RisingBD Online Bangla News Portal

ঢাকা     রোববার   ২৯ নভেম্বর ২০২০ ||  অগ্রাহায়ণ ১৫ ১৪২৭ ||  ১১ রবিউস সানি ১৪৪২

‘রেমডিসিভিরের অনুমোদনের আগে ট্রায়ালের তথ্য বিবেচনায় নেয়নি যুক্তরাষ্ট্র

আন্তর্জাতিক ডেস্ক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৯:২৩, ২৪ অক্টোবর ২০২০   আপডেট: ১৯:২৫, ২৪ অক্টোবর ২০২০
‘রেমডিসিভিরের অনুমোদনের আগে ট্রায়ালের তথ্য বিবেচনায় নেয়নি যুক্তরাষ্ট্র

করোনার চিকিৎসার জন্য রেমডিসিভিরকে অনুমোদন দেওয়ার আগে স্বাস্থ্য কর্মকর্তাদের ট্রায়ালের তথ্যসহ সব প্রমাণ বিবেচনায় নেওয়া উচিত। শুক্রবার বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার প্রধান বিজ্ঞানী সৌম্য স্বামীনাথ এ তথ্য জানিয়েছেন।

তিনি অভিযোগ করেন, যুক্তরাষ্ট্রের নিয়ন্ত্রক সংস্থা ওষুধটির অনুমোদন দেওয়ার আগে এই বিষয়গুলো বিবেচনায় নেয়নি।

বৃহস্পতিবার জিলিড সায়েন্সের অ্যান্টিভাইরাল ওষুধ রেমডিসিভিরকে করোনায় চিকিৎসায় ব্যবহারের অনুমোদন দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের ফুড অ্যান্ড ড্রাগ অ্যাডমিনেস্ট্রেশন। এই প্রথম যুক্তরাষ্ট্রে করোনায় চিকিৎসায় কোনো ওষুধ ব্যবহারের অনুমোদন দেওয়া হলো।

এর এক সপ্তাহ আগে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা জানিয়েছিল, ট্রায়ালে দেখা করোনায় চিকিৎসায় রেমডিসিভিরের কার্যকারিতা খুবই সামান্য বলে তারা প্রমাণ পেয়েছেন।

তবে এফডিএ জানিয়েছে, তিনটি ট্রায়ালের ওপর ভিত্তি করে তারা রেমডিসিভিরের অনুমোদন দিয়েছেন। এই ট্রায়ালে এক হাজার ৬২ জন রোগী অংশ নিয়েছিলেন। গবেষণাটি পরিচালনা করেছে ন্যাশনাল ইনিস্টিটিউট অব অ্যালার্জি অ্যান্ড ইনফেকশাস ডিজিজ। এতে তারা দেখতে পেয়েছেন, রেমডিসিভির প্রয়োগ করা হলে করোনা রোগীর হাসপাতালে থাকার মেয়াদ ১০ থেকে ১৫ দিন কমে যায়।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার প্রধান বিজ্ঞানী সৌম্য স্বামীনাথ বলেছেন, ‘আমরা বিশ্বাস করি আমাদের পরীক্ষার ফল অনেক বেশি বলিষ্ঠ। আমরা আশা করছি, বিশ্বব্যাপী নিয়ন্ত্রক সংস্থাসহ বিভিন্ন দেশে যারা গাইডলাইন অনুযায়ী চিকিৎসা করছেন , তারা অন্যান্য প্রমাণের বাইরে আমাদের গবেষণার ফলগুলো বিবেচনায় রাখবেন।’


 

ঢাকা/শাহেদ

সম্পর্কিত বিষয়:

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়