ঢাকা, সোমবার, ৩ ফাল্গুন ১৪২৬, ১৭ ফেব্রুয়ারি ২০২০
Risingbd
সর্বশেষ:

‘বিএনপিকে একেবারে ভঙ্গুর বলা সমীচীন নয়’

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০২০-০১-২৯ ২:১০:৩৬ পিএম     ||     আপডেট: ২০২০-০১-২৯ ২:১০:৩৬ পিএম

বিএনপিকে একেবারে দুর্বল কিংবা ভঙ্গুর দল বলা সমীচীন নয় বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।

বুধবার দুপুরে সচিবালয়ে সম-সাময়িক ইস্যু নিয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ মন্তব্য করেন।

তিনি বলেন, ‘বিএনপি আওয়ামী লীগের বিরোধী শক্তির একটা প্ল্যাটফর্ম। কাজেই এ শক্তিকে একেবারে দুর্বল বা ভঙ্গুর বলা সমীচীন নয়। তাদেরও সমর্থন আছে। দলের অবস্থা খারাপ থাকলে সন্ত্রাসী থাকবে না, এমন তো নয়। তাদের সমর্থক সারা দেশে আছে, এটা হলো বাস্তবতা।’

এক প্রশ্নের জবাবে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘এখন তো আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী নির্বাচন কমিশনের অধীনে ন্যস্ত। নির্বাচন কমিশন যেভাবে আদেশ দেবে, নিয়ন্ত্রণ করবে, তারা সেভাবে চলবে।’

নির্বাচনে ভোটকেন্দ্র পাহারার নামে সন্ত্রাসীরা পরিবেশ বিঘ্নিত করতে পারে- এ কারণে নির্বাচন কমিশনকে সতর্ক দৃষ্টি রাখার আহ্বান জানিয়েছেন সেতুমন্ত্রী।

তিনি বলেন, ‘এখন পর্যন্ত নির্বাচনের পরিবেশ ভালো আছে, তবে খবর আছে- নির্বাচনের দিন কেন্দ্রে পাহারার নামে সশস্ত্র সন্ত্রাসীরা পরিবেশ বিঘ্নিত করতে পারে। ভোটারদের ভোটকেন্দ্রে আসতে বাধা দিতে পারে। সে অবস্থায় নির্বাচন কমিশনকে বাড়তি সতর্কতা বজায় রাখতে হবে।’

নির্বাচনে বহিরাগতদের উপস্থিতি নিয়ে জিজ্ঞেস করা হলে সেতুমন্ত্রী বলেন, ‘আমাদের কাছে ইনফরমেশন হচ্ছে- বিএনপি সারা দেশ থেকে বহিরাগতদের এনে ঢাকায় জড়ো করছে। এদের মধ্যে চিহ্নিত সন্ত্রাসী, দাগি সন্ত্রাসীরাও রয়েছে। এটা সুষ্ঠু নির্বাচনের পথে অন্তরায় হয়ে দাঁড়াতে পারে।’

নির্বাচন কমিশনের কাছে সুনির্দিষ্ট অনুরোধ আছে কি না জানতে চাইলে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘ফ্রি অ্যান্ড ফেয়ার ইলেকশনের অন্তরায় হয়ে দাঁড়াতে পারে এমন অশুভ কোনো তৎপরতা বন্ধ করার ব্যাপারে নির্বাচন কমিশন যেন নজরদারি করে, সতর্ক থাকে। বিশেষ করে বহিরাগতদের নজরদারিতে রাখা, অস্ত্রধারী, সন্ত্রাসী ও চিহ্নিত অপরাধীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া। যাতে এরা সুষ্ঠু নির্বাচন অনুষ্ঠানে বাধা হয়ে দাঁড়াতে না পারে। এজন্য আইন প্রয়োগকারী সংস্থাকে কাজে লাগতে হবে নির্বাচন কমিশনকে।’


ঢাকা/নঈমুদ্দীন/ইভা