RisingBD Online Bangla News Portal

ঢাকা     বৃহস্পতিবার   ০১ অক্টোবর ২০২০ ||  আশ্বিন ১৬ ১৪২৭ ||  ১৩ সফর ১৪৪২

সিনহা হত‌্যায় যেই জড়িত থাকুক, আইনানুগ ব‌্যবস্থা নেওয়া হবে: র‌্যাব

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ২০:৫৮, ১২ আগস্ট ২০২০   আপডেট: ১০:৩৯, ২৫ আগস্ট ২০২০
সিনহা হত‌্যায় যেই জড়িত থাকুক, আইনানুগ ব‌্যবস্থা নেওয়া হবে: র‌্যাব

র‌্যাবের লোগো

কক্সবাজারের টেকনাফে অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা মোহাম্মদ রাশেদ খান হত‌্যাকাণ্ডে যেই জড়িত থাকুক তার বিরুদ্ধে আইনানুগ ব‌্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানিয়েছে র‌্যাব।

বুধবার (১২ আগস্ট) রাতে র‌্যাবের আইন ও গণমাধ‌্যম বিভাগের পরিচালক লেফটেন্যান্ট কর্নেল আশিক বিল্লাহ রাইজিংবিডিকে এ কথা বলেন।

তিনি জানান, সিনহা মোহাম্মদ রাশেদ খান নিহতের ঘটনায় পুলিশের দায়ের করা মামলার তিন সাক্ষীও ওই হত‌্যাকাণ্ডে সরাসরি জড়িত ছিল বলে তথ্য পেয়েছে র‌্যাব। এ হত‌্যাকাণ্ডের তদন্তের স্বার্থে বৃহস্পতিবার (১৩ আগস্ট) ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী এবং সিনহার দুই সহযোগী সিফাত ও শিপ্রা দেবনাথকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে।

লেফটেন্যান্ট কর্নেল আশিক বিল্লাহ বলেন, ‘নিহত সিনহার বোনের দায়ের করা হত্যা মামলা তদন্ত করবে র‌্যাব। নিরপেক্ষ ও সুষ্ঠুভাবে তদন্ত শুরু করেছি। ওই তিনজন (সাক্ষী) হত‌্যাকাণ্ডের সময় ঘটনাস্থলে ছিলেন। তারা সরাসরি মামলার সন্দেহভাজন আসামিদের সহযোগিতা করেছেন।’

রাইজিংবিডির প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘আদালত যেসব আসামিকে রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদের অনুমতি দিয়েছেন, তাদেরকেও আগামীকাল থেকে জিজ্ঞাসাবাদ করবেন তদন্ত কর্মকর্তারা। এজন্য সব ধরনের প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে। ঘটনার সঙ্গে যেই জড়িত থাকুক তদন্তে তাকে শনাক্ত করে অবশ্যই আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

গত ৩১ জুলাই রাতে টেকনাফের মেরিন ড্রাইভ সড়কের শামলাপুর তল্লাশি চৌকিতে পুলিশের গুলিতে অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা মোহাম্মদ রাশেদ খান নিহত হন। ৫ আগস্ট সিনহার বড় বোন বাদী হয়ে আদালতে টেকনাফ থানার বরখাস্তকৃত ওসি প্রদীপ কুমার দাশ, শামলাপুর পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ এসআই লিয়াকতসহ ৯ জনকে আসামি করে মামলা করেন। পরে ওসি প্রদীপসহ ৭ আসামি আদালতে আত্মসমর্পণ করেন। আদালতের আদেশে এ মামলার তদন্তের দায়িত্ব পায় র‌্যাব। পুলিশের করা মামলার তিন সাক্ষী আমিন, নিজাম উদ্দিন ও মোহাম্মদ আয়াদকে মঙ্গলবার (১১ আগস্ট) গ্রেপ্তার করে র‌্যাব।

ঢাকা/মাকসুদ/রফিক

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়