Risingbd Online Bangla News Portal

ঢাকা     মঙ্গলবার   ০২ মার্চ ২০২১ ||  ফাল্গুন ১৭ ১৪২৭ ||  ১৬ রজব ১৪৪২

নিজেদের আন্ডারডগ ভাবছেন ওয়েস্ট ইন্ডিজ কোচ

ক্রীড়া প্রতিবেদক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৯:২১, ১৭ জানুয়ারি ২০২১   আপডেট: ০১:২৯, ১৮ জানুয়ারি ২০২১
নিজেদের আন্ডারডগ ভাবছেন ওয়েস্ট ইন্ডিজ কোচ

ওয়েস্ট ইন্ডিজ কোচ ফিল সিমন্সের সাফ কথা, বাংলাদেশের মাটিতে তারা আন্ডারডগ। ক্যারিবিয়ান কোচ মোটেও বাড়িয়ে বলেননি। বাংলাদেশ কেন এগিয়ে তা বিচারের জন্য যদি তিনটি মানদণ্ড বিবেচনায় আনা হয়, তাতে স্পষ্ট হয়ে যাবে ওয়েস্ট ইন্ডিজের চেয়ে বাংলাদেশ অযুত-নিযুত ব্যবধানে ভালো ও শক্তিশালী দল।

প্রথমত র‌্যাংকিং। ওয়ানডে র‌্যাংকিংয়ে বাংলাদেশের অবস্থান সাতে, ওয়েস্ট ইন্ডিজ নবম। দুই দলের রেটিং পয়েন্টের ব্যবধান ১২।

দ্বিতীয়ত সাম্প্রতিক পারফরম্যান্স। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে শেষ পাঁচ ম্যাচে বাংলাদেশ হারেনি একটি ম্যাচেও। এর মধ্যে ২০১৯ বিশ্বকাপের ম্যাচটিও আছে। যেখানে ক্যারিবিয়ানদের স্রেফ উড়িয়ে দেয় বাংলাদেশ। এছাড়া আয়ারল্যান্ডে ত্রিদেশীয় সিরিজের ফাইনাল ম্যাচটিও উল্লেখযোগ্য।

তিন নম্বরটি শক্তিমত্তা। ওয়েস্ট ইন্ডিজের একাধিক সিনিয়র এবং অভিজ্ঞ ক্রিকেটার এ সফরে আসেনি। নতুন মোড়কে অনভিজ্ঞ দল নিয়ে বাংলাদেশের বিপক্ষে নামছে তারা। অন্য দিকে বাংলাদেশ তামিম ইকবালের নেতৃত্বে খেলবে। সাকিব আল হাসান দলে ফিরেছেন। মুশফিকুর রহিম ও মাহমুদউল্লাহর ক্যারিয়ারের সূর্য এখন মধ্যগগনে। লিটন দাশ, সৌম্য সরকার ও মোস্তাফিজুর রহমানরা হয়ে উঠেছেন দলের ভরসার নাম। ফলে শক্তিমত্তায় বাংলাদেশ অনেক এগিয়ে।

সব কিছু বিবেচনায় এনে ওয়েস্ট ইন্ডিজ এ সিরিজে আন্ডারডগ হিসেবেই আছে। সিমন্স বলতে দ্বিধা করেননি, ‘আমরা এখানে আন্ডারডগ। এখানে কার বিপক্ষে খেলছি তা না ভেবে যদি নিজেদের কাজটা করে যাই তাহলেই হবে।’

বাংলাদেশ ও ওয়েস্ট ইন্ডিজ ক্রিকেট দল এ সিরিজ দিয়ে ওয়ানডে সুপার লিগে নাম লেখাচ্ছে। যেখানে প্রতিটি জয়ের জন্য পাওয়া যাবে ১০ পয়েন্ট। এ পয়েন্ট ২০২৩ বিশ্বকাপে সরাসরি খেলতে বড় প্রভাব রাখবে। অন্যথায় খেলতে হবে বাছাই পর্ব। সিমন্স চান না তার দল বাছাই পর্ব পেরিয়ে ২০২৩ বিশ্বকাপ খেলুক। এজন্য ওয়ানডে সুপার লিগের শুরুটা ভালো করতে চান ক্যারিবিয়ান কোচ, ‘বর্তমান সময়ে এ লড়াইটা খুব গুরুত্বপূর্ণ। এজন্য সিরিজ জিততে হবে। আমরা প্লে অফ খেলতে চাই না। এজন্য ভালো শুরু প্রয়োজন।’

নতুন চেহারায় বাংলাদেশে এসেছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। সিনিয়র অনেক ক্রিকেটার করোনার কারণে বাংলাদেশে আসেনি। দুই-একজন ব্যক্তিগত কারণ দেখিয়ে সরে গেছেন। অনভিজ্ঞ ও তরুণ দল পেয়েছেন সিমন্স। তবে যারাই এসেছেন তাদের সামর্থ্যে মুগ্ধ ক্যারিবিয়ান কোচ। ছেলেদের প্রশংসা করে বলেন, ‘সত্যি বলতে তারা মুগ্ধ করেছে। তাদের চোখে পারফর্ম করার ক্ষুধা দেখেছি। আমরা যা বলছি তা প্রত্যেকে করার চেষ্টা করছে। অনুশীলন কিংবা ম্যাচে পারফর্ম করার চেষ্টা করছে।’

ঢাকা/ইয়াসিন/ফাহিম

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়