Risingbd Online Bangla News Portal

ঢাকা     রোববার   ১৮ এপ্রিল ২০২১ ||  বৈশাখ ৫ ১৪২৮ ||  ০৫ রমজান ১৪৪২

আফগানিস্তানকে ধসিয়ে দুই দিনেই জিতলো জিম্বাবুয়ে

ক্রীড়া ডেস্ক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৮:৫৫, ৩ মার্চ ২০২১  
আফগানিস্তানকে ধসিয়ে দুই দিনেই জিতলো জিম্বাবুয়ে

সেঞ্চুরি করেন শন উইলিয়ামসন

জিম্বাবুয়েকে দেখে মনেই হলো না এক বছরেরও বেশি সময় পর টেস্ট খেলছে। দুবাইয়ে দুই টেস্ট সিরিজের প্রথম ম্যাচে আফগানিস্তানকে ধসিয়ে দিলো তারা। দ্বিতীয় দিন শেষ হওয়ার আধ ঘণ্টা আগে ১০ উইকেটের জয় পেলো আফ্রিকান দেশটি।

প্রথম ইনিংসে আফগানিস্তানকে ১৩১ রানে অলআউট করার পর অধিনায়ক শন উইলিয়ামসের সেঞ্চুরিতে ২৫০ রান করে জিম্বাবুয়ে। ১১৯ রানে পিছিয়ে থেকে আফগানিস্তান অনেক কষ্টে লিড নেয়। তাতে জিততে মাত্র ১৭ রানের লক্ষ্য পায় জিম্বাবুয়ে এবং বিনা উইকেট হারিয়ে তা করে ফেলে। ৩.২ ওভারে ১৭ রান করে দলটি।

৫ উইকেটে ১৩৩ রানে দ্বিতীয় দিনের খেলা শুরু করেছিল জিম্বাবুয়ে। উইলিয়ামস ৫৪ ও রায়ান বার্ল ৮ রানে ক্রিজে নামেন। স্কোরবোর্ডে মাত্র ৪টি রান যোগ করেই ভাঙে এই জুটি, বার্ল ৮ রানে আউট হন। লিড বাড়িয়ে নিতে উইলিয়ামস দারুণ সঙ্গ পান রেজিস চাকাভার কাছ থেকে। ৭৫ রানের জুটি ছিল তাদের। মাত্র ৬ রানের জন্য হাফ সেঞ্চুরি হয়নি চাকাভার, ৪৪ রান করে জহির খানের শিকার হন।

দুই ইনিংস মিলিয়ে ৬ উইকেট নেন নিয়াউচি।

একপ্রান্ত আগলে রেখে লাঞ্চের পর ১৬৯ বলে ৯ চারে সেঞ্চুরি করেন উইলিয়ামস। তাকে ফিরিয়ে ক্যারিয়ারের দ্বিতীয় টেস্টেও এক ইনিংসে পাঁচ উইকেট নেওয়ার কীর্তি গড়েন আমির হামজা। ১৭৪ বলে ১০ চারে ১০৫ রানে আউট হন উইলিয়ামস। অধিনায়ককে ফেরানোর ওভারেই ভিক্টর নিয়াউচির উইকেট নিয়ে জিম্বাবুয়েকে গুটিয়ে দেন আফগান স্পিনার। ৭৫ রান দিয়ে ৬ উইকেট নেন হামজা।

শতাধিক রানে পিছিয়ে থেকে দ্বিতীয় ইনিংস খেলতে নেমে পেসারদের তোপের মুখে পড়ে আফগানিস্তান। ব্লেসিং মুজারাবানি, নিয়াউচি ও ডোনাল্ড তিরিপানোর গতির ঝড়ে ইনিংস ব্যবধানে হারের শঙ্কায় পড়েছিল তারা। শেষ পর্যন্ত ইব্রাহিম জাদরানের হাফ সেঞ্চুরিতে সেই লজ্জা এড়ায়।

৮১ রানে ৭ উইকেট হারিয়েছিল আফগানিস্তান। শেষ পর্যন্ত ওপেনিংয়ে নামা জাদরানের ৭৬ রানের ইনিংসে লিড নেয় তারা। ৬ রানের ব্যবধানে শেষ ৩ উইকেট হারায় আফগানরা। তাতে মাত্র ১৬ রানের লিড দ্বিতীয় ইনিংসে।

নিয়াউচি ও তিরিপানো তিনটি করে উইকেট নিয়ে জিম্বাবুয়ের সেরা বোলার। প্রথম ইনিংসে চার উইকেট নেওয়ার পর মুজারাবানি শেষটায় পেয়েছেন দুই উইকেট।

১৭ রানের লক্ষ্যে নেমে দুই ওপেনার প্রিন্স মাসভাউরে ৫ ও কেভিন কাসুজা ১১ রানে অপরাজিত থেকে দলকে জেতান।

ঢাকা/ফাহিম

সম্পর্কিত বিষয়:

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়