ঢাকা, বুধবার, ৩০ আশ্বিন ১৪২৬, ১৬ অক্টোবর ২০১৯
Risingbd
সর্বশেষ:

নির্ধারিত মূল্যে বিক্রি হচ্ছে না গরুর মাংস

আসাদ আল মাহমুদ : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০১৯-০৫-০৮ ১১:০২:৪৪ এএম     ||     আপডেট: ২০১৯-০৫-০৮ ১২:৫৪:০৮ পিএম

নিজস্ব প্রতিবেদক : ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ডিএসসিসি) নির্ধারিত মূল্য তালিকা থাকলেও সে দামে গরুর মাংস বিক্রি হচ্ছে না।

রমজান উপলক্ষে সিটি করপোরেশনের পক্ষ থেকে দেশি গরুর মাংসের দাম ৫২৫ টাকা নির্ধারণ করা হয়। অনেক দোকানে নির্ধারিত মাংসের দাম ৫২৫ টাকার তালিকা ঝুলিয়ে রাখা হলেও ৫৫০ টাকা বা তার বেশি দামে প্রতি কেজি মাংস বিক্রি করা হচ্ছে।

বুধবার (৮ মে) রাজধানীর কয়েকটি এলাকা ঘুরে এমন চিত্র দেখা গেছে।

যাত্রাবাড়ী মাংসের দোকান খলিল গোস্ত বিতানে গিয়ে দেখা গেছে দোকানের সামনে সিটি করপোরেশন নির্ধারতি মাংসের দাম লেখা আছে ৫২৫ টাকা। কিন্তু বিক্রি হচ্ছে ৫৫০ টাকা।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে দোকানের কর্মচারী রুহুল আমিন নামে একজন জানান, আমরা ৫৫০ টাকায় বিক্রি করছি, এর কমে বিক্রি করলে আমাদের পোষায় না। তাহলে মূল্য তালিকায় ৫২৫ টাকা বাড়তি দামে কেন বিক্রি করা হচ্ছে এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, এটি বাংলাদেশ মাংস ব্যবসায়ী সমিতি থেকে দোকানে ঝুলিয়ে রাখতে বলা হয়েছে।

দোকানে যে মাংস বিক্রি হচ্ছে তা দেশি গরুর কিনা বিদেশি গরু জানতে চাইলে তিনি মন্তব্য করতে রাজি হননি। কয়েকজন ক্রেতা জানান, বিক্রি করা মাংস ভারতের গরুর।

সিটি করপোরেশন নির্ধারিত ভারতীয় বা বিদেশি বা বোল্ডার জাতীয় গরুর মাংসের দাম ৫০০ টাকা।

এ অবস্থা দেখা গেছে, দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের শনিরআখড়া বাজারের বিসমিল্লাহ গোস্ত বিতানে। দোকানটিতে সিটি করপোরেশন নির্ধারিত মাংসের দরের মূল্য তালিকা নেই। কিন্তু বিক্রি হচ্ছে ৫৫০ টাকায়।

সকাল থেকে নগরীর কয়েকটি এলাকা ঘুরে দেখা গেছে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন (ডিএসসিসি) নির্ধারিত দামে কোথাও মাংস বিক্রি হচ্ছে না। বিভিন্ন দোকানে প্রতি কেজি গরুর মাংস বিক্রি হচ্ছে ৫৫০ থেকে ৫৭০ টাকায়।

দয়াগঞ্জের বাসিন্দা আসলাম বলেন, এলাকা থেকে সকালে ৫৭০ টাকা দরে মাংস কিনেছি। সিটি করপোরেশন নির্ধারিত মাংসের দামের বিষয়ে ব্যবসায়ীদের জানালে তারা বলেন, গরু তো আর সিটি করপোরেশন থেকে কেনা যায় না। বেশি দামে গরু কিনতে হয়, সে বেশি দামে বিক্রি করি।

যাত্রাবাড়ী গিয়ে দেখা গেছে, প্রতি কেজি গরুর মাংস বিক্রি হচ্ছে ৫৫০ টাকা। খাসি বিক্রি হচ্ছে ৭৫০ টাকায়।

এ বিষয়ে ডিএসসিসি মেয়র মোহাম্মদ সাঈদ খোকন বলেন, সিটি করপোরেশন নির্ধারিত দামের চেয়ে বেশি দামে গরুর মাংস বিক্রি করে তাদের বিরুদ্ধে ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযান পরিচালনা করা হচ্ছে। মঙ্গলবার থেকে এ টিম কাজ করছে।

এ বিষয়ে বাংলাদেশ মাংস ব্যবসায়ী সমিতির মহাসচিব রবিউল আলম  বলেন, ‘সিটি করপোরেশন নির্ধারিত মাংস বিক্রির  বিষয়টি  ব্যবসায়ীদের জানানো হয়েছে। তারা নির্ধারিত দামে মাংস বিক্রি করবে।’

তিনি বলেন, ‘গাবতলী গরুর হাটে ব্যবসায়ীদের থেকে অধিক পরিমাণ হাসিল আদায়ের কারণে গরুর দামের ওপর  প্রভাব পড়ে।  ডিএসসিসির মেয়রের কাছে  দক্ষিণ সিটিতে একটি স্থায়ী গরুর হাট বসানের জন্য আবেদন করেছি। তিনি আমাদের আশ্বাস দিয়েছেন।  এটি হলে মাংসের দাম অনেকটাই  কমবে।’




রাই‌জিং‌বি‌ডি/ঢাকা/৮ মে ২০১৯/আসাদ/ইভা

ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন