RisingBD Online Bangla News Portal

ঢাকা     শনিবার   ২৮ নভেম্বর ২০২০ ||  অগ্রাহায়ণ ১৪ ১৪২৭ ||  ১১ রবিউস সানি ১৪৪২

বাংলা চলচ্চিত্রের ‘চাঁদনী’র জন্মদিন

তাহরিমা মাহজাবিন || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১২:৫৬, ২৯ অক্টোবর ২০২০  
বাংলা চলচ্চিত্রের ‘চাঁদনী’র জন্মদিন

নব্বই দশকের বাংলা সিনেমাপ্রেমীদের কাছে ‘চাঁদনী’ বেশ পরিচিত একটি নাম। এ নাম মনে পড়লেই—ডাগর ডাগর চোখ আর নজরকাড়া হাসির সেই মিষ্টি মেয়ে শাবনাজের মুখটি ভেসে ওঠে। বৃহস্পতিবার (২৯ অক্টোবর) এ অভিনেত্রীর জন্মদিন।

প্রখ্যাত পরিচালক এহতেশামের ‘চাঁদনী’ সিনেমায় নামচরিত্রে অভিনয় করেন শাবনাজ। এতে তার সঙ্গে জুটি বেঁধে পর্দায় হাজির হন নাঈম। এই যুগলের এটি অভিষেক চলচ্চিত্র। ১৯৯১ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত এ সিনেমা তুমুল জনপ্রিয়তা লাভ করে।

এরপর ‘লাভ’, ‘দিল’, ‘নির্মম’, ‘বিষের বাঁশি’, ‘চোখে চোখে’, ‘অনুতপ্ত’, ‘টাকার অহংকার’ প্রভৃতি সিনেমায় জুটি বেঁধে অভিনয় করেন তারা। অভিনয় ক্যারিয়ারে তারা জুটি বেঁধে ২১টির বেশি চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছেন। তাদের একসঙ্গে অভিনীত শেষ চলচ্চিত্রের নাম ‘ঘরে ঘরে যুদ্ধ’। ১৯৯৪ সালে মুক্তি পায় এটি।

নাঈম ছাড়াও সালমান শাহ, বাপ্পারাজ, আমিন খানের সঙ্গে বেশকিছু সিনেমায় অভিনয় করেন শাবনাজ। এরমধ্যে ব্যবসাসফল উল্লেখযোগ্য চলচ্চিত্র হলো— ‘আঞ্জুমান’, ‘মায়ের অধিকার’, ‘প্রেমের সমাধি’ প্রভৃতি।

নিজের প্রথম সিনেমার নায়ককেই জীবনের নায়ক হিসেবে বেছে নেন বাংলাদেশ চলচ্চিত্রের ‘চাঁদনী’ খ্যাত অভিনেত্রী শাবনাজ। ১৯৯৪ সালের ৫ অক্টোবর নাঈমের সঙ্গে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন তিনি। কিন্তু একই বছর তাদের জীবনে নেমে আসে নানা সংকট!

১৯৯৪ সালে প্রথম চলচ্চিত্র প্রযোজনা করেন নাঈম। তার প্রযোজিত ‘আগুন জ্বলে’ চলচ্চিত্রটি ব্যবসায়ীকভাবে ব্যর্থ হয়। যার কারণে আর্থিক সংকটে পড়েন নাঈম। একই বছর এ চিত্রনায়ক তার বাবাকে হারান। এসব ঘটনার পর পুরোপুরি চলচ্চিত্রবিমুখ হয়ে পড়েন এই দম্পতি।

বর্তমানে স্বামী ও দুই মেয়েকে নিয়েই ব্যস্ত আছেন শাবনাজ। সিনেমা ছেড়ে দিয়েছেন তা-ও প্রায় দুই যুগ আগে। কিন্তু এখনো বাংলা সিনেমাপ্রেমীদের মণিকোঠায় বসবাস করছেন তিনি।

অভিনয় জীবনে বিভিন্ন সম্মাননা পেয়েছেন শাবনাজ। ১৯৯৬ সালে ‘নির্মম’ সিনেমায় অসাধারণ অভিনয়ের জন্য সেরা অভিনেত্রী হিসেবে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার লাভ করেন এই অভিনেত্রী।

ঢাকা/শান্ত

সম্পর্কিত বিষয়:

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়