RisingBD Online Bangla News Portal

ঢাকা     শুক্রবার   ০৪ ডিসেম্বর ২০২০ ||  অগ্রাহায়ণ ২০ ১৪২৭ ||  ১৭ রবিউস সানি ১৪৪২

রুয়েলের ১৩ উইকেট শিকারে সিলেট চ্যাম্পিয়ন

ক্রীড়া প্রতিবেদক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১১:৪৮, ১৭ নভেম্বর ২০১৯   আপডেট: ০৫:২২, ৩১ আগস্ট ২০২০
রুয়েলের ১৩ উইকেট শিকারে সিলেট চ্যাম্পিয়ন

ছবি : সাজ্জাদ সাকিল

ওয়ালটন জাতীয় ক্রিকেট লিগের ষষ্ঠ তথা শেষ রাউন্ডে বড় জয় পেয়েছে সিলেট বিভাগ। তাদের পেসার রুয়েল মিয়া দুই ইনিংসে চট্টগ্রামের ১৩ উইকেট শিকার করেন। তাতে দুই দিনের মাথায়ই ৯ উইকেটের বড় ব্যবধানে জয় পায় সিলেট। এই জয়ের ফলে ৬ ম্যাচ থেকে ২৬.৫৫ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় স্তরে সিলেট চ্যাম্পিয়ন হয়েছে। পাশাপাশি তারা দ্বিতীয় স্তর থেকে প্রথম স্তরে উন্নীত হল।

সংক্ষিপ্ত স্কোর :

চট্টগ্রাম বিভাগ : ১০৬/১০ ও ১৬৫/১০

সিলেট বিভাগ : ২৩০/১০ ও ৪৫/১

ফল : সিলেট ৯ উইকেটে জয়ী

ম্যাচসেরা : ‍রুয়েল মিয়া

পয়েন্ট : সিলেট ৯.৫ ও চট্টগ্রাম ১.৫।

বগুড়ার শহীদ চান্দু স্টেডিয়ামে দ্বিতীয় স্তরের এই ম্যাচে মুখোমুখি হয় চট্টগ্রাম বিভাগ ও সিলেট বিভাগ। শনিবার প্রথম দিনে সিলেটের পেসার রুয়েল মিয়া চট্টগ্রামের ১০ উইকেটের ৮টি নেন। তাতে ৩৫.১ ওভারে ১০৬ রানে অলআউট হয়ে যায়। এরপর সিলেট বিভাগ তাদের প্রথম ইনিংসে ব্যাট করতে নামে। শেষ দিকে চারজন ব্যাটসম্যান ডাক মেরে ফিরলেও মিডল অর্ডারের দৃঢ়তায় ৬৫ ওভারে ২৩০ রান তুলে অলআউট হয় সিলেট। বল হাতে চট্টগ্রামের ইফরান হোসেন নেন ৬টি উইকেট। ২টি উইকেট নেন শাখাওয়াত হোসেন। আর ব্যাট হাতে সিলেটের অমিত হাসান ৫৫, অলক কাপালি ৪১, আসাদুল্লাহ আল গালিব ৪০ ও রাহাতুল ফেরদৌস অপরাজিত ৩৯ রান করেন।

১২৪ রানে পিছিয়ে থেকে চট্টগ্রাম বিভাগ আজ রোববার দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাট করতে নামে। এবারও তারা রুয়েল মিয়ার বোলিং তোপের মুখে পড়ে। এই ইনিংসেও রুয়েল নেন ৫টি উইকেট। তাতে ৫১.১ ওভারে ১৬৫ রানে অলআউট হয় চট্টগ্রাম বিভাগ। এই ইনিংসে ব্যাট হাতে চট্টগ্রামের তিনজন ব্যাটসম্যান দুই অঙ্কের কোটায় রান করতে পারেন। তাদের মধ্যে অধিনায়ক ইরফান শুক্কুর সর্বোচ্চ ৬৬ রান করেন। ৬২ রান করেন সাকিদুর রহমান। ১০টি রান আসে সাজ্জাদুল হকের ব্যাট থেকে। বাকিদের রান ০, ০, ৬, ৪, ২, ৪, ৪, ০।

তাতে শেষ বিকেলে সিলেটের সামনে জয়ের লক্ষ্যমাত্রা দাঁড়ায় মাত্র ৪২ রান। যা ৫.৫ ওভারে ১ উইকেট হারিয়েই তুলে ফেলে সিলেট। ইমতিয়াজ হোসেন ১৪, শানাজ আহমেদ অপরাজিত ১৮ ও তৌফিক খান অপরাজিত ১১ রান করেন। একমাত্র উইকেটটি নেন ইফরান হোসেন।

ম্যাচসেরা হন রুয়েল মিয়া।

 

ঢাকা/আমিনুল

রাইজিংবিডি.কম

আরো পড়ুন  

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়