ঢাকা     বৃহস্পতিবার   ০৬ আগস্ট ২০২০ ||  শ্রাবণ ২২ ১৪২৭ ||  ১৬ জ্বিলহজ্জ ১৪৪১

ফেয়ার অ্যান্ড লাভলী এখন ‘গ্লো অ্যান্ড লাভলী’

আন্তর্জাতিক ডেস্ক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৬:২৭, ২ জুলাই ২০২০  

কনজ্যুমার জায়ান্ট ইউনিলিভার তাদের বহুল আলোচিত-সমালোচিত পণ্য ফেয়ার অ্যান্ড লাভলী’র নাম পরিবর্তন করেছে। বৃহস্পতিবার ইউনিলিভারের ভারতীয় শাখা হিন্দুস্তান ইউনিলিভার নারীদের রঙ ফর্সাকারী এই ক্রিমের নাম পরিবর্তন করা হয়েছে বলে বার্তা সংস্থা রয়টার্সকে নিশ্চিত করে। 

ত্বকের রং ফর্সাকারী ক্রিম- এমন ধারণার জন্য অনেক দিন থেকেই সমালোচিত হয়ে আসছিল ফেয়ার অ্যান্ড লাভলী। তবে সাম্প্রতিক সময়ে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে কৃষাঙ্গ নাগরিক জর্জ ফ্লয়েড হত্যাকাণ্ডের পর বিশ্বব্যাপী বর্ণবৈষম্যের বিরুদ্ধে প্রতিবাদের ঝড় উঠলে তার আঁচ লাগে ইউনিলিভারের গায়েও। এরই পরিপ্রেক্ষিতে কোম্পানিটি অবশেষে ফেয়ার অ্যান্ড লাভলী’র নাম পরিবর্তন করল। 

মেয়েদের এই ক্রিমের নতুন নাম ‘গ্লো অ্যান্ড লাভলী’ করা হয়েছে। অন্যদিকে পুরুষদের ক্রিমের নতুন নাম ‘গ্লো অ্যান্ড হ্যান্ডসাম’ রাখা হয়েছে। নতুন ব্র্যান্ড নামে আগামী কয়েক মাসের মধ্যে পণ্যগুলো বাজারে আসবে।

কোম্পানিটি জানায়, পণ্যটির নামে ফর্সাকারী বা উজ্জ্বলকারী শব্দগুলোও আর উল্লেখ থাকবে না। সৌন্দর্যের একক আদর্শকে ব্র্যান্ডটি তুলে ধরবে। বিজ্ঞাপনের ক্ষেত্রেও একই নীতি বাস্তবায়ন করবে বলে জানায়। 

আরও সার্বজনীন ও ইতিবাচক সৌন্দর্যের লক্ষ্যে ব্র্যান্ডকে এগিয়ে নিতে সম্প্রতি ‘ফেয়ার অ্যান্ড লাভলী’ ব্র্যান্ডের নাম থেকে ‘ফেয়ার’ শব্দটি বাদ দেওয়ার ঘোষণা দেয় ইউনিলিভার। পণ্যটির নতুন এই নামকরণ তারই বাস্তব প্রতিফলন। 

হিন্দুস্তান ইউনিলিভারের পর ইউনিলিভার বাংলাদেশও ‘ফেয়ার অ্যান্ড লাভলী’র নতুন এই নামকরণের বিষয়টি জানিয়েছে।

এর আগে ‘লিপটন চা’ এবং ‘ডাভ সাবান’ কর্তৃপক্ষও তাদের মার্কেটিং নীতি থেকে ফেয়ার, ফেয়ারনেস, হোয়াইট এবং হোয়াইটেনিং শব্দগুলো বাদ দেওয়া হবে বলে ঘোষণা দেয়। গত সপ্তাহে ত্বক ফর্সাকারী ক্রিম প্রস্তুতকারী আরেক বিখ্যাত প্রতিষ্ঠান লরিয়েল তাদের গার্নিয়ার ব্র্যান্ড থেকে ‘হোয়াইট’, ‘ফেয়ার’ জাতীয় শব্দ বাদ দেবে বলে জানায়। অন্যদিকে জনসন অ্যান্ড জনসন কোম্পানি তাদের ত্বক ফর্সাকারী ক্রিমের বিক্রি পুরোপুরি বন্ধ করার ঘোষণা দিয়েছে।

 

ঢাকা/ফিরোজ

রাইজিংবিডি.কম

সম্পর্কিত বিষয়:

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়