ঢাকা, শুক্রবার, ২২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭, ০৫ জুন ২০২০
Risingbd
সর্বশেষ:

জয়াসুরিয়ার বিশ্বরেকর্ড ও ভারতের ২৮ বছরের অপেক্ষার অবসান

ক্রীড়া ডেস্ক : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০২০-০৪-০২ ১০:৫৬:৩৯ এএম     ||     আপডেট: ২০২০-০৪-০২ ২:০০:৫২ পিএম

বিশ্বের অন্যতম বিধ্বংসী ব্যাটসম্যান হিসেবে পরিচিত ছিলেন সনাৎ জয়াসুরিয়া।

২২ গজে যেদিন টিকে যেতেন সেদিন কপাল পুড়ত বোলারদের। চোখের পলকে প্রতিপক্ষের বোলিং আক্রমণ এলোমেলো করে দিতেন। নিমিষেই লিখা হয়ে যেত ম্যাচের পান্ডুলিপি।

১৯৯৬ সালের ২ এপ্রিল ছিল তেমনই এক দিন। যেদিন পাকিস্তানের বোলারদের নাজেহাল করে ছাড়েন জয়াসুরিয়া। মাত্র ৪৮ বলে সেঞ্চুরি। সেই সময়ে সেটিই ছিল ওয়ানডে ক্রিকেটে দ্রুততম সেঞ্চুরি। তাঁর বিশ্ব রেকর্ড গড়া ইনিংসটি ছিল ১৩৪ রানের। ৬৫ বলে ১১ চার ও ১১ ছক্কায় সাজান নিজের ইনিংসটি।

সিঙ্গাপুরে অনুষ্ঠিত হওয়া সেটি ছিল প্রথম আন্তর্জাতিক ওয়ানডে। শ্রীলঙ্কা ও পাকিস্তানের ম্যাচে হয়েছিল রান উৎসব। ৬৬৪ রানের ম্যাচ শেষ পর্যন্ত জিতে নেয় লঙ্কানরা। জয়াসুরিয়ার তান্ডবে ৯ উইকেটে শ্রীলঙ্কা করেছিল ৩৪৯ রান। পাকিস্তান ৩১৫ রানের বেশি করতে পারেনি। পাঁচদিন পর পাকিস্তানের বিপক্ষে একই মাঠে মুখোমুখি হয়েছিল শ্রীলঙ্কা। পরের ম্যাচে ২৮ বলে ৭৬ করেছিলেন মাতারার সুপারস্টার।

এদিকে আজকের দিনটি ক্রিকেট বিশ্ব মনে রেখেছে আরেকটি কারণে। ২০১১ সালে আজকের দিনে ভারত জিতেছিল তাদের দ্বিতীয় বিশ্বকাপ। মুম্বাইয়ের ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়ামে প্রথম বিশ্বজয়ের ২৮ বছর পর বিশ্বকাপ জেতে ভারত। শ্রীলঙ্কাকে হারিয়ে বিশ্বকাপ জেতে টিম ইন্ডিয়া। মাহেন্দ্র সিং ধোনীর অনবদ্য ইনিংসে শ্রীলঙ্কা টানা দ্বিতীয়বারের মতো বিশ্বকাপের ফাইনালে উঠে শিরোপা হাতছাড়া করে।

ভারতের শিরোপা জয়ের রাতে অনেক হিসাব পাল্টে গিয়েছিল। ২০১১ বিশ্বকাপে আগে মাত্র দুবার লক্ষ্য তাড়া করে শিরোপা জিতেছিল দল। ফাইনালের মঞ্চে সেঞ্চুরি পাওয়া কোনো ক্রিকেটারের দল কখনো শিরোপা হাতছাড়া করেনি। সেবার মাহেলা জয়াবর্ধনে সেঞ্চুরি করলেও তাঁর দল হেরেছিল। প্রথম স্বাগতিক দেশ হিসেবে সেবারই ভারত জেতে বিশ্বকাপ।

 

ঢাকা/ইয়াসিন