ষার্থীরা।

নূর আহমদ/কেআই

সম্পর্কিত বিষয়:

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়