ঢাকা     রোববার   ০৯ আগস্ট ২০২০ ||  শ্রাবণ ২৫ ১৪২৭ ||  ১৯ জ্বিলহজ্জ ১৪৪১

পরিবার পরিকল্পনা মিডিয়া অ্যাওয়ার্ড ও ফেলোশিপ পেলেন সোহেল-জাহিদ

নিজস্ব প্রতিবেদক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১১:২৩, ১১ জুলাই ২০২০  
পরিবার পরিকল্পনা মিডিয়া অ্যাওয়ার্ড ও ফেলোশিপ পেলেন সোহেল-জাহিদ

মাইনুল হাসান সোহেল ও জাহিদুর রহমান (ডানে)

টানা দ্বিতীয়বারের মতো পরিবার পরিকল্পনা মিডিয়া অ্যাওয়ার্ড ২০১৯-২০ পেয়েছেন দৈনিক ইনকিলাবের সিনিয়র রিপোর্টার মাইনুল হাসান সোহেল (হাসান সোহেল)।  গত বছরও তিনি একই পুরষ্কার পান।

সম্প্রতি দৈনিক ইনকিলাবে ‘জনসংখ্যা ও বাংলাদেশ’ শীর্ষক ধারাবাহিক তিন পর্বের সিরিজ (গর্ভবতী মায়ের সেবা করোনায়ও স্বাভাবিক, কায়রো থেকে নাইরোবি এবং অলৌকিক অর্জন) প্রতিবেদনের জন্য তিনি এই পুরষ্কার পান।

শনিবার (১১ জুলাই) ‘বিশ্ব জনসংখ্যা দিবস’ উপলক্ষে ভার্চুয়াল আলোচনা সভা ও পুরষ্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক।  এ বছরও প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সেরা প্রতিবেদককে মিডিয়া অ্যাওয়ার্ড দিয়েছে পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তর।

এবার সোহেল ছাড়াও মিডিয়া অ্যাওয়ার্ডে প্রিন্ট মিডিয়া (বাংলা) পুরষ্কার পান দৈনিক সমকালের স্টাফ রিপোর্টার সাজিদা ইসলাম পারুল।  প্রিন্ট মিডিয়া (ইংরেজি) পুরষ্কার পান বাংলাদেশ পোস্টের সিনথিয়া কাইনাত নূর এবং ডেইলি স্টারের নিলীমা জাহান।  এছাড়া টেলিভিশন মিডিয়া পুরষ্কার পান গাজী টেলিভিশনের চিফ রিপোর্টার রাজু আহমেদ এবং এটিএন বাংলার সিনিয়র রিপোর্টার শারফুল আলম।

এছাড়া পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরের মিডিয়া ফেলোশিপ পেয়েছেন দৈনিক সমকালের সহ-সম্পাদক জাহিদুর রহমান।

এর আগে ২০১৪ সালে জাহিদুর রহমান ইউনিসেফ মীনা মিডিয়া অ্যাওয়ার্ড প্রিন্ট ক্যাটাগরিতে প্রথম পুরস্কার পান। ২০১৮ সালে টিআইবির দুর্নীতি বিরোধী অনুসন্ধানী সাংবাদিকতা পুরস্কার পান তিনি।

এছাড়া একশন এইড বাংলাদেশের গ্রামীণ নারী উদ্যোক্তা; ব্যবসা ও মানবাধিকার; আইন ও শালিশ কেন্দ্রের জেন্ডার ইস্যু; বাংলাদেশ এনজিওস নেটওয়ার্ক ফর রেডিও অ্যান্ড কমিউনিকেশন (বিএনএনআরসি) থেকে সংবেদনশীল সাংবাদিকতায় ফেলোশিপ পেয়েছেন। তিনি ২০০৯ সালে ফিচার প্রতিযোগিতায় ‘আলোকিত ফেনী’ পুরস্কার এবং ২০০৪ সালে ম্যাসলাইন মিডিয়া সেন্টার (এমএমসি) প্রবর্তিত ‘প্রাকৃতজন’ পুরস্কার লাভ করেন।

২০১৯ সালে কিশোর-কিশোরীদের বয়ঃসন্ধিকালীন সমস্যা নিয়ে নেদারল্যান্ডস দূতাবাসের অর্থায়নে রেড অরেঞ্জ মিডিয়া অ্যান্ড  কমিউনিকেশনের ঋতু প্রকল্প থেকে গ্রহণ করেন ফেলোশিপ এবং অ্যাওয়ার্ড। সংবাদের সামাজিক প্রভাবের কারণে নরওয়ের রাষ্ট্রদূতের কাছ থেকে ইয়ুথ স্কুল ফর সোশ্যাল এন্টারপ্রেনারস (ওয়াইএসএসই) প্রবর্তিত পুরস্কার লাভ করেন।  খাদ্য অধিকার বিষয়ক রিপোর্টিংয়ের জন্য ২০১৮ সালে জাহিদকে ফেলোশিপ অ্যাওয়ার্ড দেয় ‘খাদ্য নিরাপত্তা নেটওয়ার্ক-(খানি)’।  চলতি বছরে তিনি একশন এইড বাংলাদেশে প্রবর্তিত ‘ইয়ং জার্নালিস্ট ফেলোশিপ’ এবং ‘ইয়ং জার্নালিস্ট অ্যাওয়ার্ড’ পুরস্কার অর্জন করেন। 


সাওন/সাইফ

রাইজিংবিডি.কম

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়