ঢাকা     সোমবার   ০৪ জুলাই ২০২২ ||  আষাঢ় ২০ ১৪২৯ ||  ০৪ জিলহজ ১৪৪৩

মৃত রিপনকে ৫ বছর পর জীবিত উদ্ধার

মেহেরপুর প্রতিনিধি  || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৭:১৪, ২২ ফেব্রুয়ারি ২০২২  
মৃত রিপনকে ৫ বছর পর জীবিত উদ্ধার

মৃত্যুর ৫ বছর পর মেহেরপুরের রকিবুজ্জামান রিপন (৩০) নামের এক যুবককে গাজীপুর থেকে জীবিত উদ্ধার করেছে পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)। সংস্থাটির কুষ্টিয়ার একটি দল তাকে উদ্ধার করে। এদিকে রিপনকে জীবিত উদ্ধারের ঘটনায় এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে।

জিজ্ঞাসাবাদ শেষে রিপনকে মঙ্গলবার (২২ ফেব্রুয়ারি) মেহেরপুর আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে। 

এর আগে রোববার (২০ ফেব্রুয়ারি) গাজীপুর জেলার শ্রীপুর থানাধীন রাজেন্দ্রপুর এলাকা থেকে উদ্ধার করা হয়। 

রিপন মেহেরপুর সদর উপজেলার গোভীপুর গ্রামের দত্তপাড়ার মনিরুল ইসলামের ছেলে। 

পিবিআই কুষ্টিয়ার পরিদর্শক মনিরুজাম্মান জানান, ২০১৭ সালে মেহেরপুরের গাংনী উপজেলার ভরাট গ্রামের আকবর হোসেনের মেয়ে শ্যামলী খাতুনকে বিয়ে করেন রিপন। স্বামী স্ত্রীর মধ্যে কলহ শুরু হওয়ায় ২০১৭ সালের ৮ জুলাই সবার অজান্তে নিরুদ্দেশ হন তিনি। রিপনের কোনো খোঁজ না পাওয়ায় তার বাবা মনিরুল ইসলাম রিপনের স্ত্রী, শ্বশুর, শাশুড়ি এবং চাচা শ্বশুরের বিরুদ্ধে মেহেরপুর আদালতে মামলা করেন। 

মেহেরপুর সদর থানা পুলিশ দীর্ঘদিন তদন্ত করে রিপনকে উদ্ধার করতে না পেরে আদালতে চুড়ান্ত প্রতিবেদন দাখিল করে। আদালত পুলিশের প্রতিবেদন গ্রহণ না করে পিবিআইকে তদন্ত করে প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দেন।

আদালতের নির্দেশনা পেয়ে পিবিআই তদন্ত শুরু করে এবং সোর্স নিয়োগ করে খুঁজতে থাকে রিপনকে। কয়েক দফা জিজ্ঞাসাবাদ করা হয় রিপনের পরিবার ও তার শ্বশুর বাড়ির লোকজনকে। পরে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে রিপনকে শ্রীপুর থানাধীন রাজেন্দ্রপুর এলাকার ডার্ড কম্পোজিট টেক্সটাইল মিলের সামনে থেকে উদ্ধার করা হয়। 

তিনি আরো জানান, রিপন নিজের নাম পরিবর্তন করে মো. শরিফুল ইসলাম বলে পরিচয় দিতেন। তিনি রাজেন্দ্রপুর এলাকার ডার্ড কম্পোজিট টেক্সটাইল লিমিটেডে টেকনিশিয়ান পদে চাকরি করছিলেন।

পিবিআই পরিদর্শক জানান, রিপনকে তার বাবার দায়ের করা মামলায় আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে। আদালতের নির্দেশনায় মামলার পরবর্তী করণীয় ঠিক করা হবে। 

মহাসিন/ মাসুদ

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়