ঢাকা     শনিবার   ১৫ আগস্ট ২০২০ ||  শ্রাবণ ৩১ ১৪২৭ ||  ২৪ জ্বিলহজ্জ ১৪৪১

প্রযুক্তি প্রশিক্ষণপ্রাপ্তদের সংবর্ধনা দিল চীনা দূতাবাস

|| রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১১:৫৩, ৭ নভেম্বর ২০১৯  
প্রযুক্তি প্রশিক্ষণপ্রাপ্তদের সংবর্ধনা দিল চীনা দূতাবাস

চলতি বছরে তথ্যপ্রযুক্তিসহ বিভিন্ন খাতে সরকারি এবং বেসরকারি খাতের দক্ষজনবল তৈরিতে প্রশিক্ষণ দিয়েছে চীন। তাদের নিয়ে এক সংবর্ধনার আয়োজন করে দেশে অবস্থিত চীনা দূতাবাস। চীন এইডের সহায়তায় চলতি বছরে ১৬টি প্রশিক্ষণ কার্যক্রমে প্রশিক্ষণ নেওয়া প্রায় সাড়ে তিন শতাধিক প্রশিক্ষণার্থীর মধ্যে প্রায় ১৭০ জনকে এ সংবর্ধনা দেওয়া হয়।

আজ বৃহস্পতিবার রাজধানীর হোটেল ওয়েস্টিনে এ সংবর্ধনা অনুষ্ঠান আয়োজিত হয়। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ঢাকায় নিযুক্ত চীনের রাষ্ট্রদূত লি জিমপিং। কি-নোট স্পিচ দেন অর্থ মন্ত্রণালয়ের আওতাধীন অর্থনৈতিক সম্পর্ক উন্নয়ন বিভাগের যুগ্ম সচিব ড. একেএম মতিউর রহমান, একই বিভাগের উপ-প্রধান মাসুমা আকতারসহ বিভিন্ন মন্ত্রনালয়ের উর্ধ্বতন ব্যক্তিবর্গ।

অনুষ্ঠানে লি জিমপিং বলেন, বাংলাদেশ ও চীনের মধ্যে নিবিড় বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক বিদ্যমান। এখানকার মানবসম্পদের প্রশিক্ষণের সহায়তা দিয়ে যাচ্ছে চীন। এছাড়াও প্রতি বছর বাংলাদেশি শিক্ষার্থীদের পড়াশোনার জন্য চীন সরকার বৃত্তি দিয়ে যাচ্ছে। ২০১৩-১৮ সালের মধ্যে প্রায় দুই হাজার ২৭৮ জন সরকারি-বেসরকারি কর্মজীবী চীন সরকারের আওতায় চীনে প্রশিক্ষণ নিয়েছে। এবছর ১৬টি কার্যক্রমে এ সংখ্যা তিন শতাধিক। বাংলাদেশের অর্থনৈতিক উন্নয়ন এবং শিক্ষার্থীদের পড়াশোনায়ও আমাদের এ ধরনের সহায়তা অব্যাহত থাকবে।

মতিউর রহমান বলেন, ২০১৬ সালে চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং বাংলাদেশে ও এবছরের জুলাইতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা চীন সফর করেন। এর থেকে দু’দেশের মধ্যেকার বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্কের নজির দেখা যায়। চীন বাংলাদেশের সর্ববৃহৎ ট্রেনিং পার্টনার। একই সঙ্গে আমাদের বিভিন্ন ধরনের ভৌত অবকাঠামো উন্নয়নেও চীন আমাদের সবচেয়ে বড় সাহায্যকারী বন্ধু। আমি আশা করি এ ধরনের প্রশিক্ষণ প্রশিক্ষণার্থীদের মধ্যে কর্মদক্ষতা বাড়িয়েছে। ফলে তাদের সংস্থাগুলো মূলত উপকৃত হবে। অনুষ্ঠানে বিভিন্ন প্রশিক্ষণ কার্যক্রমে অংশগ্রহণ করা প্রশিক্ষণার্থীদের প্রতিনিধিরাও বক্তব্য রাখেন।

চীনা সরকারের তথ্যমতে, শুধু ২০১৯ সালেই বিভিন্ন উন্নয়নশীল দেশের প্রায় পঞ্চাশ হাজার কর্মকর্তা এবং পেশাজীবি পাড়ি জমিয়েছেন চীনে। স্বল্প এবং দীর্ঘমেয়াদী বিভিন্ন প্রশিক্ষণে দক্ষতা উন্নয়নের মাধ্যমে অংশগ্রহণকারীরা নিজ নিজ অর্থনীতিতে ইতিবাচক ভূমিকা রাখছেন বলে জানিয়েছে তারা।

 

ঢাকা/ফিরোজ

রাইজিংবিডি.কম

সম্পর্কিত বিষয়:

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়