ঢাকা     রোববার   ০৪ ডিসেম্বর ২০২২ ||  অগ্রহায়ণ ২০ ১৪২৯ ||  ০৯ জমাদিউল আউয়াল ১৪১৪

ইউক্রেনে যৌন সহিংসতার বিষয়টি রুশ কমান্ডাররা জানতেন

আন্তর্জাতিক ডেস্ক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ২১:৫০, ২৩ নভেম্বর ২০২২   আপডেট: ২২:১৮, ২৩ নভেম্বর ২০২২
ইউক্রেনে যৌন সহিংসতার বিষয়টি রুশ কমান্ডাররা জানতেন

ইউক্রেনে যৌন সহিংসতা চালানোর বিষয়টি রাশিয়ার সেনা কমান্ডাররা জানতেন। এমনকি ‘কিছু ক্ষেত্রে একে উৎসাহিত করা বা আদেশও দেওয়া হয়েছে।’ বুধবার ব্রিটিশ আইনজীবী ওয়েন জর্দাশের বরাত দিয়ে রয়টার্স এ তথ্য জানিয়েছে।

ওয়েন জর্দাশ রয়টার্সকে জানিয়েছেন, উত্তরে কিয়েভের রাজধানী আশেপাশের কিছু এলাকায়, যেখানে ভালোভাবে তদন্ত করা গেছে, সেখানে যৌন সহিংসতার সাথে রুশ সামরিক বাহিনীর একটি স্তর। তাতে বোঝা যাচ্ছে, এই সহিংসতার বিষয়ে ‘আরও পদ্ধতিগত স্তরে পরিকল্পনা করা হয়েছিল।’

গত ফেব্রুয়ারিতে ইউক্রেনে হামলা চালায় রাশিয়া। দীর্ঘ এই ৯ মাসে দখলকৃত অঞ্চলগুলোতে রুশ সেনারা যৌন সহিংসতা চালিয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

বার্তা সংস্থা রয়টার্স ২০ জনেরও বেশি লোকের সাক্ষাৎকার নিয়েছে যারা ভুক্তভোগীদের সাথে কাজ করেছে। এদের মধ্যে আইন প্রয়োগকারী ডাক্তার ও আইনজীবী রয়েছে। এছাড়া ধর্ষণের শিকার এবং অন্য পরিবারের সদস্যদের সাথে কথা বলেছে।

তারা ইউক্রেনের বিভিন্ন অংশে সংঘটিত রাশিয়ার সশস্ত্র বাহিনীর যৌন সহিংসতার বিবরণ দিয়েছে। তাদের ভাষ্য অনুযায়ী, নারীদের ওপর যৌন নির্যাতনের সময় অনেক পরিবারের সদস্যকে তা দেখতে বাধ্য করা হয়েছে কিংবা সহিংসতায় একাধিক সৈন্য অংশগ্রহণ করেছে বা বন্দুকের ভয় দেখিয়ে নির্যাতন চালিয়েছে।

রয়টার্স স্বাধীনভাবে বিবরণগুলো যাচাই করতে পারেনি। গত মাসে প্রকাশিত একটি প্রতিবেদনে জাতিসংঘ-নির্দেশিত তদন্ত সংস্থার প্রতিবেদনে রাশিয়ানদের আক্রমণের বৈশিষ্ট্য - পরিবারের সদস্যরা ধর্ষণের সাক্ষী হওয়াসহ নিপীড়নের শিকারদের বয়স উল্লেখ করা হয়েছে। 

উত্তর ইউক্রেনের চেরনিহিভ অঞ্চলে মার্চ মাসে রাশিয়ার ৮০তম ট্যাঙ্ক রেজিমেন্টের এক সৈনিক একটি মেয়েকে বারবার যৌন নির্যাতন করেছে এবং পরিবারের সদস্যদের হত্যার হুমকি দিয়েছে।

ঢাকা/শাহেদ

সম্পর্কিত বিষয়:

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়