ঢাকা     সোমবার   ০৪ জুলাই ২০২২ ||  আষাঢ় ২০ ১৪২৯ ||  ০৪ জিলহজ ১৪৪৩

সুরমায় পানি কমেছে, বাড়ছে কুশিয়ারার

সিলেট প্রতিনিধি || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ০১:৫২, ২১ মে ২০২২   আপডেট: ০১:৫৮, ২১ মে ২০২২
সুরমায় পানি কমেছে, বাড়ছে কুশিয়ারার

কানাইঘাটে বন্যার পানিতে মাছ শিকারের চেষ্টায় স্থানীয় লোকজন

ভাটার টান পড়েছে সুরমার নদীতে। শুক্রবার (২০ মে) থেকে সিলেটের এই প্রধান নদীর পানি কিছুটা কমতে শুরু করে। তবে এখনও প্রতিটি পয়েন্টেই বিপৎসীমার উপর দিয়ে পানি প্রবাহিত হচ্ছে। এদিকে সুরমার পানি কমতে শুরু করলেও বেড়েছে কুশিয়ারার পানি। ফলে পানি বৃদ্ধি অব্যাহত রয়েছে কিছু কিছু এলাকায়।

পানি উন্নয়ন বোর্ডের কর্মকর্তারা বলছেন, উজানে বৃষ্টি কমলে নদীর পানি কমা অব্যাহত থাকবে। এতে প্লাবিত এলাকা থেকেও পানি নেমে যেতে শুরু করবে। তবে কুশিয়ারা নদীর ফেঞ্চুগঞ্জ পয়েন্টে পানি কিছুটা বেড়েছে।

পানি উন্নয়ন বোর্ডের (পাউবো) তথ্য অনুযায়ী, শুক্রবার দুপুর ৩টায় সুরমা নদীর পানি কানাইঘাট পয়েন্টে ৯৬ সেন্টিমিটার ও সিলেট পয়েন্টে ৩২ সেন্টিমটার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে।

অপরদিকে, কুশিয়ারা নদীর পানি অমলসীদে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৬টা থেকে শুক্রবার বিকেল ৩টা পর্যন্ত ৮ সেন্টিমিটার কমেছে। তবে এই সময়ে ফেঞ্চুগঞ্জে ১৬ সেন্টিমিটার বেড়েছে। কিছুটা কমেছে লোভা, সারি, ধলাই, নদীর পানিও।

স্থানীয় বাসিন্দাদের সঙ্গে কথা বলে জানাগেছে, সিলেট নগরীতে বন্যার পানি কিছুটা কমেছে। শুক্রবার বিচ্ছিন্নভাবে দুএক জায়গায় বৃষ্টি হলেও দিনভর আবহওয়া ভালো ছিল। 

পানি উন্নয়ন বোর্ড সিলেটের উপ সহকারি প্রকৌশলী নিলয় পাশা বলেন, সুরমার পানি কিছুটা কমেছে। উজানে বৃষ্টি না হলে পানি আরও কমবে। তবে বৃহস্পতিবার রাতে জকিগঞ্জের অমলসীদে একটি বাঁধ ভেঙে নতুন করে কিছু এলাকা প্লাবিত হয়েছে। এই পানি এখন ফেঞ্চুগঞ্জ, বালাগঞ্জ হয়ে নামবে। ফলে ওই এলাকায় পানি বাড়ছে। এই দুই উপজেলার কিছু এলাকা প্লাবিতও হতে পারে।

গত ১১ মে থেকে সিলেটে বন্যা পরিস্থিতর সৃষ্টি হয়। এর কয়েকদিন আগে থেকে নদনদীর পানি বাড়তে শুরু করে। বন্যায় তলিয়ে যায় সিলেটের ১৩ উপজেলার মধ্যে ১০ উপজেলারই বেশিরভাগ এলাকা। সিলেট নগরীর সুরমার তীরবর্তী এলাকাগুলোতে বিপর্যয় নেমে আসে। সিলেট নগরীসহ বন্যায় পানিবন্দি হয়ে আছেন জেলার প্রায় ১৫ লাখ মানুষ।

নূর আহমদ/ মাসুদ

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়