ঢাকা     মঙ্গলবার   ১১ আগস্ট ২০২০ ||  শ্রাবণ ২৭ ১৪২৭ ||  ২১ জ্বিলহজ্জ ১৪৪১

‘সাবরিনা অনেক তথ্য দিচ্ছেন, আমরা যাচাই করছি’

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ০৯:৩০, ১৬ জুলাই ২০২০  
‘সাবরিনা অনেক তথ্য দিচ্ছেন, আমরা যাচাই করছি’

করোনার নমুনা পরীক্ষায় প্রতারণা মামলায় জেকেজির চেয়ারম্যান, জাতীয় হৃদরোগ ইনস্টিটিউট ও হাসপাতাল থেকে বহিষ্কৃত ডা. সাবরিনার দেওয়া তথ্য যাচাই করা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন উপ-পুলিশ কমিশনার (ডিসি) ওয়ালিদ হোসেন।

বৃহস্পতিবার (১৬ জুলাই) সন্ধ্যায় তিনি এ কথা জানান।

উপ-পুলিশ কমিশনার ওয়ালিদ হোসেন রাইজিংবিডিকে বলেন, সাবরিনা অনেক গুরুত্বপূর্ণ তথ্য দিচ্ছেন।  তথ্যগুলো আমরা যাচাই করছি।

গোয়েন্দা সূত্র জানায়, রিমান্ডে সাবরিনা জেকেজির করোনা টেস্টের সনদ নিয়ে প্রতারণার কথা স্বীকার করলেও নিজেকে নির্দোষ দাবি করেছেন।  এ কারণে তার সংশ্লিষ্টতা নিশ্চিত হতে আবারও রিমান্ডে নেওয়া হবে তাকে।

তদন্ত সংশ্লিষ্টরা বলছেন, ডিবি পুলিশ সাবরিনাকে রিমান্ডে জিজ্ঞাসাবাদ করেছে। জিজ্ঞাসাবাদে তিনি কীভাবে প্রতারণার ফাঁদ পেতে করোনা নমুনা পরীক্ষা ছাড়াই ভুয়া সনদ দিতেন-সে বিষয়ে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য দিয়েছেন।

সূত্র জানায়, মার্চ মাসে সাবরিনা শেরে বাংলানগর থানায় জেকেজির পক্ষে একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করতে যান।  সে সময় সাবরিনা নিজেকে জেকেজির চেয়ারম্যান হিসেবে দাবি করেন।  এছাড়া স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়, অধিদপ্তর, হৃদরোগ হাসপাতাল, বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান বা ব্যক্তির কাছে কখনো জেকেজির সমন্বয়ক, প্রধান নির্বাহী, কিংবা প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যন বলে স্বাক্ষর বা জাহির করেন।  এছাড়া জেকেজির জন্য করোনা টেস্টের অনুমোদন নেওয়া ছাড়াও শিশুদের স্বাস্থ্য সেবা নিয়ে একটি প্রকল্পের কাজও বাগিয়ে নেওয়ার জন্য চেষ্টা করছিলেন এই চিকিৎসক।

জেকেজি নমুনা সংগ্রহ করে কোনও পরীক্ষা না করেই ১৫ হাজার ৪৬০ জনকে করোনা টেস্টের ভুয়া রিপোর্ট সরবরাহ করেছে। একটি ল্যাপটপ থেকে গুলশানে তাদের অফিসের ১৫ তলার ফ্লোর থেকে এই মনগড়া করোনা পরীক্ষার প্রতিবেদন তৈরি করে হাজার হাজার মানুষের মেইলে পাঠায় তারা। তাদের কার্যালয় থেকে জব্দ ল্যাপটপ পরীক্ষা-নিরীক্ষার পর করোনা টেস্ট জালিয়াতির এমন তথ্য পেয়েছে পুলিশ।  জানা গেছে, জেকেজির টেস্টে জনপ্রতি নেওয়া হতো সর্বনিম্ন ৫ হাজার টাকা।

প্রসঙ্গত, ২৩ জুন সাবরিনার স্বামী আরিফ চৌধুরীসহ ৬ জনকে গুলশানে জেকেজি কার্যালয় থেকে গ্রেপ্তার করে র‌্যাব।  ১২ জুলাই ডা. সাবরিনাকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।


মাকসুদ/সাইফ

রাইজিংবিডি.কম

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়