ঢাকা, মঙ্গলবার, ২২ আষাঢ় ১৪২৭, ০৭ জুলাই ২০২০
Risingbd
সর্বশেষ:

করোনায় আক্রান্ত গর্ভবতীদের স্বাস্থ্যঝুঁকি বেশি: সিডিসি

বিজ্ঞান-প্রযুক্তি ডেস্ক : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০২০-০৬-২৮ ১০:৪৫:৩২ পিএম     ||     আপডেট: ২০২০-০৬-২৯ ১:০৩:২০ পিএম

করোনায় আক্রান্ত সাধারণ নারীদের তুলনায় গর্ভবতীদের স্বাস্থ্যঝুঁকি বেশি বলে জানিয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের সেন্টারস ফর ডিজিজ কন্ট্রোল অ্যান্ড প্রিভেনশন (সিডিসি)।

যদিও সংস্থাটির আগের গবেষণায় বলা হয়েছিল, সাধারণ ও গর্ভবতী নারীদের মধ্যে স্বাস্থ্যঝুঁকির কোনো পার্থক্য নেই। তবে নতুন গবেষণায়, গর্ভবতী নারীদের গুরুতর অসুস্থতার ঝুঁকি ৫ গুণ বেশি বলে উল্লেখ করা হয়েছে।

সিডিসির কোভিড-১৯ ডেপুটি ইনসিডেন্ট ম্যানেজার ডা. ডানা মেনি-ডেলম্যান বলেন, ‘ভালো খবরটি হলো, করোনায় আক্রান্ত সাধারণ নারীদের তুলনায় গর্ভবতী নারীদের মৃত্যুঝুঁকি কম দেখা গেছে। আর সবচেয়ে খারাপ খবরটি হলো, করোনায় আক্রান্ত হয়ে গর্ভবতী নারীদের হাসপাতালে ভর্তির হওয়ার হার বেশি এবং আইসিইউতে যাওয়া ও ভেন্টিলেটরের প্রয়োজন পড়ার ঝুঁকিও বেশি।’

যুক্তরাষ্ট্রে জানুয়ারি থেকে জুন পর্যন্ত কয়েক হাজার করোনা আক্রান্ত নারীর ওপর গবেষণায় এমন ফলাফল পেয়েছে সিডিসি। গবেষণায় দেখা গেছে করোনায় আক্রান্ত ৩২ শতাংশ গর্ভবতী নারীকে হাসপাতালে ভর্তি হতে হয়েছিল। অন্যদিকে গর্ভবতী নন করোনায় আক্রান্ত এমন নারীদের হাসপাতালে ভর্তির হার ছিল মাত্র ৬ শতাংশ।

‘সিডিসির গবেষণায় গর্ভবতী নারীদের হাসপাতালে ভর্তির কারণ উল্লেখ করা হয়নি। তাই এমনও হতে পারে, নারীরা প্রসবের জন্য হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিল’, বলেন ইউনিভার্সিটি অব পিটসবার্গ মেডিক্যাল সেন্টারের ম্যাগি-উইমেনস হসপিটালের প্রেসিডেন্ট ডা. রিচার্ড বেইগি।

ডা. মেনি-ডেলম্যান বলেন, ‘করোনা সংক্রমণ নারীর গর্ভাবস্থা, গর্ভস্থ শিশু ও নবজাতকের ওপর কেমন প্রভাব ফেলে সে সম্পর্কে এখন পর্যন্ত আমাদের কাছে কোনো তথ্য নেই। তবে আশঙ্কা রয়েছে, করোনা সংক্রমণ গর্ভপাত বা অকালে বাচ্চা প্রসবের ঝুঁকি সৃষ্টি করতে পারে।’

ডা. বেইগি বলেন, ‘বেশ কয়েকটি আন্তর্জাতিক গবেষণায় গর্ভস্থ শিশু ও নবজাতকের কোনো ঝুঁকি দেখা যায়নি।’

সিডিসির নতুন এই গবেষণার ফলাফল সুইডেনের সাম্প্রতিক একটি গবেষাণার ফলাফলের অনুরূপ। সুইডেনের ওই গবেষণায় দেখা গেছে, কোভিড-১৯ রোগে আক্রান্ত গর্ভবতী নারীদের আইসিইউটিতে ভর্তির ঘটনা ৫ গুণ বেশি ছিল। পাশাপাশি সাধারণ নারীদের তুলনায় ভেন্টিলেটর চিকিৎসার প্রয়োজন পড়েছে ৪ গুণ বেশি।

সিডিসির গবেষণায় গর্ভবতী নারীদের নিয়মিত চিকিৎসকের পরামর্শ ও সামাজিক দূরত্ব মেনে চলাসহ অন্যান্য স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার পরামর্শ দেয়া হয়েছে।


ঢাকা/ফিরোজ/মারুফ