ঢাকা     বৃহস্পতিবার   ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২০ ||  আশ্বিন ৯ ১৪২৭ ||  ০৬ সফর ১৪৪২

মেলায় ওয়ালটন রাইস কুকারে ১০ শতাংশ ছাড়

নিজস্ব প্রতিবেদক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১১:৫৫, ২৪ জানুয়ারি ২০২০   আপডেট: ০৫:২২, ৩১ আগস্ট ২০২০
মেলায় ওয়ালটন রাইস কুকারে ১০ শতাংশ ছাড়

‘‘ব্যাচেলর মানুষ, ছোট্ট একটি বাসা নিয়ে একা থাকি। অফিস থেকে ফিরে নিজেই রান্না করি। রান্না সহজ করতেই রাইস কুকার কেনার সিদ্ধান্ত নিলাম।

‘আমার পাশের ফ্ল্যাটের এক ভাই পরামর্শ দিলেন ওয়ালটনের রাইস কুকার কিনতে। তাই মেলায় এসেছি কেনার জন্য।” রাজধানীর শ্যাওড়াপাড়া থেকে মেলায় আসা মোহাম্মদ রাকিব হোসেন এভাবেই রাইস কুকার কেনার কথা ব‌্যক্ত করছিলেন।

রাকিব হোসেন বলেন, ‘আমার পাশের ফ্লাটের বড় ভাইও ব্যাচেলর। তিনিও নিজেই রান্না করেন। তাকে জিজ্ঞাসা করেছিলাম কোন কোম্পানির রাইস কুকার কিনব। তিনি ওয়ালটনের কথা বলেন। ওয়ালটনের রাইস কুকার নাকি খুবই ভালো মানের। তাই তার কথা মতো কিনতে এলাম।’

তিনি বলেন, ‘মেলায় রাইস কুকারে ১০ শতাংশ ছাড় পেয়েছি। এখানে নতুন নতুন মডেলের রাইস কুকার পাওয়া যায়। দেখতেও অনেক সুন্দর, নজরকাড়া।’

রাইস কুকার সম্পর্কে ওয়ালটন প্যাভিলিয়নের বিক্রয়কর্মী সাদিকা আক্তার বলেন, ‘এবারের মেলায় ওয়ালটন অনেকগুলো মডেলের নানান রঙের রাইস কুকার নিয়ে এসেছে। বিক্রিও খুব ভালো হচ্ছে। আর আজ ছুটির দিন থাকায় ক্রেতাদের খুবই ভিড়।’

তিনি বলেন, ‘‘আমাদের এখানে ১৯৯০ টাকা থেকে শুরু করে ৩২০০ টাকা পর্যন্ত মূল‌্যের রাইস কুকার পাওয়া যাচ্ছে। মেলা উপলক্ষ‌্যে সব ধরনের রাইস কুকারে ১০ শতাংশের বিশেষ ছাড় দেওয়া হচ্ছে।

‘মেলার শুরু থেকেই রাইস কুকারের মধ্যে WRC-CSS280 এবং WRC-SGA180 এই দুইটি মডেলের রাইস কুকার বেশি বিক্রি হচ্ছে। এর মধ্যে WRC-SGA180 এর দাম ১৯৯০ টাকা এবং WRC-CSS280 এর দাম একটু বেশি ৩ হাজার ৫০ টাকা। অন্যান্য মডেলের মধ্যে WRC-CGA280 এর দাম ২ হাজার ৬০০ টাকা, WRC-CGA220 এর দাম ২ হাজার ৫০০ টাকা, WRC-CGA220 এর দাম ২ হাজার ৪০০ টাকা, WMC-GCA712 এর দাম ৩ হাজার ৬০০ টাকা। এর সাথে থাকছে মেলা উপলক্ষে ১০ শতাংশের বিশেষ ছাড়। এছাড়া আরো অনেক মডেলের রাইস কুকার পাওয়া যাচ্ছে মেলায়।’’

রাইস কুকার সম্পর্কে ওয়ালটন প্যাভিলিয়ন সমন্বয়ক মোস্তফাজ্জামান সরকার বলেন, ‘ওয়ালটন রাইস কুকারের কিছু মডেলে নতুন নতুন কিছু প্রযুক্তির ছোঁয়া রয়েছে। এই কুকারে টাইম দিয়ে রান্না করা যায়। এছাড়া রান্না হয়ে যাওয়ার পরে স্বয়ংক্রিয়ভাবে রাইস কুকার বন্ধ হয়ে যায়। সকালে অফিসে যাওয়ার সময় ভাত রান্না করতে দিয়ে গেলে দুপুরে বা বিকেলে এসেও খাওয়া যাবে।’

তিনি বলেন, ‘এবারের বাণিজ্য মেলায় ওয়ালটনের বেশ কিছু মডেলের রাইস কুকার পাওয়া যাচ্ছে। এর মধ্যে বড় আকারের ২ দশমিক ৮ লিটার এবং ছোট আকারের ১ দশমিক ৮ লিটার এর রাইস কুকার রয়েছে।’

বাণিজ্য মেলায় ওয়ালটন প্যাভিলিয়ন পরিচালনার দায়িত্বে থাকা প্রতিষ্ঠানটির নির্বাহী পরিচালক মো. হুমায়ুন কবীর বলেন, ‘ওয়ালটন বাংলাদেশের সর্ববৃহৎ ইলেকট্রনিক কোম্পানি। দেশের মানুষের জীবনযাত্রাকে কীভাবে আরো সহজ ও উন্নত বিশ্বের মতো অত্যাধুনিক করা যায়, এ বিষয়ে ওয়ালটন নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে। নতুন নতুন গৃহস্থালী পণ্য এনে ওয়ালটন দেশের মানুষের জীবনযাত্রার উন্নয়নে ব্যাপক ভূমিকা রাখছে।’


ঢাকা/হাসিবুল/সনি

রাইজিংবিডি.কম

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়