ঢাকা     বুধবার   ০৬ জুলাই ২০২২ ||  আষাঢ় ২২ ১৪২৯ ||  ০৬ জিলহজ ১৪৪৩

নারী উদ্যোক্তাদের পণ্যের ঈদমেলা শুরু

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ২০:১৭, ১৬ জুন ২০২২   আপডেট: ২০:৩২, ১৬ জুন ২০২২
নারী উদ্যোক্তাদের পণ্যের ঈদমেলা শুরু

রাজধানীর ধানমণ্ডিতে নারী উদ্যোক্তাদের পণ্যের ঈদমেলা শুরু হয়েছে। বৃহস্পতিবার (১৬ জুন) থেকে শুরু হওয়া এই মেলা চলবে আগামী ১৮ জুন পর্যন্ত।

ফেসবুক গ্রুপ ‘সোল সিস্টারস অফিসিয়াল’ এর আয়োজনে ঈদমেলা দর্শনার্থীদের জন্য উন্মুক্ত থাকবে প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত।

জানা গেছে, ঈদমেলায় থাকছে অনলাইন ভিত্তিক ব্যবসা পরিচালনাকারী নারী উদ্যোক্তাদের বিভিন্ন পণ‌্য। এর মধ্যে উল্লেখযোগ্য, সালোয়ার-কামিজ, শাড়ি, কুর্তা, ব্যাগ, স্যান্ডেল, জুয়েলারি, স্কিন কেয়ার, বিভিন্ন প্রসাধনী, আচার, মশলা ও খাবার। ৬৭টি ফেসবুক ভিত্তিক পেইজ তাদের পণ্য নিয়ে এই মেলায় অংশ নিয়েছে।

নারী উদ্যোক্তাদের অনুপ্রাণিত করতে এবং কমিউনিটিতে উদ্যমী ভূমিকা রাখতে এরকম একটা আয়োজনের সঙ্গে নিজেদের সম্পৃক্ত করেছেন বলে জানিয়েছেন দুই উদ্যোক্তা ‘সিম্পলিফাই ইনটেরিয়র অ্যান্ড বিল্ডার্স’র আসমিতা হোসেন এবং ‘সুয়েনিয়স’র নাজিয়া খন্দকার।

তারা বলেন, করোনাকালিন সময়ে আমাদের দেশের অনেক নারী অনলাইনের মাধ্যমে বিভিন্ন পণ্য নিয়ে ব্যবসা পরিচালনা করে আসছেন। এতে তারা যেমন সংসারে কিছুটা আর্থিক অবদান রাখছেন, তেমনি নিজেরাও স্বাবলম্বী হওয়ার চেষ্টা করছেন। সেসব নারীদের সংগঠিত করে, তাদের নিজেদের বানানো ও আমদানি করা বিভিন্ন পণ্য সবার মাঝে ছড়িয়ে দেওয়ার জন্যই আমাদের এই আয়োজন।

ঈদমেলায় রাজশাহীর সিল্কের শাড়ি, থ্রি-পিস, টু-পিস নিয়ে এসেছেন ‘ড্রেসি গার্ল’র মারুফা জাহান মুক্তি। তিনি বলেন, ‘নাটোরের মেয়ে বলে আমার এলাকার বিখ্যাত সিল্কের সঙ্গে সারা দেশের মানুষদের পরিচয় করিয়ে দেওয়ার জন্য উদ্যোগ নিয়েছি। গুণগত মান এবং পণ্যের মূল্য-এই দুটির ব্যাপারে কোনোরূপ আপোষে যেতে রাজি নই। তাই মধ্যবিত্তের নাগালের মধ্যে রেখেছি পণ্যের দাম।’

নারী উদ্যোক্তাদের পণ্য নিয়ে ঈদমেলার এই আয়োজনকে সাধুবাদ জানিয়ে মুক্তি বলেন, ‘আরো ভালো হতো যদি সব উদ্যোক্তারা দেশি পণ্য নিয়ে তাদের ব্যবসা পরিচালনা করতেন। দেশি-বিদেশি পণ্যের মিশেলে মেলা হওয়ার কারণে বিদেশি পণ্যের সঙ্গে দেশি পণ্যের প্রতিযোগিতা করতে হচ্ছে।’

আয়োজকরা জানিয়েছেন, ক্রেতা-দর্শনার্থীদের কাছ থেকে এবার সাড়া পেলে প্রতিবছরই তারা এমন মেলার আয়োজন করবেন। সবসময় খাঁটি জিনিসকে প্রাধান্য দেওয়ার চেষ্টা করবেন। কোনোভাবে রঙ ফর্সাকারী এবং ক্ষতিকারক কোনো প্রসাধনীকে তারা মেলায় স্থান দিতে রাজি নন।

ক্রেতা সাধারণকে আকৃষ্ট করার জন্য এবারের ঈদমেলায় আয়োজকদের তরফ থেকে রয়েছে গিফট ভাউচার। এক হাজার টাকার কেনাকাটা করলেই ক্রেতার জন্য রয়েছে একটি ভাউচার। যা র‍্যাফেল ড্রয়ের টিকিট হিসাবে ক্রেতাদের দেওয়া হবে।

মেলার শেষ দিন অর্থাৎ ১৮ জুন বিকেলে সব ভাউচার দিয়ে র‍্যাফেল ড্র অনুষ্ঠিত হবে। এতে বেশ কয়েকটি পুরস্কারের ব্যবস্থা থাকবে বলে জানান তারা।

মেয়া/কেআই

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়