RisingBD Online Bangla News Portal

ঢাকা     মঙ্গলবার   ২৪ নভেম্বর ২০২০ ||  অগ্রাহায়ণ ১০ ১৪২৭ ||  ০৭ রবিউস সানি ১৪৪২

ক্রিকেট কূটনীতিতে হার, বিস্মিত বিসিবি সভাপতি!

ক্রীড়া প্রতিবেদক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ০৯:২৪, ১৫ জানুয়ারি ২০২০   আপডেট: ০৫:২২, ৩১ আগস্ট ২০২০
ক্রিকেট কূটনীতিতে হার, বিস্মিত বিসিবি সভাপতি!

ক্রিকেট কূটনীতিতে হার! প্রশ্ন শুনে চমকে গেলেন বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন!

দুবাইয়ে আইসিসি সভার ফাঁকে মঙ্গলবার পিসিবি চেয়ারম্যান এহসান মানির সঙ্গে বৈঠকে বসেছিলেন নাজমুল হাসান। আইসিসি চেয়ারম্যান শশাঙ্ক মনোহরের উপস্থিতিতে দুই বোর্ড প্রধানের আলোচনায় বাংলাদেশের পাকিস্তান সফর চূড়ান্ত হয়েছে।

মধ্যপ্রাচ্যের রাজনৈতিক অস্থিরতা বিবেচনায় পাকিস্তানে আপাতত টেস্ট খেলতে রাজি ছিল না বাংলাদেশ। অথচ সেখানে দুটি টেস্টের পাশাপাশি তিনটি টি-টোয়েন্টি ও একটি ওয়ানডে খেলবে বাংলাদেশ দল। এফটিপির বাইরে গিয়ে ওয়ানডে ম্যাচ যুক্ত করেছে দুই বোর্ড।  

বিসিবির এমন সিদ্ধান্তে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে বোর্ড সভাপতি নাজমুল হাসানকে নিয়ে হচ্ছে সমালোচনা। কেউ কেউ বলছেন, ক্রিকেট কূটনীতিতে হেরেছে বিসিবি!

এ নিয়ে বোর্ড প্রধানের সরাসরি উত্তর, ‘ক্রিকেট কূটনীতিতে হার! এটা কেন বলছে কোনো কারণই আমি খুঁজে পাচ্ছি না। আমি জানি না। আমার কাছে অদ্ভুত লাগছে। আমরা প্রথম থেকে যে কথা বলেছি সেটাই হয়েছে। আমার কাছে তেমনই মনে হচ্ছে।’

নাজমুল হাসানের দাবি, শুরু থেকেই বিসিবি পাকিস্তানে সংক্ষিপ্ত সফরের কথা বলে আসছে। কোনো সময়ই দীর্ঘ দিনের জন্য সফরে যাওয়ার পক্ষে তারা নন। তিন ধাপে সফর করলেও কোনোবারই ১০ দিনের বেশি পাকিস্তান থাকা লাগছে না ক্রিকেটারদের। ফলে বিসিবি নিজেদের পরিকল্পনাতেই সফর করছে বলে বুধবার দুবাই থেকে দেশে ফিরে জানালেন নাজমুল হাসান। 

‘সরকার থেকে যে বিষয়টা বলা আছে, আমরা যেরকম আগে থেকে বলেছি ওই রকমই হয়েছে। এখানটায় লিখেছে যে, প্রথমে টি-টোয়েন্টি খেলে আসবে। তারপর অবস্থা বিবেচনা করে পরবর্তী সময়ে গিয়ে টেস্টগুলো খেলে আসবে। আমরা এখনো সেই ধারাতেই আছি’- বলেছেন বিসিবি সভাপতি।

এফটিপির বাইরে ওয়ানডে যুক্ত করার কারণ জানাতে গিয়ে নাজমুল হাসান বলেছেন, ‘তিনবারে একটা সিরিজ আয়োজন করা অনেক ব্যয়বহুল। ওরা তাতেও রাজি। পাকিস্তানে গিয়ে পাকিস্তানের সাথে খেলার আগে একটা প্রস্তুতি ম্যাচ দরকার। আমাদের কাছে মনে হয়েছে টি-টোয়েন্টির চেয়ে ওয়ানডে হলে হয়তো অনুশীলনটা ভালো হবে। টি-টোয়েন্টির থেকে ওয়ানডের ওভারও বেশি। অনুশীলনের বেশি সুযোগ পাওয়া যাবে।’

তিন ধাপে পাকিস্তানে যাবে বাংলাদেশ। চলতি মাসেই খেলবে তিনটি টি-টোয়েন্টি। ফেব্রুয়ারিতে একটি টেস্ট এবং এপ্রিলে একটি ওয়ানডে ও একটি টেস্ট। 

প্রথম দফায় ২৪, ২৫ ও ২৭ জানুয়ারি লাহোরে হবে তিনটি টি-টোয়েন্টি। ক্রিকেটের সংক্ষিপ্ততম ফরম্যাটে অংশ নিতে আগামী ২২ জানুয়ারি দেশ ছাড়বে বাংলাদেশ দল।

 

ঢাকা/ইয়াসিন/পরাগ

রাইজিংবিডি.কম

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়