ঢাকা     রোববার   ২৬ মার্চ ২০২৩ ||  চৈত্র ১৩ ১৪২৯

সিলেটে মুখোমুখি আওয়ামী লীগ-বিএনপি, চাপা উত্তেজনা

সিলেট প্রতিনিধি || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১১:৪৯, ৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৩   আপডেট: ১১:৫০, ৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৩
সিলেটে মুখোমুখি আওয়ামী লীগ-বিএনপি, চাপা উত্তেজনা

আওয়ামী লীগ ও বিএনপির নিজ দলের কর্মসূচি সফল করতে আজ শনিবার নামছে সিলেটের রাজপথে। আওয়ামী লীগ শান্তি কর্মসূচি নিয়ে সিলেট কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে এবং বিএনপি গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারসহ ১০ দফা দাবিতে নগরীর রেজিস্ট্রারি মাঠে সমাবেশ করবে। উভয় কর্মসূচিতে উপস্থিত থাকছেন দল দুইটির কেন্দ্রীয় নেতারাও। এনিয়ে উভয় শিবির ও নগরীতে উত্তেজনা বিরাজ করছে।

বিরোধী দলের গ্রেপ্তারকৃত নেতাকর্মীদের মুক্তি এবং বিদ্যুৎ, গ্যাস ও নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যের দাম কমানোসহ গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারে ১০ দফা দাবিতে জানুয়ারিতেই সিলেটসহ সব বিভাগীয় শহরে সমাবেশের ঘোষণা দেয় বিএনপি। এর অংশ হিসেবে শনিবার (৪ ফেব্রুয়ারি) দুপুর ২টায় নগরীর রেজিষ্ট্রারি মাঠে সমাবেশ করবে দলটি। 

বিএনপির এই সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন দলের জাতীয় স্থায়ী কমিটির সদস্য ও সাবেক মন্ত্রী বেগম সেলিমা রহমান।

সমাবেশ সফলে এক সপ্তাহের বেশি সময় ধরে জেলা ও মহানগর বিএনপির নেতাকর্মীরা প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছেন। দলটির নেতারা সিলেট জুড়ে কর্মী সভা, পথসভা, জনসংযোগের মাধ্যমে সমাবেশে ব্যাপক জনসমাগমের চেষ্টা করছেন। সমাবেশের বিষয়টি অবহিত করে দলটির পক্ষ থেকে মহানগর পুলিশ কমিশনার বরাবরে চিঠিও দেওয়া হয়েছে।

একই দিনে সিলেটে ‘শান্তি সমাবেশ’করার ঘোষণা দেয় আওয়ামী লীগ। প্রথমে এই সমাবেশ বিএনপির সমাবেশস্থল রেজিস্টারি মাঠে করার ঘোষণা দেয় দলটি। তবে পরে স্থান পরিবর্তন করে সিলেট কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার প্রাঙ্গণে নিয়ে যাওয়া হয়। বিকেল ৩টায় এই সমাবেশ শুরু হবে।

সিলেট জেলা বিএনপির সভাপতি মো. আব্দুল কাইয়ুম বলেন, ‘আমাদের সমাবেশ হবে বরাবরের মতো শান্তিপূর্ণ। এটা জনগণের অধিকার আদায়ের আন্দোলন, এই কর্মসূচিতে সাধারণ মানুষের সমর্থন রয়েছে।’

সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক মো. জাকির হোসেন বলেন, ‘বিএনপি-জামায়াত বিভিন্ন সময়ে সিলেটের রাজপথে সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডে লিপ্ত হয়। আমরা শহীদ মিনারে এই অগ্নি সন্ত্রাসীদের বিরুদ্ধে শান্তি সমাবেশ করবো। আমরা সতর্ক অবস্থানে থাকবো। সিলেটের মাটিতে কোনো নৈরাজ্য বরদাস্ত করা হবে না।’

সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশের কমিশনার নিশারুল আরিফ বলেন, ‘পুলিশকে সম্পূর্ণ সতর্ক অবস্থায় থাকতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। নগরীর বিভিন্ন পয়েন্টে পুলিশ মোতায়েন রয়েছে। কেউ যাতে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করতে না পারে সেদিকে নজর রয়েছে আমাদের।’

নূর আহমদ/ মাসুদ

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়