ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৭ ভাদ্র ১৪২৬, ২২ আগস্ট ২০১৯
Risingbd
সর্বশেষ:

রপ্তানি বাড়ার আশা এফবিসিসিআইয়ের

নাসির উদ্দিন : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০১৯-০৭-১৬ ৫:০৭:১৫ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৯-০৭-১৬ ৫:০৭:১৫ পিএম
রপ্তানি বাড়ার আশা এফবিসিসিআইয়ের
Walton E-plaza

অর্থনৈতিক প্রতিবেদক: কোলকাতায় অনুষ্ঠিত দুদিনের ‘সিডব্লিউবিটিএ ইস্টার্ন ইন্ডিয়া ট্রেড সামিট ২০১৯’ এর মাধ্যমে ভারতের রাজ্যগুলোতে বাংলাদেশি পণ্যের রপ্তানি আরো বাড়বে বলে আশা করছে ব্যবসায়ীদের শীর্ষ সংগঠন এফবিসিসিআই।

কনফেডারেশন অব ওয়েস্ট বেঙ্গল ট্রেড এসোসিয়েশনস আয়োজিত ১৫-১৬ জুলাই অনুষ্ঠিত এ সম্মেলনের উদ্বোধন করেন এফবিসিসিআই সভাপতি শেখ ফজলে ফাহিম।  থাইল্যান্ড, বাংলাদেশ, নেপাল, ভূটান এবং ভারতের উর্ধ্বতন সরকারি কর্মকর্তা এবং ব্যবসায়ি নেতারা সম্মেলনে অংশ নিয়েছে। মঙ্গলবার এক সংবাদ বিবৃতিতে এ কথা জানান হয়।

সম্মেলন উদ্বোধন শেষে উপস্থাপিত প্রবন্ধে এফবিসিসিআই সভাপতি বলেন, ২০১৭-১৮ অর্থবছরে ভারতের সাথে বাংলাদেশের দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্য ছিল ৯ দশমিক ৫ বিলিয়ন মার্কিন ডলার। সিডব্লিউবিটিএর যেহেতু ১০ লক্ষেরও বেশি ব্যবসায়ী সদস্য রয়েছেন তাই এ সম্মেলনের মাধ্যমে ভারতের পশ্চিমবঙ্গে এবং সার্ক, বিবিআাইএন এবং বিমসটেক সদস্যভূক্ত দেশগুলোতে বাংলাদেশি পণ্যের রপ্তানি বৃদ্ধির নতুন দিগন্ত উন্মোচিত হবে বলে আশা করছে এফবিসিসিআই।

ভারতকে বাংলাদেশের অন্যতম কৌশলগত উন্নয়ন অংশীদার এবং বৃহৎ বিনিয়োগকারী দেশ হিসেবে উল্লেখ করে শেখ ফাহিম বলেন, “বাংলাদেশের বিদ্যুৎ, রেল যোগাযোগ, সড়ক ও পরিবহণ, বস্ত্র শিল্প, ব্যাংক এবং টেলিযোগাযোগ খাতে ভারতের উল্লেখযোগ্য বিনিয়োগ রয়েছে। এছাড়া বাংলাদেশ যেহেতু উন্নততর অর্থনৈতিক কাঠামোতে উন্নীত হচ্ছে তাই বেশ কয়েকটি সম্ভাবনাময় খাতগুলোতে যৌথভাবে কাজ করার সুযোগ রয়েছে। এর মধ্যে রয়েছে, হালকা, মাঝারি ও ভারি শিল্পের জন্য যৌথ উদ্যোগে উচ্চ প্রযুক্তির গবেষণা, উন্নয়ন ও উদ্ভাবন, তৃতীয় শিল্প বিপ্লব থেকে ৪র্থ শিল্প বিপ্লবে উন্নীতকরণের এ লগ্নে প্রয়োজনীয় জ্ঞান বিনিময়, বাণিজ্য, বিনিয়োগ এবং রাজস্ব কাঠামো ও নীতি পরিকল্পনার বিষয়ে প্রয়োজনীয় জ্ঞান বিনিময়, তথ্য প্রযুক্তি, ন্যানো টেকনোলজি, রোবোটিক্স, সাইবার নিরাপত্তা, কৃত্তিম বুদ্ধিমত্তা ইত্যাদি খাতে সহযোগিতা।”

এফবিসিসিআই সভাপতি আরো বলেন, বাংলাদেশে ব্যবসা পরিচালনা সহজীকরণে প্রধানমন্ত্রীর দপ্তর, সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয় এবং বাংলাদেশ বিনিয়োগ উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের সাথে এফবিসিসিআই নিবিড়ভাবে কাজ করে যাচ্ছে। এ বছরের শেষে এবং ২০২০ সাল নাগাদ এক্ষেত্রে লক্ষণীয় সাফল্য চোখে পড়বে।

পাশাপাশি বাংলাদেশ সরকারের দেয়া আকর্ষণীয় বিনিয়োগ সুবিধা গ্রহণ করে ভারতীয় বিনিয়োগকারীদেরকে 'বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চলে' এবং অন্যান্য খাতে বিনিয়োগের আহ্বান জানান তিনি।


রাইজিংবিডি/ঢাকা/১৬ জুলাই ২০১৯/নাসির/ সাজেদ

Walton AC
ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন
       

Walton AC
Marcel Fridge