RisingBD Online Bangla News Portal

ঢাকা     বৃহস্পতিবার   ০৩ ডিসেম্বর ২০২০ ||  অগ্রাহায়ণ ১৯ ১৪২৭ ||  ১৫ রবিউস সানি ১৪৪২

ভার্চুয়াল কোর্টে জামিন পেল ২০৫ শিশু

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ০৯:৩৭, ২১ মে ২০২০   আপডেট: ১০:৩৯, ২৫ আগস্ট ২০২০
ভার্চুয়াল কোর্টে জামিন পেল ২০৫ শিশু

শিশু আইন ২০১৩ অনুযায়ী আদালত আইনের সঙ্গে সংঘাতে বা সংস্পর্শে আসা শিশুদের জেলখানায় না পাঠিয়ে তাদের উন্নয়নকেন্দ্রে পাঠানো হয়। করোনা পরিস্থিতিতে নিয়মিত বিচারিক কার্যক্রম বন্ধ থাকায়, ভার্চ্যুয়াল আদালতের মাধ্যমে জামিন পেয়েছে সমাজসেবা অধিদপ্তরের অধীন ৩টি শিশু উন্নয়নকেন্দ্রের ২০৫ শিশু।

বৃহস্পতিবার (২১ মে) সমাজসেবা অধিদপ্তরের উপপরিচালক মো. সাজ্জাদুল ইসলাম এই তথ্য জানিয়েছেন।

দেশের বিচার ব্যবস্থায় এটি একটি যুগান্তকারী ঘটনা মন্তব্য করে তিনি জানান, এরই মধ্যে বিশেষ সরকারি ব্যবস্থাপনায় জামিনপ্রাপ্ত ১৩৫ শিশুকে তাদের অভিভাবকের ঠিকানায় পৌঁছে দেওয়া হয়েছে। বাকি শিশুদের ঈদের আগেই ঘরে ফেরা নিশ্চিত করা হবে।

করোনা দুর্যোগে সরকার ৯ মে ‘আদালত কর্তৃক তথ্য–প্রযুক্তি ব্যবহার অধ্যাদেশ ২০২০’ জারি করে। একই সঙ্গে উচ্চ আদালত থেকে জারি করা হয় বিশেষ নির্দেশনা। এর ফলে তথ্য-প্রযুক্তি ব্যবহার করে ভার্চ্যুয়াল আদালত পরিচালনার পথ উন্মুক্ত হয়। ১২ থেকে ১৯ মে পর্যন্ত মাত্র ৮ দিনে ভার্চ্যুয়াল কোর্টের মাধ্যমে জামিন পেয়েছে ২০৫ শিশু। এর মধ্যে শিশু উন্নয়নকেন্দ্র, টঙ্গীর ১২৭ ছেলে শিশু, যশোর কেন্দ্রের ৬৬ ছেলে শিশু ও কোনাবাড়ী কেন্দ্রের ১২ মেয়ে শিশু রয়েছে।

ভার্চ্যুয়াল আদালতের মাধ্যমে শিশুদের জামিনে মুক্ত করতে সমাজসেবা অধিদপ্তর নানামুখী উদ্যোগ ও যোগাযোগ রক্ষা করে। এ কাজে ‘সুপ্রিম কোর্ট স্পেশাল কমিটি অব চাইল্ড রাইটস’–এর চেয়ারম্যান ও বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্টের এপিলেড ডিভিশনের বিচারপতি মো. ইমান আলী গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখেন। জামিনপ্রাপ্ত শিশুদের এই কমিটির উদ্যোগে সমাজসেবা অধিদপ্তরের মাধ্যমে ইউনিসেফ, বাংলাদেশের সহযোগিতায় অভিভাবকের ঠিকানায় পৌঁছে দেওয়া নিশ্চিত করে।

প্রসঙ্গত, সমাজসেবা অধিদপ্তর দেশের তিনটি শিশু উন্নয়নকেন্দ্রে পরিচালনা করে আসছে। কেন্দ্র তিনটি গাজীপুর জেলার টঙ্গী ও কোনাবাড়ী ও যশোরে অবস্থিত। এর মধ্যে টঙ্গী ও যশোরের কেন্দ্র দুটি বালক শিশুদের জন্য ও কোনাবাড়ীর কেন্দ্রটি বালিকাদের  জন্য নির্ধারিত।


ঢাকা/হাসান/ইভা

রাইজিংবিডি.কম

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়